নিজের সোনার পায়েল রাজ রিপাকে দিলেন পরীমণি

প্রকাশিত: সেপ্টেম্বর ৪, ২০২১; সময়: ১২:৪৯ pm |
খবর > বিনোদন

পদ্মাটাইমস ডেস্ক : নায়িকা সত্তার বাইরে পরীমণি দিলখোলা মানুষ। এ কথা তার কাছের মানুষজন খুব ভালো করেই জানেন। যখন যেভাবে পেরেছেন, মানুষকে সহযোগিতা করেছেন, পাশে দাঁড়িয়েছেন। কখনো সুবিধাবঞ্চিত শিশুদের কাছে ছুটে গেছেন, কখনো আবার এফডিসিতে কোরবানি দিয়ে অসহায় শিল্পী-কলাকুশলীদের মুখে হাসি ফুটিয়েছেন।

সহশিল্পীদের মধ্যেও যারা পরীমণির ঘনিষ্ঠ, তাদের জন্য হৃদয় উজাড় করে দেন তিনি। সেই নজির দেখা গেল আবারও। তরুণ নায়িকা রাজ রিপাকে নিজের পায়ের সোনার পায়েল দিয়ে দিলেন পরী।

টানা ২৭ দিন থানা ও কারাগারে থাকার পর ১ সেপ্টেম্বর জামিনে মুক্তি পান পরীমণি। এরপর থেকে অনেকেই তার সঙ্গে দেখা করতে যাচ্ছেন। আগ্রহ নিয়ে বনানীর সেই বাসায় ছুটে যান রাজ রিপা। সেখানে পরীমণির ভালোবাসা ও আপ্যায়নে মুগ্ধ হয়েছেন বলে জানালেন তিনি।

একটি গণমাধ্যমের কাছে রাজ রিপা বলেন, ‘একটা মানুষ এত মিষ্টি হয় কীভাবে! তিনি আমাকে যেভাবে সম্মান জানালেন, আপ্যায়ন করলেন, আমি মুগ্ধ হয়ে গেছি।’

এর আগে কখনো পরীমণির সঙ্গে দেখা হয়নি বলেও জানান রাজ রিপা। তবে পরীর প্রতি ভালোবাসা থেকে তিনি তার মুক্তির জন্য শাহবাগের মানবন্ধনে অংশ নিয়েছিলেন। সেই সঙ্গে মনঃস্থির করে রেখেছিলেন, পরীমণি মুক্তি পেলে তার সঙ্গে দেখা করবেন। গত বৃহস্পতিবার তাই ছুটে যান বনানীর লেকভিউ এলাকায় পরীর নীড়ে।

পরীমণিকে বড় বোনের মতো সম্মান করেন রাজ রিপা। ডাকেন ‘আপি’ বলে। রিপাকে উদ্দেশ্য করে সেদিন পরী বলেছিলেন, ‘আপি ডাকটা তুই খুব মন থেকে ডাকিস। তুই আমার ছোট বোন’। এ কথা বলে নিজের এক পা থেকে সোনার পায়েল খুলে রিপার পায়ে পরিয়ে দেন।

উল্লেখ্য, রাজ রিপাকে দেখা গেছে রায়হান রাফি পরিচালিত ‘পোড়ামন ২’ সিনেমায়। এছাড়া তিনি ‘মুক্তি’ নামের একটি সিনেমায় কাজ করেছেন। সেটি রয়েছে মুক্তির অপেক্ষায়।

  • 107
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
উপরে