বায়ু দূষণে আবারও ১ নম্বরে ঢাকা, করোনায় প্রভাবের শঙ্কা

প্রকাশিত: নভেম্বর ২২, ২০২০; সময়: ১০:৫০ am |

পদ্মাটাইমস ডেস্ক: বায়ু দূষণে বিশ্বের মধ্যে আবারও এক নাম্বারে উঠে এসেছে ঢাকা। প্রথম স্থানে শুধু উঠে এসেছে বললে ভুল হবে অন্য দেশগুলোর তুলনায় বিশেষ করে প্রতিবেশী দেশ ভারতের তুলনায় আজ দূষণের মাত্রা প্রায় দ্বিগুণ।

যুক্তরাষ্ট্রভিত্তিক বিশ্বের বায়ুমান যাচাই বিষয়ক প্রযুক্তি প্রতিষ্ঠান ‘এয়ার ভিজ্যুয়াল’ এর বায়ুমান সূচক (একিউআই) অনুযায়ী আজ শনিবার (২১ নভেম্বর) ঢাকায় আজ বায়ু দূষণের মানমাত্রা ৩১৫। যেখানে কলকাতা তৃতীয় অবস্থানে থাকলে সেখানে এই শহরটি মানমাত্রা ১৮৬, মুম্বাইয়ে ১৬৯ আর দিল্লিতে ১১২।

বায়ু বিশেষজ্ঞদের মতে, এই আবহাওয়াকে তারা দুর্যোগপূর্ণ বলে মনে করেন। এখনই দূষন কমাতে পদক্ষেপ না নিলে শীতকালে অর্থাৎ আগামী তিন মানে পরিস্থিতি ভয়াবহ আকার নিতে পারে।

এদিকে করোনা ভাইরাসের সংক্রমণ বেড়ে যাওয়ার শংকা অন্যদিকে বায়ু দূষণের কারণে ফুসফুস ক্ষতিগ্রস্ত হলে মৃত্যুর হারও বেড়ে যাবার শংকা প্রকাশ করছেন চিকিৎসকরা।

বিশেষজ্ঞরা বলছেন, ছয় ধরনের পদার্থ এবং গ্যাসের কারণে ঢাকায় দূষণের মাত্রা সম্প্রতি অনেক বেড়ে গেছে। এরমধ্যে ক্ষুদ্রাতিক্ষুদ্র ধূলিকণা অর্থাৎ পিএম ২.৫ এর কারণেই ঢাকায় দূষণ অতিমাত্রায় বেড়ে গেলেই পরিস্থিতি নাজুক হয়ে উঠছে।

বায়ুদূষণ বিশেষজ্ঞ ও বাংলাদেশ পরিবেশ আন্দোলনের (বাপা) যুগ্ম সম্পাদক অধ্যাপক ড. কামরুজ্জামান মজুমদার বাংলা ট্রিবিউনকে বলেন, এই দূষণ হঠাৎ করে বেড়ে যাওয়ার মূলত চারটি কারণ আছে। এর মধ্যে সবচেয়ে বড় কারণ হচ্ছে করোনার প্রভাব কাটিয়ে যানবাহনে চলাচল বেড়েছে, বাংলাদেশের আশেপাশের অঞ্চল থেকে দূষিত বাতাস আসছে ঢাকার দিকে। সাধারণত শীতকালে উত্তরের বাতাস আসা শুরু হয়। তার সাথে আসছে দূষিত কণাও। তৃতীয়ত, ঢাকায় খোঁড়াখুঁড়ির পরিমাণ বেড়েছে। নির্মান কাজের কারণে ধূলিকণা বাড়ছে এবং চলতি মাসে ইট-ভাটাগুলো চালু হওয়ার কারণেই মূলত এই দূষণ আরও বেড়ে গেছে।

তিনি জানান, বায়ু দূষণের মাত্রা ২০০ ছাড়ালেও আমরা বলি মারাত্মক অস্বাস্থ্যকর। আজ ৩০০, যাকে আমরা দুর্যোগপূর্ণ হিসেব বিবেচনা করি। এটি শীতের কেবল শুরু। শুষ্ক মৌসুমের কারণে আগামী তিনমাস এই ধরনের আবহাওয়া থাকবে। সরকার যদি এখনই বায়ু দূষণ রোধে কোনও কার্যকর পদক্ষেপ না নেয় তাহলে আগামী দিনগুলো আরো ভয়াবহ হবে বায়ু দূষণ।

এদিকে স্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞরা বলছেন, এমন পরিস্থিতিতে রাজধানীবাসী, বিশেষ করে শিশু ও বয়স্কদের মারাত্মক স্বাস্থ্যঝুঁকি রয়েছে।

কুয়াশাচ্ছন্ন ঢাকাদীর্ঘদিন বায়ুদূষণের মধ্যে থাকলে অন্যদের পাশাপাশি গর্ভবতী নারীর হৃদরোগ, ফুসফুসের সংক্রমণ-ক্যানসার, শ্বাসকষ্টজনিত রোগ (সিওপিডি), নিউমোনিয়াসহ চোখের সমস্যা, ডায়াবেটিসের ঝুঁকি বাড়ে।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে মেডিসিন বিশেষজ্ঞ অধ্যাপক ডা. এবিএম আব্দুল্লাহ বলেন, বায়ু দূষনের কারণে এমনিতে ফুসফুসের ক্ষতি হয়। ফুসফুস জনিত ব্রংকাইটিস, হাঁপানিসহ বড় অসুখ যেমন হতে পারে, তেমনি ঠান্ডা-জ্বর, সর্দিকাশি, নিউমোনিয়ার মতো অসুখও হতে পারে। এতে ফুসফুস দুর্বল হয়ে যায়। এই সময়ের জন্য অনেক সবচেয় ভয়ের কথা হচ্ছে শীতকালে করোনার প্রাদুর্ভাব বাড়বে বলে আমরা আশংকা করছি। এটি মোকাবেলার সবচেয়ে বড় হাতিয়ার হচ্ছে শক্তিশালী ফুসফুস।

তিনি আরও বলেন, এখন বায়ু দূষণের কারণে যদি আগেই আমাদের ফুসফুস আক্রান্ত ও দুর্বল হয়ে থাকে তাহলে করোনা মোকাবিলা করা আরও কঠিন হয়ে পড়বে। সেক্ষেত্রে মৃত্যুর ঝুঁকিও বাড়তে পারে বলে তিনি শংকা প্রকাশ করেন।

এই ঝুঁকি এড়াতে, খুব প্রয়োজন ছাড়া বাইরে বের না হওয়া, গেলেও মাস্ক ছাড়া বাইরে না যাওয়া, প্রচুর পানি জাতীয় খাবার খাওয়া এবং অবশ্যই ভিটামিন সি এবং ডি জাতীয় খাদ্য তালকায় রাখা জরুরি বলে জানান ডা. এবিএম আব্দুল্লাহ।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

আরও খবর

  • পিএর বিরুদ্ধে কোটি টাকা আত্মসাতের মামলা চিকিৎসকের
  • প্রধানমন্ত্রীর উপহার বাড়ি পেলেন তানোরের সেই আদিবাসী মুক্তিযোদ্ধা
  • চাঁপাইনবাবগঞ্জে হত্যা মামলায় ৭ জনের যাবজ্জীবন
  • পৌরসভায় বিএনপির মনোনয়ন পেলেন যারা
  • ৯৯৯ নম্বরে ফোন করে মিথ্যা তথ্য দিলে শাস্তি
  • ভাস্কর্য বিরোধীদের ওবায়দুল কাদেরের হুঁশিয়ারি
  • আইপিএলে জুয়া খেলে কোটিপতি কে এই শরিফ?
  • আয়কর রিটার্ন দাখিলের সময় বাড়ল ৩১ ডিসেম্বর পর্যন্ত
  • পুঠিয়ায় আওয়ামী লীগে রবি, বিএনপিতে মামুন
  • কারিতাস বাংলাদেশ রাজশাহী অঞ্চলের দুইটি প্রকল্প নিয়ে ওয়ার্কশপ
  • ধামইরহাটে অজ্ঞাত রোগে মাছে মড়ক
  • গোদাগাড়ীতে কার ছিনতাইয়ের চেষ্টা চক্রের ১ সদস্য আটক
  • সিরাজগঞ্জের শাহজাদপুরে যৌতুকের দাবীতে স্ত্রীকে শ্বাসরোধে হত্যা
  • ৩ কোটি ভ্যাকসিন বিনামূল্যে দেয়া হবে : মন্ত্রিপরিষদ সচিব
  • নুরসহ ছয়জনের বিরুদ্ধে প্রতিবেদন পেছাল
  • উপরে