বিশ্বকাপে বুড়ো হাড়ের ভেলকি দেখানোর অপেক্ষায় যারা

প্রকাশিত: অক্টোবর ২০, ২০২১; সময়: ৭:০৫ pm |

পদ্মাটাইমস ডেস্ক : টি-২০ মানেই চার-ছক্কার ছড়াছড়ি। তরুণদের আগ্রাসী রুপ। রক্ত গরম করা পারফরমেন্স। সেখানে খানিকটা বেমানান বয়স্ক ক্রিকেটাররা। তবে চল্লিশেই যে চালশে নয় তার প্রমাণ অনেকেই দিয়ে যাচ্ছেন।

বুড়ো হাড়ে ভেলকি দেখানোতে ওস্তাদদের উদাহরণ আসলে সবার আগেই আসবে ওয়েস্ট ইন্ডিজ তারকা ক্রিস গেইলের নাম। গেইলের বয়স এখন ৪২। আরো একবার বিশ্বমঞ্চে আলোড়ন তোলার অপেক্ষায় এই ক্যারিবিয়ান। বিশ্বকাপের এবারের আসরে সবচেয়ে প্রবীণ ক্রিকেটার তিনি। তবে ব্যাট হাতে যেন সেই টগবগে তরুণ। টি-২০ ক্যারিয়ারে প্রায় দুইহাজার রানের মালিক তিনি। দুটি সেঞ্চুরির সঙ্গে আছে ১৪টি অর্ধশতক। তাইতো টি-টোয়েন্টির ফেরিওয়ালা নামে তকমা জুটেছে এই ইউনিভার্স বসের।

বয়স ৪০ পার হয়েছে এমন ক্রিকেটার আছেন আরো দুইজন। যার একজন পাকিস্তানের মোহাম্মদ হাফিজ। অপরজন ডাচ ক্রিকেটার রায়ান টেন ডেসকাটে। ৪১ বছর বয়সেও ব্যাট ও বল হাতে সমান অবদান রেখে যাচ্ছেন পাকিস্তানি অলরাউন্ডার হাফিজ। এই ফরম্যাটে প্রায় আড়াই হাজার রানের সঙ্গে নিয়েছেন ৬০ উইকেট। আর এই বয়সেও নেদারল্যান্ডসের অন্যতম ভরসা ডেসকাটে।

এরপরই আছেন আরেক পাকিস্তানি অলরাউন্ডার শোয়েব মালিক। বয়সকে সংখ্যায় পরিণত করে আরো একটি বিশ্বকাপ মঞ্চে নামার অপেক্ষায় তিনি। প্রায় আড়াই হাজার রানের সঙ্গে নিয়েছেন ২৮টি উইকেট।

৩৯ বছর বয়সে বিশ্বকাপ মাতাচ্ছেন ওমানের দুই ক্রিকেটার মোহাম্মদ নাদিম ও নাসিম খুশি। ব্যাট ও বল হাতে ওমানের ভরসা নাদিম। আর উইকেট রক্ষক নাসিম খুশি অবদান রাখছেন ব্যাট হাতেও।

এবারের বিশ্বকাপই হতে পারে এই ক্রিকেটারদের ক্যারিয়ারের শেষ আসর। বিদায় বেলায় উপলক্ষ্য কতটা রঙিন করেন তারা সেটিই দেখার অপেক্ষা।

 

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
উপরে