ইয়ামির সৌন্দর্যে ঘি, মধু, ভিনেগার

প্রকাশিত: জুন ১০, ২০২১; সময়: ১২:২৬ pm |

পদ্মাটাইমস ডেস্ক : লকডাউনে বলিউডের বেশ কিছু বিয়ে ‘আটকে’ গেছে। অনেকে আবার সাদামাটা আয়োজনে পারিবারিকভাবে বিয়ে করার জন্য লকডাউনকেই বেছে নিয়েছেন সেরা সময় হিসেবে। সেই তালিকায় নাম লিখিয়েছেন বলিউড ও দক্ষিণ ভারতীয় ইন্ডাস্ট্রির অনেকে। সেখানকার সর্বশেষ সংযোজন বলিউড তারকা ইয়ামি গৌতম ও পরিচালক আদিত্য ধর। বিয়েতে ঐতিহ্য মেনে ইয়ামি পরেছিলেন লাল বেনারসি। সাজপোশাকে ছিল আভিজাত্য আর সংস্কৃতির পরশ। অনেকেই বলেছেন, ‘লকডাউনের সবচেয়ে সুন্দর বউ’ নাকি ইয়ামি।

অনেকেই বলেছেন, ‘লকডাউনের সবচেয়ে সুন্দর বউ’ নাকি ইয়ামি।
সদ্য বিয়ে করা বলিউড নায়িকা ইয়ামি গৌতমের বিয়ের রঙিন ছবি ভাইরাল হয়ে ঘুরে বেড়াচ্ছে নেট দুনিয়ায়। ছড়াচ্ছে উৎসবের আনন্দ। হিমাচলে প্রকৃতির কোল ঘেঁষে জন্ম এই বলিউড রূপসীর। তাঁর সৌন্দর্যের সঙ্গে যেন মাখামাখি প্রকৃতির অপার স্নিগ্ধতা। ইয়ামির গোলাপি, দাগহীন ত্বক তাঁর সৌন্দর্যকে দিয়েছে অন্যমাত্রা। এই বলিউড অভিনেত্রী নিজেই জানিয়েছেন তাঁর ঝলমলে ত্বকের রহস্য। জেনে নেওয়া যাক ইয়ামির সৌন্দর্যের গোপন রহস্য।

তরল ফেসপ্যাক
মধু, গোলাপজল, গ্লিসারিন আর লেবু মিশিয়ে ইয়ামি এক তরল ফেসপ্যাক বানান। মধু তাঁর ত্বকের নমনীয়তা বজায় রাখে। আর লেবু ত্বকের যেকোনো সমস্যা দূর করে। মধুকে বলা হয় প্রাকৃতিক ময়েশ্চারাইজার। মধু ত্বকের ভেতরে প্রবেশ করে ক্ষতিগ্রস্ত কোষকে মেরামত করে। পাশাপাশি মধু কোষের পুষ্টি জোগায়। এই ফেসপ্যাক তরল হওয়ায় ত্বকের জন্য আরও বেশি করে কার্যকর। এটি ব্যবহার করে দ্রুততম সময়ে ফল পাওয়া যায়। এই বলিউড নায়িকা ত্বক এবং চুলে ডাবের পানি লাগানোর উপকারের কথাও বলেছেন নানান সময়ে। তিনি মুখে নিয়মিত ডাবের পানি লাগান। এর ফলে দূষণের মধ্যেও তাঁর ত্বক থাকে সতেজ।

ইয়ামি গৌতম ঘরেই বানান ফেসপ্যাক
ইয়ামি সব সময় ঘরোয়া পদ্ধতিতে তাঁর ত্বকের পরিচর্যা করেন। ত্বকের উজ্জ্বলতা বাড়ানোর জন্য তিনি বাড়িতেই বানান ফেসপ্যাক। আধা চামচ বেসন, এক চামচ মধু, আধা চামচ গোলাপজল, দুই ফোঁটা গ্লিসারিন আর দুই ফোঁটা লেবুর রস মিশিয়ে একটি মিশ্রণ বানান তিনি। ত্বককে ‘এক্সফোলিয়ট’ করার পর প্যাকটি মুখে লাগান। এরপর পরিষ্কার পানি দিয়ে ভালো করে মুখ ধুয়ে সুতির কাপড় দিয়ে মুছে নেন।

প্রাকৃতিক উপাদানে রূপচর্চা করেন ইয়ামি গৌতম
ইয়ামি ত্বকে ফেসপ্যাক লাগানোর আগে ঘরোয়া পদ্ধতিতে ‘এক্সফোলিয়ট’ করেন। এই বলিউড তারকা চাল মসৃণভাবে গুঁড়া করে তাতে দুধ বা দই মিশিয়ে পেস্ট বানিয়ে নেন। আর এই মিশ্রণ দিয়ে তিনি তাঁর ত্বক পরিষ্কার করেন। ইয়ামি এই ঘরোয়া স্ক্র্যাবারের সাহায্যে ত্বকের মৃত কোষ পরিষ্কার করেন। এর ফলে তাজা, নতুন কোষ বেরিয়ে আসে। আর তাই ইয়ামিকে সব সময় সতেজ লাগে। আর নিজের হাতে ঘরোয়া উপাদান দিয়ে একটি স্ক্র্যাবার বানান। আধা চামচ হলুদ, আধা চামচ চিনি আর এক চামচ মধু—তিনটি উপাদান মিশিয়ে ইয়ামি একটি মিশ্রণ বানান। মিশ্রণটি তিনি স্ক্র্যাবার হিসেবে মুখে আর গলায় লাগান। এর ফলে মৃত কোষ ঝরে যায়। আর ত্বক হয়ে ওঠে ঝলমলে।

ঠোঁটে দেশি ঘি লাগান ইয়ামি
ইয়ামির স্কিন কেয়ার রুটিন সব সময় একই রকম থাকে না। স্থান আর আবহাওয়ার সঙ্গে সঙ্গে বদল হয়। গোলাপি আর মসৃণ ঠোঁটের জন্য এই বলিউড নায়িকা ঠোঁটে দেশি ঘি লাগান। অনেক সময় মুখেও ঘি লাগান তিনি।

পারতপক্ষে মেকআপ করেন না ইয়ামি গৌতম
ইয়ামি রোজ সকালে ঘুম থেকে উঠে আগে যোগব্যায়াম করেন। এর ফলে ত্বক উজ্জ্বল হয় আর চুল ঘন হয়। এই বলিউড নায়িকা সকালে তেল দিয়ে চুল ম্যাসাজ করেন। তারপর শ্যাম্পু করেন। তেল দিয়ে ম্যাসাজ করার পর শ্যাম্পু করলে চুল সব সময় ঘন, পরিষ্কার আর খুসকিমুক্ত থাকে। শ্যাম্পুর পর ইয়ামি কখনোই কন্ডিশনার ব্যবহার করেন না। তার বদলে তিনি ভিনেগার দিয়ে চুল ধুয়ে ফেলেন। এর ফলে চুল মসৃণ আর রেশমের মতো লাগে। ভিনেগার লাগালে চুলে খুসকি হয় না। আর চুলে চিটচিটে ভাবও হয় না। চুলের গোড়ার সমস্যা থেকেও ভিনেগার রক্ষা করে।

মেকআপ করা একদমই পছন্দ করেন না ইয়ামি। তিনি অনেক সময় মেকআপের পরিবর্তে কেবল টাচ আপ করেন। শুধু শুটিংয়ের সময় মেকআপ করেন। তবে ইয়ামির ত্বক এতটাই উজ্জ্বল যে তাঁর আলাদা করে মেকআপ করার প্রয়োজন পড়ে না।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
উপরে