পুঠিয়ায় স্কুলে গোপনে শিক্ষক প্রতিনিধি মনোনীত করার অভিযোগ

প্রকাশিত: মে ১৪, ২০১৯; সময়: ৫:৪৪ pm |

নিজস্ব প্রতিবেদক, পুঠিয়া : রাজশাহী জেলার পুঠিয়া উপজেলার নন্দনপুর উচ্চ বিদ্যালয়ে গোপনে শিক্ষক প্রতিনিধি মনোনীত করার অভিযোগ উঠেছে। জানা গেছে, একটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে ৪ জন পুরুষ অভিভাবক, ১ জন মহিলা অভিভাবক, ১ জন দাতা সদস্য, ২ জন পুরুষ শিক্ষক, ১ জন মহিলা শিক্ষক, পদাধিকার বলে প্রধান শিক্ষক সাধারণ সম্পাদক এবং একজন শিক্ষনুরাগী দিয়ে ১১ সদস্যের কমিটির মাধ্যমে শিক্ষা প্রতিষ্ঠান পরিচালনা হয়ে থাকে। ম্যানেজিং কমিটি গঠনের পূর্বে প্রচার-প্রচারণা এবং আলোচনা সভার মাধ্যমে কমিটির সদস্য মনোনীত করতে হবে।

স্কুলের শিক্ষকরা জানান, আলোচনা সভার মাধ্যমে কমিটির শিক্ষক প্রতিনিধি সদস্য মনোনীত করার নিয়ম থাকলেও প্রধান শিক্ষক মোঃ আফরোজ হোসেন গোপনে তার মনোনীত ৩ জন শিক্ষককের শুধুমাত্র স্বাক্ষর করে নেয়। যা সম্পূর্ন নিয়ম বর্হিরভূত। আমরা চাই নিয়মতান্ত্রিক ভাবে আমাদের সাথে আলাপ আলোচনার মাধ্যমে বৈধ্য ভাবে শিক্ষক প্রতিনিধি নির্বাচিত করা হোক।

স্কুলের প্রধান শিক্ষক মোঃ আফরোজ হোসেন জানান, অভিযোগটি সঠিক নয়। আমি সকল শিক্ষকদের সাথে আলাপ আলোচনা করেছি। কিন্তু সভাপতি যে তিনজন কে নির্ধারণ করেছে। আমি তাদেরকেই মনোনীত করেছি।

উল্লেখ্য, গোপনে অবৈধ্য কমিটি গঠন করায় আবেদনের প্রেক্ষিতে পুঠিয়া সহকারী জজ আদালত, রাজশাহীর সহকারী জজ মোঃ মারুফ আল্লাম গত ২৫ এপ্রিল ১৯ ইং তারিখে অস্থায়ী নিষেধাজ্ঞা মঞ্জুর করেন।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
উপরে