মেট্রোরেল নির্মাণকাজের সার্বিক অগ্রগতি ৬১ দশমিক ৪৯ শতাংশ: সেতুমন্ত্রী

প্রকাশিত: এপ্রিল ২২, ২০২১; সময়: ৩:১৭ pm |

পদ্মাটাইমস ডেস্ক : সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের জানিয়েছেন, মেট্রোরেলের নির্মাণকাজের সার্বিক অগ্রগতি ৬১ দশমিক ৪৯ শতাংশ। এছাড়া প্রথম পর্যায়ের জন্য নির্ধারিত উত্তরা তৃতীয় পর্ব থেকে আগারগাঁও অংশের পূর্ত কাজের অগ্রগতি ৮৩ দশমিক ৫২ শতাংশ। বৃহস্পতিবার নিজ সরকারি বাসভবনে নিয়মিত ব্রিফিংকালে একথা জানান তিনি।

ওবায়দুল কাদের বলেন, ইলেকট্রিক্যাল ও মেকানিক্যাল সিস্টেম এবং রোলিং স্টক ডিপো ইকুইপমেন্ট সংগ্রহ কাজের সমন্বিত অগ্রগতি শতকরা ৫২ দশমিক ২২ শতাংশ। ছয় কোচ বিশিষ্ট ২৪ সেট মেট্রোট্রেনে মোট কোচের সংখ্যা ১৪৪টি। এর মধ্যে গতকাল বুধবার প্রথম মেট্রোট্রেন সেট ঢাকার উত্তরাস্থ ডিপোর নবনির্মিত ঢাকা ম্যাস ট্রানজিট কোম্পানি লিমিটেডের (ডিএমটিসিএল) জেটিতে এসে পৌঁছেছে।

তিনি বলেন, দ্বিতীয় মেট্রোট্রেন সেটের জাহাজীকরণ জাপানের কোবে সমুদ্রবন্দরে গতকাল সম্পন্ন হয়েছে। আগামী ১৬ জুনের মধ্যে এটি মোংলা বন্দর হয়ে উত্তরাস্থ ডিপোতে পৌঁছাবে। তৃতীয় ও চতুর্থ মেট্রোট্রেন সেটের শিপমেন্টের সম্ভাব্য তারিখ ১১ জুন এবং ১৩ আগস্টের মধ্যে মোংলা বন্দর হয়ে উত্তরাস্থ ডিপোতে পৌঁছাতে পারে।

সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী আরো বলেন, জাপান থেকে পঞ্চম ট্রেন সেটের শিপমেন্টের সম্ভাব্য তারিখ ১৬ জুলাই এবং বাংলাদেশে পৌঁছানোর সম্ভাব্য তারিখ ১৭ সেপ্টেম্বর।

পরে গোপালগঞ্জ সড়ক জোন, বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন কর্পোরেশন (বিআরটিসি) ও বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন কর্তৃপক্ষের (বিআরটিএ) কর্মকর্তাদের সঙ্গে মতবিনিময় সভায় ভার্চুয়ালি যুক্ত হন ওবায়দুল কাদের।

সভায় তিনি বলেন, টুঙ্গিপাড়ায় জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের সমাধিস্থলকে কেন্দ্র করে দেশ বিদেশের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে নানান শ্রেণি-পেশার মানুষ শ্রদ্ধা জানাতে আসা-যাওয়া করে। তাই এ জোনের অধীন সড়কগুলোকে সারা বছরই মেইনটেইন এবং মনিটরিং করতে হবে।

ওবায়দুল কাদের বলেন, বিআরটিএ’র সেবা কার্যক্রমে স্বচ্ছতা আনতে হবে। দ্রুত ড্রাইভিং লাইসেন্স কার্ড সংগ্রহ করে লাইসেন্স প্রদান করা এখনই জরুরি। প্রয়োজনে ধাপে ধাপে কার্ড সরবরাহ করতে হবে।

গোপালগঞ্জ বিআরটিএ’তে অনিয়মের কথা উল্লেখ করে তিনি বলেন, এখানে দালাল চক্র সক্রিয়, কাজেই এসব অনিয়মের বৃত্ত ভাঙতে হবে। এই দালাল চক্র ভাঙতে না পারলে সঠিক সেবাদান বিঘ্ন ঘটবে। এদের সঙ্গে যারা জড়িত প্রমাণ পেলে তাদের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেয়া হবে।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
উপরে