‘ফেক আইডি’ ভাবা সেই মেয়েটিই এখন বউ!

প্রকাশিত: মার্চ ৮, ২০২১; সময়: ৩:৪৯ pm |
খবর > খেলা

পদ্মাটাইমস ডেস্ক : যেকোনো তারকা খেলোয়াড়ের ফেসবুক প্রোফাইলে নারী ভক্তদের আনাগোণা স্বাভাবিক ব্যাপার। জাতীয় ফুটবল দলের খেলোয়াড় সোহেল রানাও ব্যতিক্রম ছিলেন না। নিয়মিত একটা আইডি থেকে প্রচুর মেসেজ পেতেন তিনি। প্রথমে ‘ফেক আইডি’ ভাবলেও গতকাল সেই সৈয়দা তামিলা সিরাজীর সঙ্গেই বিবাহবন্ধনে আবদ্ধ হয়েছেন এই মিডফিল্ডার।

২০১৫ সালের ৮ ফেব্রুয়ারি জীবনে প্রথমবার বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়ামে খেলা দেখতে এসেছিলেন তামিলা। বঙ্গবন্ধু গোল্ডকাপ ফুটবলের ফাইনাল ম্যাচ উপভোগ করতে এসেই তার নজর পড়ে সোহেল রানার ওপর। মালয়েশিয়ার বিপক্ষে লড়াই করে সেদিন বাংলাদেশ ৩–২ গোলে হেরে গেলেও তামিলার মন জিতে নিয়েছিলেন তিনি।

এরপর ফেসবুকে সোহেল রানাকে খুঁজে ফ্রেন্ড রিকুয়েস্ট দেন তামিলা। নিয়মিত মেসেজ দিতেন। তামিলার ফেসবুক আইডিকে প্রথমে ‘ফেক আইডি’ ভেবেছিলেন সোহেল। তবে প্রতিদিনই মেসেজগুলো পড়তেন। একসময় মনে হলো, পরিচিত হওয়া যাক! অতঃপর ফেসবুকে ছয় মাসের পরিচয় শেষে ধানমন্ডির এক রেস্তোরাঁয় দেখা করা।

প্রথম দর্শনেই ‘ফেক আইডি’র মানুষটিকে ভালো লেগে যায় সোহেলের। এরপর ভালো লাগা থেকে বন্ধুত্ব। প্রেম হতেও বেশি সময় লাগেনি। দুজনের ছয় বছরের প্রেম আজ বিয়ের মাধ্যমে পূর্ণতা পেয়েছে। গতকাল দুপুরে ধানমন্ডির এক রেস্তোরাঁয় সোহেল ও তামিলার পরিবার দুজনের চার হাত এক করে দিয়েছেন। এর আগে স্থানীয় এক মসজিদে পড়ানো হয় বিয়ে।

বিয়ে হলেও নতুন জামাই হিসেবে তামিলার গ্রামের বাড়ি সিরাজগঞ্জ বা ঢাকার মোহাম্মদপুরের শ্বশুরবাড়িতে বেড়ানোর কোনো সুযোগ পাচ্ছেন না সোহেল। লিগের প্রথম পর্ব শেষে বর্তমানে ছুটি কাটাচ্ছেন তিনি। তবে আগামী ১২ মার্চ থেকে জাতীয় দলের ক্যাম্প শুরু হওয়ার কথা। ফলে সেদিকেই মনোযোগ দিতে হচ্ছে এই মিডফিল্ডারকে।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
উপরে