তিন আসনে নৌকার টিকিট চায় ৯৪ জন মনোনয়নপ্রত্যাশী

প্রকাশিত: জুন ১১, ২০২১; সময়: ৮:১৭ pm |

পদ্মাটাইমস ডেস্ক : তিন আসনের উপনির্বাচনে আ.লীগের মনোনয়নপ্রত্যাশী ৯৪ জন। প্রত্যাশীর আধিক্য সাংগঠনিক দুর্বলতার প্রকাশ বলছেন নেতারা।

কেন্দ্র থেকে ওয়ার্ড পর্যায়ের নেতাসহ তিনটি সংসদীয় আসনের উপনির্বাচনে আওয়ামী লীগের মনোনয়নপ্রত্যাশী ৯৪ জন। তাদের মধ্যে প্রয়াত তিন সাংসদের স্ত্রীসহ স্বজনরাও আছেন। তবে সব ধরনের নেতাকর্মীই মনোনয়ন চাচ্ছেন বলে দলের ভেতরেই এ নিয়ে কথা উঠেছে। যদিও দলের দপ্তর থেকে বলা হচ্ছে, প্রার্থীদের অতীত সম্পর্কে জেনেই মনোনয়ন ফরম বিতরণে সতকর্তা অবলম্বন করায় প্রার্থী সংখ্যা অনেক কম হয়েছে।

ঢাকা ১৪ আসনে উপ নির্বাচনে দলের মনোনয়ন ফরম সংগ্রহ করতে নানান প্রশ্নের মুখে পড়েন ওয়ার্ড পর্যায়ের এক নেতা। পরে নিশ্চিত হয়ে মনোনয়ন ফরম দেয়া হয় তাকে।

গত ৪ঠা জুন থেকে ১০ই জুন পর্যন্ত চলে সংসদীয় তিন উপ নির্বাচনে আওয়ামী লীগের মনোনয়ন ফরম বিতরণ কার্যক্রম। ৯৪ জন প্রার্থীর মধ্যে বিভিন্ন সহযোগী সংগঠনের হেভিওয়েট নেতাকর্মী ছাড়াও প্রয়াত তিন সাংসদের স্ত্রী ও স্বজনারও আছেন। দলীয় মনোনয়ন ফরম কিনেছেন বিভিন্ন নাম সর্বস্ব সামাজিক সংগঠনের নেতা, পেশাজীবী ও ব্যবসায়ীরা।

সংসদ সদস্য হওয়ার দৌড়ে শামিল হবার এমন প্রবণতাকে দলের অভ্যন্তরের সাংগঠনিক দূর্বলতার ফল বলে মনে করেন দলটির নেতারা।

আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুব উল আলম হানিফ বলেন, নির্বাচনী মাঠে প্রতিপক্ষ হিসেবে সেরকম শক্ত কোন রাজনৈতিক দলের অস্তিত্ব এখন দেখা যাচ্ছে না। সে কারণেই অনেকে মনে করেন নৌকার মনোনয়ন পেলেই হয়ত আমরা বিজয় করতে পারবো। এই ধারণা থেকেই প্রার্থীর সংখ্যা বাড়ছে এবং আগ্রহী হচ্ছে। সংগঠনের মধ্যে যখন কোন দুর্বলতা থাকে তখনই একাধিক প্রার্থী হওয়ার আকাঙ্খা দেখা যায়।

আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক এস এম কামাল হোসেন বলেন, লোক জমায়েত বা বেশি লোক নিয়ে এলেই কিন্তু মনোনয়ন পাওয়া যায় না। মনোনয়ন সেই ব্যক্তি পাবে যার উপর জনগণের আস্থা আছে। যারা দলের দুঃসময়ে পাশে ছিলেন তাদের খবর জননেত্রী শেখ হাসিনার কাছেও আছে।

চলচ্চিত্র অভিনেতা মনোয়ার হোসেন ডিপজল এবং সংসদ সদস্য ইলিয়াস মোল্লার ভাই এখলাস মোল্লাকেও আওয়ামী লীগের দলীয় কোন পরিচয় না থাকায় মনোনয়ন দেয়া হয়নি।

তবে ফরম বিতরণের ক্ষেত্রে প্রার্থীদের অতীত ও বর্তমান অবস্থানকে যাচাই করা হচ্ছে বলে জানান দলের দপ্তর সম্পাদক বিপ্লব বড়ুয়া। তিনি বলেন, যখনই আমরা কোন নির্বাচনের জন্য মনোনয়ন ফরম বিতরণ করি অধিক মাত্রায় সতর্ক থাকার চেষ্টা করি। আগ্রহী প্রার্থীদের অতীত রাজনৈতিক, সামাজিক কর্মকান্ড সম্পর্কে যতটুকু জানা যায় আমরা জেনে তারপর স্থির করি কাকে মনোনয়ন দেয়া যায়।

আগামীকাল শনিবার গণভবনে দলের মনোনয়ন বোর্ডের সভায় তিন সংসদীয় আসনের উপ-নির্বাচনের প্রার্থিতা চুড়ান্ত করা হবে।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
উপরে