নিবন্ধনবিহীন অবৈধ অটো ও রিকশার চার্জ না দিতে গ্যারেজ মালিকদের প্রতি আহ্বান

প্রকাশিত: জানুয়ারি ১৪, ২০২১; সময়: ৭:২৩ pm |

নিজস্ব প্রতিবেদক : রাজশাহী মহানগরীর অটোরিকশা ও চার্জার রিকশার গ্যারেজ মালিকদের সঙ্গে রেজিস্ট্রেশনবিহীন অবৈধ অটো চার্জার রিকশা বিষয়ে মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। বৃহস্পতিবার বিকেলে নগরভবনের সিটি হল সভাকক্ষে আয়োজিত মতবিনিময় সভায় সভাপতিত্ব করেন রাসিকের প্যানেল মেয়র-১ ও ১২নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর সরিফুল ইসলাম বাবু।

রাজশাহী মহানগরীতে চলাচলকারী অটোরিকশা ও চার্জার রিকশা গ্যারেজ মালিকদের রেজিস্ট্রেশনবিহীন অবৈধ অটো চার্জার রিকশা চার্জ না দেওয়ার বিষয়ে রাসিকের পক্ষ থেকে অনুরোধ জানানো হয়েছে। এছাড়াও গ্যারেজ মালিকদের ট্রেড লাইসেন্স গ্রহণ করে বৈধভাবে ব্যবসা পরিচালনার জন্য অনুরোধ জানানো হয়েছে। অন্যথায় তাদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

সভাপতির বক্তব্যে প্যানেল মেয়র সরিফুল ইসলাম বাবু বলেন, মহানগরীতে যানজট নিরসনে চলমান অটোরিকশা ও চার্জার রিকশা সমূহ শৃঙ্খলা আনয়নের লক্ষ্যে রাজশাহী সিটি কর্পোরেশন কর্তৃক গৃহীত নীতিমালা অনুযায়ী, ছয় আসন বিশিষ্ট অটোরিশা রাজশাহী সিটি কর্পোরেশনের রেজিস্ট্রেশন নাই, ২০১৯-২০২০ রেজিস্ট্রেশন নবায়ন না থাকলে, মেরুন ও পিত্তি রং ছাড়া অন্য যেকোন রং এর অটোগাড়ী (ছয় আসন বিশিষ্ট) চলাচল করলে তা অবৈধ বলে বিবেচিত হবে। এছাড়া তিন আসন বিশিষ্ট চিকন চাকার চার্জার রিকশা, চার্জার রিকশার রাজশাহী সিটি কর্পোরেশনের রেজিস্ট্রেশন নাই, ঘ- সিরিজের সকল চার্জার রিকশার রেজিস্ট্রেশন বাতিল করা হয়েছে এছাড়াও ১৪ সাইজের অধিক চাকার চার্জার রিকশা অবৈধ বলে বিবেচিত হবে।

তিনি আরও বলেন, ছয় আসন বিশিষ্ট অটো গাড়ীর সঙ্গে রেজিস্ট্রেশন স্মার্ট কার্ড ও চালক রেজিস্ট্রেশন স্মার্ট কার্ড প্রদর্শন না করা, নিদির্ষ্ট সময় নির্দিষ্ট রং এর গাড়ী চলাচল না করলে, চালকসহ ৬ জনের অধিক যাত্রী পরিবহন করলে, ডান পাশের্^ বন্ধ না থাকলে নীতিমালা বিরোধী বলে বিবেচিত হবে। এছাড়া তিন আসন বিশিষ্ট চার্জার রিকশার সঙ্গে রেজিস্ট্রেশন স্মার্ট কার্ড ও চালক রেজিস্ট্রেশন স্মার্ট কার্ড প্রদর্শন না করা (চালকের ক্ষেত্রে যদি আবেদনই না থাকে/ আবেদন বাতিল হয়ে থাকলে, চালকসহ ৩ জনের অধিক যাত্রী পরিবহন করলে তা সিটি কর্পোরেশনের নীতিমালা বিরোধী বলে বিবেচিত হবে।

এজন্য সংশ্লিষ্ট সকলকে নীতিমালা অনুসরন করে অটোরিকশা ও চার্জার রিকশা চালানোর বিষয়ে অনুরোধ জানানো হয়েছে। ইতোমধ্যে চিকন চাকার সকল রিকশা গাড়ী অবৈধ ঘোষণা করা হয়েছে। অটোরিকশা ও চার্জার রিকশা নবায়নের মেয়াদ ১৫ জানুয়ারি পর্যন্ত নির্ধারিত করা হয়েছে। তবে আগামী ১৬ তারিখ হতে নবায়নে ১০% হারে সারচার্জ প্রযোজ্য হবে। এ বিষয়ে মাইকিং করা হবে। আগামী জুলাই মাস থেকে স্বল্পমূল্যে রিকশাহুড সরবরাহ করবে রাজশাহী সিটি কর্পোরেশন।

রাজশাহী সিটি কর্পোরেশনের মাননীয় মেয়র এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটন নগরীতে কর্মসংস্থান সৃষ্টি ও পরিবেশবান্ধব এ যানটিকে অনুমোদন দিয়েছেন। বিপুল সংখ্যক এ জনগোষ্ঠীকে সম্পৃক্ত করতে মাননীয় মেয়রের এ উদ্যোগ সফল হয়েছে। সিটি মেয়র এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটনের নেতৃত্বে রাজশাহী এখন মডেল নগরীতে পরিণত হয়েছে। সকল ক্ষেত্রে মডেল হতেও নানা উদ্যোগ গ্রহণ করা হয়েছে। নগরীর যান চলাচলে শৃঙ্খলা ফিরিয়ে আনতে ট্রাফিক বিভাগসহ সংশ্লিষ্ট সকলের সহযোগিতা কামনা করা হয়।

মতবিনিময় সভায় রাসিকের ১৩নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর মোঃ আব্দুল মমিন, ১৯নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর মোঃ তৌহিদুল হক, রাসিকের প্রধান রাজস্ব কর্মকর্তা আবু সালেহ মোঃ নুর-ঈ-সাঈদ, আরএমপি ট্রাফিকের টিআই মোফাক্কারুল ইসলাম, ট্যাক্সেশন কর্মকর্তা (লাইসেন্স) সারোয়ার হোসেন, উপ-ট্যাক্সেশন কর্মকর্তা (যান) কাজী আনোয়ারা দিল, পরিদর্শক সাইদুল ইসলাম, রাজশাহী মহানগর ইজিবাইক মালিক শ্রমিক সমবায় সমিতির সভাপতি মোঃ শরিফুল ইসলাম সাগর, সাধারণ সম্পাদক মোঃ রিমন, রাজশাহী মহানগর জাতীয় রিকশা ভ্যান শ্রমিক লীগ সভাপতি মোঃ লিয়াকত আলী, সাধারণ সম্পাদক আমিরুল ইসলাম শান্ত, রাজশাহী মহানগর ইজিবাইক শ্রমিক ইউনিয়ন মোঃ রাশেদুজ্জামান রাশেদ ও মহানগরীর অটো ও রিকশা গ্যারেজের মালিকগণ উপস্থিত ছিলেন।

  • 60
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
উপরে