মুন্ডা দম্পতির পাশে দাঁড়ালেন এক্সিম ব্যাংক

প্রকাশিত: এপ্রিল ১, ২০২১; সময়: ১০:১৮ pm |

নিজস্ব প্রতিবেদক, বাগমারা : মুন্ডা আদিবাসী দম্পতি বিষ্টু পাহান ও পূর্ণিমা পাহানের পাশে দাঁড়ালেন এক্সিম ব্যাংক। যাদের এক সময় মাথা গোঁজার ঠিকানা ছিলনা। অন্যের এক চিলতে জমিতে বসবাস করে আসছিল এ দম্পতি। সেই মুন্ডা আদিবাসীকে নিয়ে বিভিন্ন সংবাদ মাধ্যমে প্রকাশ পায় তাদের জীবন জীবিকার কথা। সেই অসহায় পরিবারের পাশে দাঁড়াতে দুগ্ধবর্তী গাভী উপহার দিলেন এক্সপোর্ট ইমপোর্ট ব্যাংক অব বাংলাদেশ লিঃ।

মুন্ডা আদিবাসী দম্পতি বিষ্টু পাহান ও পূর্ণিমা পাহানের নিজের জমিজমা বলতে কিছুই নেই তাদের। ছোট্ট একটি মাটির ঝুঁপড়ি ঘরে রাত্রীযাপন করতেন তারা। খাবারের থালা-বাসনসহ অন্যান্য প্রয়োজনীয় জিনিসপত্র রাখতেন বিছানার আরেক পাশে। মুন্ডা এই দম্পত্তি থাকেন নওগাঁর মান্দা উপজেলার ভারশোঁ ইউনিয়নের কালিসভা গ্রামের দীঘিরপাড় আদিবাসী পল্লী। বিষ্টু পাহান ও পূর্ণিমা পাহান দম্পতির দুই ছেলে ও এক মেয়ে। বড় ছেলে উকিল পাহান বুদ্ধিপ্রতিবন্ধী। ছোট ছেলে সুজন পাহান বিয়ে করে অন্য জায়গায় বসবাস করছেন। মেয়ে বিজলী পাহানকেও বিয়ে দেওয়া হয়েছে।

সংবাদ মাধ্যমে ওই দম্পত্তির খরব প্রকাশ পেলে ক্ষুদ্র-নৃ-গোষ্ঠী উন্নয়ন ফাউন্ডেশনের প্রতিষ্ঠাতা সমরেশ কুমার সরকারের পরামর্শে আয় বর্ধক কর্মসূচীর আওতায় দুগ্ধবর্তী গাভী দেয়ার সিদ্ধান্ত গ্রহণ করে এক্সিম ব্যাংক, নওগাঁ শাখা। সেই সিদ্ধান্ত বাস্তবায়ন করতে গত ৩০ মার্চ মুন্ডা আদিবাসী দম্পতি বিষ্টু পাহান ও পূর্ণিমা পাহানের বাড়িতে গাভী সহ উপস্থিত হন এক্সিম ব্যাংক নওগাঁ শাখার ব্যবস্থাপক আবুল কাশেম।

এ সময় অন্যান্যের মধ্যে ছিলেন, ক্ষুদ্র-নৃ-গোষ্ঠী উন্নয়ন ফাউন্ডেশনের প্রতিষ্ঠাতা সমরেশ কুমার সরকার, আদিবাসী পরিষদ মান্দা উপজেলা শাখার সভাপতি নীরেন ওরাও, সাধারণ সম্পাদক গোলাপ, সদস্য উজ্জল ওরাও, জনা ওরাও, সাগরিকা, সুরেশ, বিদ্যুৎ প্রামানিক, ললিত পাহান সহ এক্সিম ব্যাংক নওগাঁ শাখার কর্মকর্তাবৃন্দ।

  • 13
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
উপরে