রাজশাহীতে মসজিদ ভাংচুর সংক্রান্ত মিথ্যা উস্কানির অভিযোগে গ্রেপ্তার ২

প্রকাশিত: জুন ২৫, ২০২১; সময়: ৬:১৬ pm |

নিজস্ব প্রতিবেদক : রাজশাহী মহানগরীতে মসজিদ ভাংচুর সংক্রান্ত মিথ্যা সংবাদ সম্প্রচার করে ধর্মীয় বিষয়ে উস্কানি দিয়ে সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি বিনষ্ট করে আইন-শৃঙ্খলার অবনতি ঘটনানোর চেষ্টার অপরাধে দুই জনকে আটক করেছে বোয়ালিয়া মডেল থানা পুলিশ। সেই সাথে আসামীদের দখল হতে দেশীয় অস্ত্রশস্ত্র উদ্ধার হয় এবং ঘটনার ভিডিও ফুটেজ জব্দ করা হয়। এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তির মাধ্যে এ তথ্য জানান আরএমপির মিডিয়া মুখপাত্র রুহুল কুদ্দুস।

তিনি জানান, গত ১৭ জুন ২০২১ রাত্রী ০৯.১৫ টায় বোয়ালিয়া মডেল থানার হেতেমখাঁ লিচু বাগান এলাকায় তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে স্থানীয়দের মধ্যে ইটপাটকেল নিক্ষেপ ও ধাওয়া পাল্টা ধাওয়ার ঘটনা ঘটে। উক্ত ঘটনাকে কেন্দ্র করে কতিপয় ব্যক্তি উদ্দেশ্যে প্রণোদিতভাবে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে মসজিদ ভাংচুরের মিথ্যা সংবাদ সম্প্রচার করে। এছাড়াও ধর্মপ্রাণ মুসলিম ও হিন্দু সম্প্রদায়ের মধ্যে দাঙ্গা বাধানোর চেষ্টায় ধর্মীয় অনুভূতিতে আঘাত লাগে এমন মিথ্যা সংবাদ মাইকে ঘোষণা করে এবং সম্প্রাদায়িক সম্প্রীতি বিনষ্ট করে আইন-শৃঙ্খলা পরিস্থিতি চরম অবনতি ঘটানোর চেষ্টা করে।

উক্ত ঘটনার প্রেক্ষিতে রাজশাহী মেট্রোপলিটন পুলিশের সম্মানিত পুলিশ কমিশনার মোঃ আবু কালাম সিদ্দিক নির্দেশনায় ঐ দিন বোয়ালিয়া মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ নিবারন চন্দ্র বর্মন, পিপিএম এর নেতৃত্বে বিপুল সংখ্যক পুলিশ সহস্থানীয় জনগণ, জনপ্রতিনিধি ও গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গের সহায়তায় উক্ত সাম্প্রদায়িক দাঙ্গা পরিস্থিতি মোকাবেলা করেন। এই ঘটনায় বোয়ালিয়া মডেল থানায় একটি নিয়মিত রুজু হয়।

মামলা পরবর্তীতে তদন্তকারী অফিসার এসআই ইফতেখার মোহাম্মদ আল আমিন ও আরএমপি সাইবার ক্রাইম ইউনিট ঘটনাস্থলের আশপাশের সিসিটিভি ভিডিও ফুটেজ ও সেই দিনের লাইভ ভিডিও পর্যালোচনা, তথ্য প্রযুক্তি বিশ্লেষণপূর্বক আসামী সনাক্ত করে। আসামী সনাক্তের পর ২৫ জুন ও ২৪ জুন দিবাগত রাত্রী ০২.৩০ টায় গোয়েন্দা তথ্যের ভিত্তিতে তদন্তকারী অফিসার অভিযান পরিচালনা করে রাজপাড়া থানার ডাবতলা এলাকা হতে মোঃ মনিরুল ইসলাম সুমন (৪০) এবং বোয়ালিয়া মডেল থানার সাহেব বাজার এলাকা হতে আসামী মোঃ রেজা (৩৫) কে গ্রেফতার করে। এসময় আসামীদের দখল হতে দেশীয় অস্ত্রশস্ত্র রামদা, হাঁসুয়া উদ্ধার হয় এবং ঘটনার ভিডিও ফুটেজ জব্দ করা হয়।

প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে জানা যায় উক্ত আসামীদ্বয় মিথ্যা সংবাদ মাইকিং করে ধর্মীয় অনুভূতিতে আঘাত হেনে দাঙ্গা বাধানোর চেষ্টা করেছিলো। সাক্ষ্য প্রমাণ সংগ্রহসহ সব ধরনের পুলিশি কার্যক্রম অব্যাহত রয়েছে। গ্রেফতারকৃত আসামীদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে।

  • 179
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
উপরে