রাজশাহীতে মেয়াদ উত্তীর্ণ লাচ্চা সেমাই বাজারজাত

প্রকাশিত: এপ্রিল ১৭, ২০২২; সময়: ১২:২৪ pm |

মিনার আলম আকাশ : রাজশাহীতে মেয়াদ উত্তীর্ণ খাবার সামগ্রী বাজারজাত করার অভিযোগ উঠেছে আহার ফুড ইন্ডাষ্ট্রির বিরুদ্ধে। ঈদকে সামনে রেখে এই প্রতিষ্ঠান অস্বাস্থ্যকর পরিবেশ এবং মেয়াদ উত্তীর্ণ সেমাইয়ে কেমিকেল মিশিয়ে পুনরায় খাবার উপযোগী করে বাজারজাত করছে। এছাড়াও এই প্রতিষ্ঠানে উৎপাদিত খাবার পণ্যে রংসহ ব্যবহার করা হচ্ছে পঁচা কিসমিস এবং মেয়াদ উত্তীর্ণ কাঁচামাল।

শনিবার (১৬ এপ্রিল) পরিচয় গোপন করে সরজমিনে গিয়ে নগরীর বিসিক এলাকার আহার ফুড ইন্ডাষ্ট্রিতে এমন চিত্র দেখা গেছে। সেখানে দেখা যায়, মেয়াদ উত্তীর্ণ লাচ্চা সেমাইয়ের সাথে নতুন করে রং মিশিয়ে ভেজে সেগুলো বাজারের পাঠানোর জন্য প্রস্তুত করা হচ্ছে। রং ও ক্যামিক্যাল দিয়ে সেগুলো ভিজিয়ে রাখার পর ভাজা হয়। পরে সেগুলো ভরা হচ্ছে প্যাকেটে। এছাড়াও সেমাইগুলো প্লাস্টিক কারখানার ছাদে অস্বাস্থ্যকর পরিবেশে শুকানো হচ্ছে। ওই লাচ্চা সেমাইগুলো গত বছরের তৈরী বলে নাম প্রকাশ না করে সেখানকার কর্মচারিরা জানায়।

এ ব্যাপারে জানতে আহার ফুড ইন্ডাষ্ট্রির মালিক এরশাদ আলীর সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে তিনি বিষয়টা অস্বীকার করেন। তিনি বলেন, নতুন কিছু কর্মচারী নেয়া হয়েছে। তারা না বুঝে হয়তো মেয়াদ উত্তীর্ণ সেমাই ভাজতে পারে। আমরা চেষ্টা করবো পরবর্তীতে যেন এমন ভুল আর না হয়।

যোগাযোগ করা হলে জাতীয় ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তরের রাজশাহী বিভাগীয় সহকারী পরিচালক হাসান-আল-মারুফ বলেন, মেয়াদ উত্তীর্ণ খাবার পণ্য সাথে সাথে ধংস করে ফেলতে হবে। এছাড়াও সেগুলো কোন কারখানায় রাখায় অপরাধ। গত বছরের মেয়াদ উত্তীর্ণ সেমাই এবার নতুন করে প্যাকেট করে বাজারজাত করা দন্ডনিয় অপরাধ। আমাদের কানে বিষয়টি এসেছে। দ্রুত বিষয়টি দেখা হবে।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
উপে