আমার কাছে শাহরুখের মতো টাকা নেই: সাইফ আলি খান

প্রকাশিত: নভেম্বর ১৭, ২০২১; সময়: ১০:১৮ am |
খবর > বিনোদন

পদ্মাটাইমস ডেস্ক : সাইফ অমৃতার বিয়ের খবর অজানা নয় কারো কাছেই। ভালোবেসে বিয়ে করেছিলেন নিজে চেয়ে বয়সে বড় অমৃতা সিংকে।

তাদের সংসারে ছিল দুই সন্তান। তারপর তাদের জীবনে আসে বিচ্ছেদ নামের শব্দ। বিয়ে ভাঙার পর দীর্ঘদিন মানসিক চাপে ছিলেন বলিউডের ‘নবাব’।অতীতে ঘটে যাওয়া সেসব কথা এক ভারতীয় সংবাদ মাধ্যমের সাক্ষাৎকারে তিনি নিজেই বলেছিলেন।

সাইফ বলেছিলেন, ‘আমি এবং আমার স্ত্রী আলাদা হয়ে গেছি। আমি ওকে সম্মান করি। কিন্তু কেন বারবার মনে করানো হচ্ছে যে স্বামী হিসেবে আমি কতটা খারাপ? বা বাবা হিসেবে কতটা খারাপ? আমার ছেলে ইব্রাহিমের ছবি আমার ব্যাগে থাকে। ওটা দেখেই কান্না পায়। আমার মেয়ে সারার কথা মনে পড়ে।’

একই সঙ্গে সাইফ সেই সময় অভিযোগের সুরে বলেছিলেন , বিবাহবিচ্ছেদের পরে তিনি ছেলেমেয়েদের সঙ্গে দেখা করতে পারতেন না। নিজের পরিবারের সঙ্গে সারা-ইব্রাহিমকে রাখতে চেয়েছিলেন তিনি। কিন্তু তা করতে পারেননি।

সেই সময় খোরপোষ নিয়েও মুখ খুলেছিলেন সাইফ। বলেছিলেন, ‘ অমৃতাকে আমার পাঁচ কোটি টাকা দেওয়ার কথা। তার মধ্যে আমি আড়াই কোটি টাকা দিয়েছি। এ ছাড়াও আমার ছেলের বয়স ১৮ না হওয়া পর্যন্ত প্রত্যেক মাসে ওকে এক লাখ টাকা করে দেব।’

এর পরেই সাইফ ক্ষোভ উগরে দিয়েছিলেন, ‘আমি শাহরুখ খান নই। আমার কাছে এত টাকা নেই। আমি কথা দিয়েছি, সব টাকা দিয়ে দেব। যদি জীবনের শেষ দিন পর্যন্ত টানতে হয়, টানব।’

সেই কঠিন সময় পার করে এসেছেন সাইফ। ‘তাশান’ সিনেমার সেটে কারিনা ও সাইফ একে অপরের প্রেমে পড়েন। এই প্রেম আরও গাঢ় হয় ‘কুরবান’ সিনেমার শুটিংয়ের সময়। তাদের মধ্যে ঘনিষ্ঠতা বাড়ে।

এই দুই বলিউড তারকার দীর্ঘ প্রেমের পর ২০১২ সালের ১৬ অক্টোবর বিয়ে হয়। এরপর তাদের জীবনে আসে দুই ছেলেসন্তান। বড় ছেলের নাম তৈমুর এবং ছোট ছেলের নাম জেহ।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
উপরে