ঢাকায় মোদিবিরোধী মিছিলে ছাত্রলীগের হামলা, আহত ২০

প্রকাশিত: মার্চ ২৩, ২০২১; সময়: ৮:৩৮ pm |

পদ্মাটাইমস ডেস্ক : ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির বাংলাদেশে আগমনের বিরোধিতা করে বামপন্থী ছাত্র সংগঠনগুলোর মিছিলে ছাত্রলীগের হামলায় অন্তত ২০ জন আহত হয়েছে বলে জানিয়েছেন প্রগতিশীল ছাত্রজোটের সমন্বয়ক আল কাদেরি জয়। আহতদের মধ্যে ১১ নেতাকর্মী ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালে চিকিৎসাধীন।

মঙ্গলবার বিকেল সাড়ে পাঁচটার দিকে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) টিএসসি এলাকায় এ হামলার ঘটনা ঘটে।

প্রগতিশীল ছাত্রজোটের সমন্বয়ক আল কাদেরি জয়  জানান, পূর্ব ঘোষিত কর্মসূচি অনুযায়ী বিকেলে প্রগতিশীল ছাত্র সংগঠনসমূহের ব্যানারে মোদির আগমনের বিরোধিতা করে ঢাবি টিএসসি এলাকা থেকে বিক্ষোভ মিছিল বের হয়। মিছিলটি মোদির কুশপুত্তলিকা নিয়ে শাহবাগ যায়। সেখান থেকে এসে রাজু ভাস্কর্যের সামনে এসে সমাবেশ করতে জড়ো হলে ছাত্রলীগ তাদের ওপর হামলা চালায়।

তিনি বলেন, ‘আমরা শান্তিপূর্ণভাবে সমাবেশ করছিলাম। কিন্তু, ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা অতর্কিতভাবে আমাদের ওপর হামলা চালায়।’

সমাজতান্ত্রিক ছাত্র ফ্রন্টের ঢাবি সভাপতি সালমান সিদ্দিকি ঢামেক থেকে জানান, হামলার ঘটনায় আহত আট-থেকে দশ জনের অবস্থা গুরুতর। তাদের অনেকের মাথা ফেটে গেছে।

আহতরা হলেন, সমাজতান্ত্রিক ছাত্র ফ্রন্টের কেন্দ্রীয় কমিটির সভাপতি মাসুদ রানা (৩২), সাধারণ সম্পাদক রাশেদ শাহরিয়ার (৩৫), ইডেন কলেজ শাখার সাধারণ সম্পাদক শাহিনুর সুমি (২৪), ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় শাখার সাধারণ সম্পাদক প্রগতি বর্মণ তমা (২২), ছাত্র ইউনিয়নের কেন্দ্রীয় কমিটির সাংগঠনিক সম্পাদক সুমাইয়া সেতু (২৩), জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় শাখার গবেষণা বিষয়ক সম্পাদক আসমানি আশা (১৮), ঢাবি শাখার সহসাধারণ সম্পাদক মেঘ মল্লার বসু (২৪), বিপ্লবী ছাত্র মৈত্রীর ঢাবি শাখার সংগঠক জাবির আহমেদ জুবেল (২২) জান্নাতুল ফেরদৌস (২৪), ইমন (২৯)ও অন্তু (২৪)।

এ সময় দায়িত্ব পালনকালে দুই সাংবাদিক আহত হয়েছেন। তারা হলেন–দেশ রূপান্তরের ফটোসাংবাদিক রুবেল রশীদ ও মানবজমিনের জীবন আহমেদ।

যোগাযোগ করা হলে ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় সাধারণ সম্পাদক লেখক ভট্টাচার্য বলেন, ‘বামপন্থী ছাত্র সংগঠনগুলো নিজেদের মধ্যে মারামারি করে ছাত্রলীগের ওপর দায় চাপাচ্ছে। ক্যাম্পাসে আমাদের নেতাকর্মীরা বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকী ও স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী উপলক্ষে পূর্বঘোষিত কর্মসূচি পালন করছেন। বাম ছাত্র সংগঠনগুলো নিজেদের মধ্যে সংঘর্ষের সময় ইট পাটকেল ছুঁড়লে আমাদের নেতা কর্মীরাও আহত হয়।’

হামলার প্রতিবাদে আজ সন্ধ্যায় বিক্ষোভ মিছিল ও ২৫ মার্চ মশাল মিছিল ও বিক্ষোভ সমাবেশের আয়োজন করা হয়েছে বলে প্রগতিশীল ছাত্রজোটের সমন্বয়ক আল কাদেরি জয় জানিয়েছেন।

  • 66
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
উপরে