গৃহায়ণ ও গণপূর্ত মন্ত্রণায়ের পরিচ্ছন্নকর্মী কোটিপতি

প্রকাশিত: ডিসেম্বর ২৪, ২০২০; সময়: ৯:৩২ pm |
খবর > জাতীয়

পদ্মাটাইমস ডেস্ক : গৃহায়ণ ও গণপূর্ত মন্ত্রণায়ের পরিচ্ছন্নকর্মী মোহাম্মদ ইউসুফ। স্থায়ী নন, কাজ করেন দৈনিক হাজিরার ভিত্তিতে। কিন্তু কর্মস্থলে পরিচিতি কোটিপতি হিসাবেই।

কর্মচারি সমিতিরও গুরুত্বপূর্ণ পদে আছেন। তার নামে বিভিন্ন ব্যাংকে জ্ঞাত আয়ের বহির্ভূত বিপুল টাকার লেনদেনসহ কোটি টাকার সম্পদের সন্ধান মিলেছে।

১৪ বছর আগে সচিবালয়ে দৈনিক হাজিরায় পরিচ্ছন কর্মী পদে নিয়োগ পান ইউসুফ। তার বিরুদ্ধে অভিযোগ- অস্থায়ী নিয়োগের পর তিনি কখনোই শ্রমিকের কাজ করেননি। তদবিরের পেছনেই সময় ব্যয় করতেন।

অনুসন্ধানে জানা গেছে- ঢাকার মাতুয়াইল আছে ইউসুফের একটি বাড়ি। ২০১৩ সালে মোহাম্মদপুর রাজিয়া সুলতানা রোডে ৬ তলা একটি বাড়ি মার্কেন্টাইল ব্যাংকে নিলামের সর্বোচ্চ ১ কোটি ২০ লাখ টাকার দরদাতা ছিলেন ইউসুফ।

বারী কেনার বিষয়ে ইউসুফের বক্তব্য, সেটা ২০১৩ সালের বিষয়, সেখানেই শেষ। ওই সময় আমি ঠিকাদারি করতাম।

এদিকে, ইউসুফের তিনটি ব্যাংক একাউন্টে পাওয়া গেছে ২ কোটি ১৮ লাখ টাকা লেনদেনের তথ্য। নিয়মিত কর্মচারী না হলেও সচিবালয় চতুর্থ শ্রেনী কর্মচারী সমিতির সহ সভাপতি হয়েছেন ইউসুফ।

এ বিষয়ে সচিবালয় বহুমুখী সমবায় সমিতির সাধারণ সম্পাদক রুহুল আমীন বলেন, আমাদের গঠনতন্ত্রে অস্থায়ীভাবে লোক নেয়ার সুযোগ নেই। আমরা এভাবে লোক নেই না। এ বিষয়ে সংগঠনে সচিব/মহাসচিবকে জিজ্ঞাসা করতে পারে।

জানা গেছে, ক্ষমতাসীন দলের কয়েকজন নেতার আশির্বাদ পেয়ে আসছেন ইউসুফ। তাই তার বিরুদ্ধে কেউ ব্যবস্থাও নেয় না।

  • 86
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
উপরে