কাঁচা দুধের ফেস প্যাক যেভাবে বানাবেন

প্রকাশিত: জানুয়ারি ২০, ২০২১; সময়: ১:০১ pm |

পদ্মাটাইমস ডেস্ক : কাঁচা দুধ মুখের ত্বকের জন্য উপকারী কারণ এতে রয়েছে ভিটামিন-বি১২, ভিটামিন-বি৬, ভিটামিন-এ, ভিটামিন-ডি২ এবং প্রচুর পরিমাণে প্রোটিন। যা ত্বকের কোষকে পুনরায় সতেজ করতে সহায়তা করে। ফলে ত্বক হয় পূর্বের তুলনায় ফর্সা, মসৃণ ও কোমল। মুখের অবাঞ্ছিত ব্রণ দূর করে কাঁচা দুধ। ত্বককে রাখে হাইড্রেটেড, পাশাপাশি ময়েশ্চারাইজ করে। সেই সাথে ত্বকের কোলাজেন লেভেল প্রয়োজনীয় মাত্রার মধ্যেই ধরে রাখে।

তবে কাঁচা দুধ খেয়ে নয় বরং এর সাহায্যে কিছু ফেস প্যাক বানিয়ে তা ত্বকে লাগাতে হবে। নানাভাবে কাঁচা দুধ দিয়ে ফেস প্যাক বানানো সম্ভব।

যেভাবে বানানো যায় ফেস প্যাক:

১. কাঁচা দুধ, মুলতানি মাটি/বেসনের প্যাক। এই প্যাকটি ২০ মিনিটের জন্য মুখে লাগিয়ে ঠাণ্ডা পানি দিয়ে ধুয়ে নিতে হবে। সপ্তাহে অন্তত ৩ দিন ব্যবহার করলে ভালো ফলাফল পাওয়া যাবে।

২. বাদাম পেস্ট এবং কাঁচা দুধের প্যাক। কমপক্ষে ২০ মিনিট ত্বকে লাগিয়ে রাখতে হবে। তারপর ঠাণ্ডা পানি দিয়ে ধুয়ে মুখে ময়েশ্চারাইজার লাগাতে হবে।

৩. কাঁচা দুধ, লেবুর রস এবং মধুর প্যাক। এই প্যাকটি অন্তত ১৫ মিনিট মুখে ও ঘাড়ে লাগাতে হবে। অতঃপর কুসুম গরম পানি দিয়ে মুখ ও ঘাড় ধুয়ে নিতে হবে। সপ্তাহে একদিন ব্যবহারই যথেষ্ট।

৪. অ্যাভোকাডো পেস্ট এবং কাঁচা দুধের প্যাক। এই প্যাক কমপক্ষে ২০ মিনিট ধরে মুখে ম্যাসাজ করতে হবে। ম্যাসাজ শেষে হালকা গরম পানি দিয়ে মুখ ধুয়ে নিতে হবে।

৫. হলুদ এবং কাঁচা দুধের প্যাক। মুখে ম্যাসাজ করে করে লাগাতে হবে। অন্তত ৫ মিনিটের মতো ম্যাসাজ করতে হবে এবং ম্যাসাজ শেষে ২০ মিনিটের জন্য রেখে দিতে হবে। তারপরে কুসুম গরম পানি দিয়ে মুখ আলতো করে ধুয়ে নিতে হবে।

  • 7
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
উপরে