অবশেষে সুর পাল্টালেন ট্রাম্প

প্রকাশিত: জানুয়ারি ৮, ২০২১; সময়: ১:৫৩ pm |

পদ্মাটাইমস ডেস্ক : বাইডেনের ক্ষমতাগ্রহণের শেষ পর্যায়ে এসে মার্কিনিরা যে জঘন্যতম নজীরবিহীন ঘটনা দেখালেন, তার সবটাই হয়েছে বর্তমান প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের নির্দেশে। যিনি নির্বাচনের শুরু থেকে ফল প্রকাশ এমনকি কংগ্রেসের স্বীকৃতির আগ মুহূর্তে সমর্থকদের লেলিয়ে দিয়েছেন। ফল প্রত্যাখ্যান করে আবারও ভোট জালিয়াতির অভিযোগ তুলেছেন। এমনকি পার্লামেন্টে হামলাকারীদের দেশ প্রেমিক আখ্যা দিয়েছিলেন ট্রাম্প। যার আচরণে হুমকিতে এখন মার্কিন গণতন্ত্র। সেই ট্রাম্পই এবার সুর পাল্টালেন। হামলাকারীদের ‘জঘন্য আক্রমণকারী’ হিসেবে মন্তব্য করলেন তিনি।

শুধু তাই নয়, তার মুখেই এখন শান্তির বুলি। গত দু’মাস ধরে যে ট্রাম্প নির্বাচনের ফলাফল মানেননি, সেই মানুষটাই এখন বলছেন, তার একমাত্র লক্ষ্য শান্তিপূর্ণভাবে ক্ষমতা হস্তান্তর করা। গত বুধবার (৬ জানুয়ারি) কংগ্রেসের অধিবেশনে জো বাইডেনকে জয়ী হিসেবে ঘোষণার আনুষ্ঠানিক প্রক্রিয়ার মধ্যেই হঠাৎ সেখানে হামলা চালান ট্রাম্প সমর্থকরা। এ ঘটনায় এখন পর্যন্ত চারজন নিহত ও অর্ধ শতাধিক মার্কিনি গ্রেফতার হওয়ার খবর পাওয়া গেছে। হামলাকারীদের ঠেকাতে গিয়ে আহত হয়েছেন ক্যাপিটলের বেশ কয়েকজন পুলিশ কর্মকর্তাও।

তবে ঘটনার পরপরই হামলাকারীদের ‘দেশপ্রেমিক’ উল্লেখ করে এক ভিডিও বার্তায় ট্রাম্প বলেন, ‘তোমাদের ভালোবাসি।’ এরপর তার ফেসবুক ও টুইটার তার অ্যাকাউন্ট বন্ধ করে দেয়া হয়। তবে ট্রাম্পকে মানসিকভাবে অসুস্থ উল্লেখ করে তাকে এখনই গদিছাড়া করে ভাইস প্রেসিডেন্ট মাইক পেন্সকে দায়িত্ব নেয়ার অনুরোধ জানিয়েছেন ডেমোক্র্যাটরা। এমনকি এ বিষয়ে খোদ ট্রাম্পের মন্ত্রিসভাতেই আলোচনা হয়েছে বলে জানা গেছে।

চারদিক থেকে এমন চাপে পড়ে অবেশেষে পুরোপুরি সুর পাল্টালেন যুক্তরাষ্ট্রের বিদায়ী প্রেসিডেন্ট। ১২ ঘণ্টা বন্ধ থাকার পর টুইটার অ্যাকাউন্ট ফিরে পেতেই সোশ্যাল মিডিয়ায় আবারও সরব হন ডোনাল্ড ট্রাম্প। তবে নতুন ভিডিওতে তিনি যা বলেছেন, যেভাবে বলেছেন, তা আশা করেননি অনেকেই।

ভিডিওবার্তায় নিজের সমর্থকদের হাতে পার্লামেন্ট ভবন আক্রান্ত হওয়ার ঘটনাকে ‘জঘন্য আক্রমণ’ বলে মন্তব্য করে ট্রাম্প বলেন, ‘কংগ্রেস একটি নতুন প্রশাসনের অনুমোদন দিয়েছে, যা আগামী ২০ জানুয়ারি অভিষিক্ত হবে। এখন আমার লক্ষ্য ক্ষমতার মসৃণ, সুশৃঙ্খল ও নির্বিঘ্ন হস্তান্তর নিশ্চিত করা। এখন ক্ষত নিরাময় এবং পুনর্মিলনের সময়।’

গত নভেম্বরের নির্বাচনের পর এটাই প্রথমবার প্রকাশ্যে ক্ষমতা ছাড়ার ঘোষণা দিলেন ট্রাম্প। অবশ্য ভক্তদের কিছুটা আশার বাণীও শুনিয়েছেন তিনি। বলেছেন, ‘তার সঙ্গে এই যাত্রা সবে শুরু হয়েছে, এখনও অনেকটা পথ বাকি।’

এর আগে শাসরুদ্ধকর অবস্থায় স্থানীয় সময় বুধবার (৬ জানুয়ারি) রাতভর ইলেকট্রোরাল কলেজ ভোট গণনা শেষে জো বাইডেনকে প্রেসিডেন্ট ও কমলা হ্যারিসকে ভাইস প্রেসিডেন্ট হিসেবে আনুষ্ঠানিকভাবে জয়ী ঘোষণা করা করে কংগ্রেস। গণতন্ত্র ও সংবিধান রক্ষায়মার্কিন নেতাদের এ অভূতপূর্ব রায়ে যুক্তরাষ্ট্রের ৪৬তম প্রেসিডেন্ট হিসেবে চূড়ান্ত অনুমোদন পেলেন জো বাইডেন।

এতে করে আমেরিকার মসনদে বসতে আর কোন বাধা থাকলে না তার। নতুন করে কোন অঘটনের জন্ম না হলে আগামী ২০ জানুয়ারি শপথ গ্রহণ করবেন তিনি।

  • 11
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
উপরে