বৈধ ব্যালটও বাদ দিতে বলেন রিপাবলিকান সিনেটর: জর্জিয়ার কর্মকর্তা

প্রকাশিত: নভেম্বর ১৮, ২০২০; সময়: ১০:৩১ am |

পদ্মাটাইমস ডেস্ক: সদ্য সমাপ্ত মার্কিন প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে জর্জিয়া অঙ্গরাজ্যে ডেমোক্র্যাটিক প্রার্থী জো বাইডেনের কাছে সামান্য ব্যবধানে পরাজিত হয়েছেন রিপাবলিকান প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। রাজ্যটিতে নির্বাচন পরিচালনার দায়িত্বে থাকা সেক্রেটারি অব স্টেট ব্রাড রাফেন্সপারজার দাবি করেছেন, প্রাথমিক গণনায় ট্রাম্পের পরাজয় নিশ্চিত হওয়ার পর বৈধভাবে গণনা হয়ে যাওয়া ডাক যোগে আসা ব্যালট বাদ দেওয়া সম্ভব কিনা তা তার কাছে জানতে চেয়েছিলেন রিপাবলিকান সিনেটর লিন্ডসে গ্রাহাম।

তবে ওই কর্মকর্তার সঙ্গে আলাপচারিতার কথা স্বীকার করলেও এই সিনেটর তাকে চাপ প্রয়োগের কথা অস্বীকার করেছেন। ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম গার্ডিয়ানের প্রতিবেদন থেকে এসব তথ্য জানা গেছে।
জর্জিয়ার সেক্রেটারি অব স্টেট ব্রাড রাফেন্সপারজার

এ বছরের মার্কিন প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে জো বাইডেন বিজয়ী হলেও ফলাফল মেনে নিতে অস্বীকৃতি জানিয়ে আসছেন ক্ষমতাসীন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। নির্বাচনে জালিয়াতি ও অনিয়ম হয়েছে বলে তিনি একের পর এক ভিত্তিহীন অভিযোগ তুলছেন। তবে সেসব অভিযোগ উভয় দলের নির্বাচনি কর্মকর্তারাই যুক্তিহীন বলে উড়িয়ে দিচ্ছেন।

১৬টি ইলেক্টোরাল কলেজ ভোটের রাজ্য জর্জিয়া মূলত রিপাবলিকান অধ্যুষিত। ১৯৯২ সালের পর প্রথম বারের মতো এই বছরের নির্বাচনে প্রাথমিক গণনায় ১৪ হাজার ভোটে এগিয়ে আছেন ডেমোক্র্যাট প্রার্থী জো বাইডেন। বর্তমানে রাজ্যটির প্রায় ৫০ লাখ ব্যালট পুনরায় হাতে গণনা করা হচ্ছে। ধারণা করা হচ্ছে এই প্রক্রিয়া আগামী ২০ নভেম্বর শেষ হবে।

এমন প্রেক্ষাপটে ওয়াশিংটন পোস্টকে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে জর্জিয়ার সেক্রেটারি অব স্টেট ব্রাড রাফেন্সপারজার জানান তার সহযোগী রিপাবলিকান এবং সিনেটের বিচারিক কমিটির চেয়ারম্যান লিন্ডসে গ্রাহাম তার কাছে রাজ্যের (ব্যালট পেপারে) স্বাক্ষর মেলানো আইন বিষয়ে জানতে চান। স্বাক্ষর না মেলার পরও যেসব কাউন্টিতে নির্বাচনি কর্মকর্তারা বেশি পরিমাণে ডাক যোগে আসা ব্যালট বৈধ ধরেছেন সেখানে রাজনৈতিক পক্ষপাত কাজ করেছে কিনা তাও জানতে চান সিনেটর গ্রাহাম। ব্রাড রাফেন্সপারজারের দাবি এইসব কাউন্টির ডাক যোগে আসা ব্যালট বাতিলের ক্ষমতা তার আছে কিনা সেও প্রশ্নও জিজ্ঞেস করেন গ্রাহাম।

সিনেটরের এসব প্রশ্ন শুনে ব্রাড রাফেন্সপারজার হতবাক হয়ে যান বলে দাবি করেছেন। তিনি বলেন, তার মনে হতে থাকে বৈধ বলে গণনা হওয়া অনুপস্থিতিজনিত ব্যালট বাতিলের উপায় খুঁজছেন গ্রাহাম। জর্জিয়ার সেক্রেটারি অব স্টেট রাফেন্সপারজার বলেন, ‘নিশ্চিতভাবেই মনে হচ্ছিলো যে তিনি সেই পথে যেতে চাইছিলেন।’

সাংবাদিকদের সঙ্গে এক আলাপচারিতায় সিনেটর লিন্ডসে গ্রাহাম ব্রাড রাফেন্সপারজারের সঙ্গে আলোচনার কথা স্বীকার করেন। তবে তিনি দাবি করেন অনুপস্থিতিজনিত ব্যালট বাতিল করতে রাফেন্সপারজারের ওপর চাপ প্রয়োগের অভিযোগ হাস্যকর। গ্রাহাম বলেন, তিনি কেবল স্বাক্ষর যাচাই প্রক্রিয়া নিয়ে আর একটু বেশি জানতে চেয়েছিলেন কারণ জর্জিয়ায় যা ঘটছে তার প্রভাব পুরো দেশে পড়ছে। তিনি বলেন, ‘ভেবেছিলাম একটা ভালো আলোচনা হয়েছে। তিনি এইভাবে সেটিকে চিহ্নিত করেছেন শুনে আমি অবাক হয়েছি।’

তারপরও সিনেটর লিন্ডসে গ্রাহামের মন্তব্যের নিন্দা জানাচ্ছেন যুক্তরাষ্ট্রের ভোটাধিকার এবং নৈতিকতা সংক্রান্ত বিভিন্ন গ্রুপ। কেউ কেউ সিনেটের বিচারিক কমিটির চেয়ারম্যানের পদ থেকে তাকে সরে দাঁড়ানোর আহ্বানও জানিয়েছেন।

  • 10
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

আরও খবর

  • বাগমারায় ইউপি চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে সরকারী খাল দখলের অভিযোগ
  • বেপরোয়া গাড়ি চালাবেন না : কাদের
  • রাজশাহীতে ধর্ষণের শিকার প্রতিবন্ধী তরুণী অন্তঃসত্ত্বা
  • বুলেট ট্রেনে ৫৫ মিনিটে ঢাকা-চট্টগ্রাম
  • চীনের সঙ্গে পাকিস্তানের প্রতিরক্ষা চুক্তি স্বাক্ষর
  • মহান বিজয়ের মাস শুরু
  • লরিচাপায় অটোরিকশাচালকসহ নিহত ২
  • দেশের তৃতীয় সাবমেরিন কেবল স্থাপিত হবে ৬৯৩ কোটি টাকায়
  • রাজশাহীতে ইউপি চেয়ারম্যানকে ধরতে সীমান্তে অভিযান
  • পিএর বিরুদ্ধে কোটি টাকা আত্মসাতের মামলা চিকিৎসকের
  • ৪২ ও ৪৩তম বিসিএসের বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ
  • প্রধানমন্ত্রীর উপহার বাড়ি পেলেন তানোরের সেই আদিবাসী মুক্তিযোদ্ধা
  • চাঁপাইনবাবগঞ্জে হত্যা মামলায় ৭ জনের যাবজ্জীবন
  • পৌরসভায় বিএনপির মনোনয়ন পেলেন যারা
  • রাজশাহীতে নিজের সাক্ষীতেই ফাঁসলেন বাদী
  • উপরে