টিকটককে নারী পাচারের প্ল্যাটফর্ম হিসেবে ব্যবহার করা হচ্ছে

প্রকাশিত: জুন ৬, ২০২১; সময়: ৯:২০ pm |
খবর > জাতীয়

পদ্মাটাইমস ডেস্ক : টিকটককে নারী পাচারের প্ল্যাটফর্ম হিসেবে ব্যবহার করছে হৃদয় বাবুর মত অপরাধীরা। এই চক্রে হৃদয় বাবুর সাথে জড়িত প্রায় ৫০০ টিকটক, হোয়াটস অ্যাপ, ফেসবুক গ্রুপ ও আইডি শনাক্ত করেছে পুলিশ। জড়িতদের গ্রেপ্তারে চলছে অভিযান।

টিকটকসহ সামাজিক মাধ্যমে নানা কনটেন্ট দিয়ে অর্থ উপার্জন ও রাতারাতি তারকা বানিয়ে দেয়ার প্রলোভন কিশোরী ও তরুণীদের। প্রলোভনে পা দিলেই নানা কৌশলে ভারতে তাদের পাচার করত চক্রটি।

সম্প্রতি ভারতে বাংলাদেশি এক তরুণীকে নির্যাতনের ভিডিও ভাইরালে হলে তদন্তে বেরিয়ে আসে এসব তথ্য। জানা গেছে, পাচারকারী চক্রের সক্রিয় সদস্য ভারতে গ্রেপ্তার হওয়া হৃদয় বাবু ২০২০ সালের ফেব্রুয়ারি থেকে বিভিন্ন সময়ে নারায়ণগঞ্জের ফতুল্লার এডভেঞ্চার ল্যান্ড পার্ক, গাজীপুরের আফরিন রিসোর্টসহ নানা জায়গায় ৭০০ থেকে ৮০০ তরুণ-তরুণী নিয়ে টিকটক হ্যাং আউট পার্টি, পুল পার্টি আয়োজন করেছে।

পরবর্তীতে এই পুল পার্টিতে অংশ নেয়া তরুণীদের টিকটক স্টার বানিয়ে দেয়া কিংবা উচ্চ বেতনে বিউটি পার্লারে চাকরির প্রলোভন দেখিয়ে বিদেশে পাচার করে দেয়া হতো।

ডিসি মোহাম্মদ শহীদুল্লাহ বলেন, বাংলাদেশের দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চল ও ভারতের কয়েকটি রাজ্যের অপরাধীদের সমন্বয়ে গঠিত হয়েছে এই সংঘবদ্ধ আন্তর্জাতিক মানবপাচার চক্র। ভারতে হৃদয়সহ কয়েকজন এবং দেশেও চক্রের কয়েক সদস্য গ্রেপ্তার হয়েছে। তবে এই চক্রের অনেক সদস্য এখনও তৎপর। তাদের কঠোর হাতে দমন করা হবে বলছে পুলিশ।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
উপরে