হ্যাট্রিক জয়ের পর মিশাকে মিস করছেন জায়েদ খান

প্রকাশিত: জানুয়ারি ২৯, ২০২২; সময়: ১২:০৩ pm |
খবর > বিনোদন

পদ্মাটাইমস ডেস্ক : বাংলাদেশ চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতির নির্বাচনে টানা তৃতীয়বারের মতো সাধারণ সম্পাদক পদে জয়লাভ করেছেন চিত্রনায়ক জায়েদ খান। শুক্রবার (২৮ জানুয়ারি) অনুষ্ঠিত ২০২২-২৪ মেয়াদের নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বি নায়িকা নিপুণকে হারিয়ে বিজয় ছিনিয়ে নেন তিনি।

এবারের নির্বাচনে জায়েদের সঙ্গে সভাপতি প্রার্থী ছিলেন মিশা সওদাগর। তারা গত দুই মেয়াদে শিল্পী সমিতির দায়িত্ব পালন করেছেন। তবে এবার সভাপতি পদে জিতেছেন কিংবদন্তি নায়ক ইলিয়াস কাঞ্চন। তাই মিশার পরাজয়ে কষ্ট পেয়েছেন জায়েদ।

ফলাফল ঘোষণার পর সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়ে জায়েদ খান বলেন, ‘আমি আমার সভাপতিকে মিস করছি এবং করব। কারণ যার সঙ্গে দুই মেয়াদে চার বছরের পথচলা, সেই মানুষটির প্রতি তো অবশ্যই মায়া জন্মে যায়। তিনি সাথে থাকলে অনেক বেশি ভালো লাগত। তার সঙ্গে অনেক কাজ করেছি। আমাদের মধ্যে বোঝাপড়াটাও ভালো। তিনি অভিভাবকের সবসময় আমাকে আগলে রাখতেন।’

এবারের নির্বাচনকে নিজের জীবনের সবচেয়ে কঠিন নির্বাচন মনে করেন জায়েদ খান। তার ভাষ্য, ‘নির্বাচনটা এবার অনেক কঠিন ছিল আমার জন্য। কারণ কিছুদিন আগেই আমার মা মারা গেছেন। তাছাড়া এবার অনেক বেশি ষড়যন্ত্র, ব্যক্তিগত আক্রমণ হয়েছে আমাকে কেন্দ্র করে। এ কারণে নির্বাচনটা আমাকে ব্যথিত ও মর্মাহত করেছে। আমাকে টেনে নামানোর চেষ্টা করেছে, হেয় করার চেষ্টা করেছে। যাক, এগুলো এখন মনে না রাখি। নির্বাচিত হয়েছি সবার দোয়া ও শিল্পীদের ভালোবাসায়। যাদের ভোটে আমি তৃতীয়বারের মতো নির্বাচিত হয়েছি, তাদের প্রতি কৃতজ্ঞতা জানাই।’

উল্লেখ্য, শিল্পী সমিতির এই নির্বাচনে ভোটারের সংখ্যা ছিল ৪২৮ জন। এর মধ্যে ভোট দিয়েছেন ৩৬৫ জন। তাদের প্রদত্ত ভোটেই নতুন নেতৃত্ব এসেছে সংগঠনটিতে।

নির্বাচনী ফলাফলে দেখা যায়, ১৯১ ভোট পেয়ে সভাপতি পদে বিজয়ী হয়েছেন ইলিয়াস কাঞ্চন। তার প্রতিদ্বন্দ্বী মিশা সওদাগর পেয়েছেন ১৪৮ ভোট। অন্যদিকে জায়েদের প্রতিদ্বন্দ্বী নিপুণ পেয়েছেন ১৬৩ ভোট।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
উপরে