অগ্নিকাণ্ডের পর ভেঙে পড়লো মহাকাশযান

প্রকাশিত: মার্চ ৫, ২০২১; সময়: ১০:৩৪ am |

পদ্মাটাইমস ডেস্ক : চাঁদে ২০২৩ ও মঙ্গলগ্রহে ২০২৬ সালের মধ্যে মানুষ নিয়ে যেতে চায় ইলন মাস্কের মহাকাশযান নির্মাতা প্রতিষ্ঠান স্পেসএক্স। তাই তাদের মহাকাশযান স্টারশিপের নিয়মিত পরীক্ষা হচ্ছে। কিন্তু এবারের পরীক্ষা সফল হলো না। একটি স্টারশিপ উড়ান শেষ করে অবতরণের সময় ভেঙে পড়েছে।

মঙ্গলে স্পেসএক্স যে ধরনের রকেট পাঠাবে, ‘স্টারশিপ এসএন১০’ ঠিক তেমনই। এটি সফলভাবে উড়ান শেষ করেছিল। বিপত্তি ঘটে অবতরণের সময়। এসময় রকেটটিতে আগুন ধরে যায় ও তা ভেঙে পড়ে।

প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে, মিথেন লিক করায় এই আগুন ধরেছে ও ভেঙে পড়েছে। এ নিয়ে তৃতীয় বার ভেঙে পড়লো স্পেসএক্সের রকেট। এর আগে ডিসেম্বর ও ফেব্রুয়ারিতে তা ভেঙে পড়ে।

এদিকে স্টারশিপে চড়েই চাঁদের আশপাশ ভ্রমণে যেতে চান জাপানি ধনকুবের ইয়াসাকু মায়েজাওয়া। ‘ডিয়ার মুন’ নামের এই মিশনে স্পেসএক্সের যানটির ২০২৩ সালে চাঁদের উদ্দেশ্যে পৃথিবী ছাড়ার কথা রয়েছে। তার সঙ্গে বিনা খরচে যাবেন ৮জন সাধারণ মানুষ।

ইয়াসাকু মায়েজাওয়াকে প্রশ্ন করা হয়, এতে তো ঝুঁকির সম্ভাবনা প্রচুর। তার জবাব ছিল, ‘মাস্ক বলেছেন, কোনো সমস্যা হবে না। আমি তাকে বিশ্বাস করি।’

স্টারশিপ রকেটটি আগে ‘বিগ ফ্যালকন রকেট’ (বিএফআর) নামেই পরিচিত ছিল। রকেটটিতে করে মানুষকে চাঁদের চারদিকে ভ্রমণে নেয়ার লক্ষ্য রয়েছে স্পেসএক্সের। এছাড়া মহাকাশ দিয়ে দ্রুতগতির আন্তর্জাতিক ফ্লাইট পরিচালনারও উদ্দেশ্য রয়েছে প্রতিষ্ঠানটির।

  • 8
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
উপরে