সাংবাদিক আসাদের বিরুদ্ধে মামলা প্রত্যাহারে আল্টিমেটাম

প্রকাশিত: জুন ২৬, ২০১৯; সময়: ১:৩০ pm |

নিজস্ব প্রতিবেদক : আগামি ৩০ জুনের মধ্যে রাজশাহী ফটো সংবাদিক অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি আসাদুজ্জামান আসাদের উপরে হয়রানিমূলক মামলা প্রত্যাহারে দাবি জানানো সাংবাদিক নেতারা। বুধবার সকালে রাজশাহী সাহেববাজার জিরোপয়েন্টে মামলা প্রত্যাহারের দাবিতে মানববন্ধনে এ দাবি জানানো হয়।

মানববন্ধনে রাজশাহী ফটোজার্নালিস অ্যাসিয়েশনের উপদেষ্টা জাবিদ অপুর সভাপতিত্বে বক্তব্য রাখেন, দৈনিক সোনালী সংবাদ পত্রিকার সম্পাদক লিয়াকত আলী, দৈনিক সোনার দেশ পক্রিকার ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক আকবারুল হাসান মিল্লাত, দৈনিক উত্তরা প্রতিনিদের সম্পাদক আবদুল্লা আল মাহমুদ বাবলু, গণধনি পত্রিকার সম্পাদক ইয়াকুব শিকদার, রাজশাহী সংবাদিক ইউনিয়নের সভাপতি কাজী শাহেদ, সাধারণ সম্পাদক তানজিমুল হক, বাংলাদেশ ফেডারেল সাংবাদিক ইউনিয়নের সহসভাপতি মামুন অর রশীদ।

এছাড়াও মেট্রোপলিন প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক আজিজুল ইসলাম, দৈনিক সোনালী সংবাদের রির্পোটার মুক্তিযোদ্ধা তৈবুর রহমান, সাংবাদিক সরকার দুলাল মাহবুব, বুলবুল হাবিব, রাজু আহম্মেদ, রাজশাহী কলেজ রির্পোটার ইউনিটির সভাপতি বাবর আলী বক্তব্য রাখেন।

এসময় উপস্থিত ছিলেন, সাংবাদিক আনিসুজ্জামান আনিস, রিমন রহমান, শাহিনুল ইসলাম আশিক, ফেরদৌস সিদ্দিকী, রাজশাহী ফটোজার্নালিস অ্যাসিয়েশনের সাধারণ সম্পাদক সামাদ খান, রাজশাহী টেলিভিশন এ্যাসোসিয়েশনের সহ-সভাপতি হাবিবুর রহমান পাপ্পু, ফটোসাংবাদিক কবির তুহিন, শরিফুল ইসলাম তোতা, আক্তারুজ্জামান লেলিন, মেহদী হাসান, ফটোসাংবাদিক শামিউল ইসলাম শামীম, আজম খান, মিলন শেখ, মো. গুলবার আলী জুয়েল প্রমুখ।

ফটোসাংবাদিক আসাদুজ্জামান আসাদ বলেন, ভূমিদস্যু জাহিদুল ইসলাম জাহিদ নিজের সুবিধা হাসিলের জন্য ১৫ লাখ টাকার চাঁদাবাজির মামলা করায় মেজবাহ উদ্দিনকে দিয়ে। মামলায় অভিযোগ করা হয়- সাংবাদিক আসাদের লোকজন মারধর করে ৭ হাজার ৭০০ টাকা কেড়ে নেয়। এসকল অভিযোগ মিথ্যা ও ভিত্তিহীন।

তিনি বলেন, তাকে হয়রানির উদ্দেশ্যে এই মিথ্যা মামলা করা হয়েছে। মিথ্যা মামলা দিয়ে আমি ও আমার পরিবারকে এক প্রকারের বেকায়দায় ফেলার চেষ্টা করছে।

মানববন্ধনে সাংবাদিক নেতারা বলেন, আসাদ দীর্ঘ ২০ বছর ধরে রাজশাহীতে সাংবাদিকতা করেন। তার বিরুদ্ধে কোন অভিযোগ নেয়। একটি মহল চক্রান্ত করে এই ধরণের মিথ্যা মামলা করেছে। এসময় বক্তরা অবিলম্বে এই মামলা প্রত্যাহারের দাবি জানানো হয়। মামলা প্রত্যাহার না করা হলে আগামিতে রাজপথে নামবে রাজশাহী সাংবাদিক সমাজ।

প্রসঙ্গত, রাজশাহী ফটোসংবাদিক অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি আসাদুজ্জামান আসাদ দীর্ঘদিন ধরে পরিবার নিয়ে বসবাস করছেন নগরীর কাজীহাটা এলাকায়। বেশি কিছুদিন ধরে জাহিদুল ইসলাম জাহিদ ওই জমি (৬ কাঠা) দাবি করে আসছে। তিনি ২০০২ সালে নিজের জমি বলে ভুয়া দলিল তৈরী করেন বলে অভিযোগ রয়েছে।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
উপরে