রাজশাহীতে বিশ্বাস ঘাতক প্রেমিক গ্রেপ্তার

প্রকাশিত: জানুয়ারি ২৬, ২০২১; সময়: ৮:৫৩ pm |

নিজস্ব প্রতিবেদক : জোসনা খাতুন (ছদ্মনাম)। হারুনর রশিদের (৩০) সাথে দীর্ঘদিনের প্রেমের সম্পর্ক। এমন সম্পর্কের জেরে মেলা-মেশা। কৌশলে সেই সময়ে অশ্লীল ছবি ও ভিডিও চিত্র ধারন। সম্পর্কের অবনতিতে চাঁদা দাবি। এমন বিশ্বাস ঘাতক প্রেমিককে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।

গ্রেপ্তার হারুনুর রশিদের বাড়ি বাগমারা উপজেলার ঝিকড়া ইউনিয়নের নামকান গ্রামে। তার বাবার নাম শাহজাহান প্রামানিক। মঙ্গলবার দুপুরে হারুনকে গ্রেপ্তারের বিষয় জানাতে রাজশাহী মহানগর পুলিশের সদরদপ্তরে সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করা হয়। সেখানে বিস্তারিত তুলে ধরেন পুলিশ কমিশনার আবু কালাম সিদ্দিক।

তিনি জানান, প্রেমের সম্পর্কের জের ধরে বিভিন্ন সময়ে ওই নারীর অশ্লীল ছবি ও ভিডিও চিত্র মোবাইল ফোনে ধারণ করে এবং তা সংরক্ষণ করে রেখেছিলেন হারুন। বিভিন্ন কারণে হারুনের সাথে ওই নারীর মনোমালিন্য হওয়ায় বর্তমানে তার সাথে কোন সম্পর্ক নেই।

পুলিশ কমিশনার জানান, সম্পর্কের অবনতির জেরে গত ১১ জানুয়ারি বিকালে ওই নারী জানতে পারেন, হানুর তার মোবাইল ফোন ব্যবহার করে ভিন্ন নামে একটি ফেসবুক আইডি দিয়ে অশ্লীল ছবি ও ভিডিও চিত্র পরিচিত ব্যক্তির ম্যাসেঞ্জারে প্রেরণ করেছেন। এই বিষয়টি ওই নারী আসামী হারুনকে মোবাইল ফোনে জানালে তিনি অশ্লীল ছবি ও ভিডিও চিত্রগুলো মুছে ফেলার জন্য ৩ লাখ টাকা চাঁদা দাবি করেন। এর প্রেক্ষিতে ওই নারী মানসম্মানের ভয়ে আসামীকে ভিন্ন ভিন্ন সময় দাবিকৃত ৩ লাখ টাকা চাঁদাও প্রদান করেছেন। এরপরও আসামী হারুন অশ্লীল ছবি ও ভিডিও ফেসবুক ম্যাসেঞ্জারে প্রেরণ করেছেন।

আবু কালাম সিদ্দিক বলেন, সোমবার বোয়ালিয়া মডেল থানায় ওই নারী একটি মামলা দায়ের করেন। মামলার ভিত্তিতে রাতেই বাগমারায় নিজ বাড়ি থেকে হারুনকে গ্রেপ্তার করা হয়। এসময় গ্রেপ্তারকৃতের মোবাইল ফোন জব্দ এবং অশ্লীল ছবি ও ভিডিও চিত্র উদ্ধার করা হয়।

সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন, অতিরিক্ত উপ-পুলিশ কমিশনার সদর গোলাম রুহুল কুদ্দুস, বোয়ালিয়া জোনের এডিসি তৌহিদুল, বোয়ালিয়া মডেল থানার এসি ফারজানা নাসরিন প্রমুখ।

  • 146
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
উপরে