আদর্শ বিশ্ববিদ্যালয় গড়ে তোলার আশাবাদ নতুন পাবিপ্রবি উপাচার্যের

প্রকাশিত: এপ্রিল ১৮, ২০২২; সময়: ১২:৫৯ pm |

পদ্মাটাইমস ডেস্ক : পাবনা বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের নবনিযুক্ত উপাচার্য অধ্যাপক ড. হাফিজা খাতুন শিক্ষক,কর্মকর্তা-কর্মচারীদের বলেছেন, ছাত্র-শিক্ষক, কর্মকর্তা-কর্মচারী সবার সম্মিলিত প্রচেষ্টায় পাবিপ্রবিকে একটি আদর্শ বিশ্ববিদ্যালয় হিসেবে গড়ে তোলা হবে।

সবাই নিজ নিজ দায়িত্ব সুষ্ঠুভাবে পালন করলে অল্পদিনের মধ্যে এই বিশ্ববিদ্যালয়ের স্বতন্ত্র অবস্থান তৈরি হবে দেশবাসীর কাছে। সবাই মিলে আলোকিত জাতি গঠনে আমরা কাজ করবো।

দীর্ঘ প্রায় দেড় মাস উপাচার্য পদ শূন্য থাকার পর নিযুক্ত উপাচার্য অধ্যাপক ড. হাফিজা খাতুন ও দেড় বছর উপ-উপাচার্য পদ শূন্য থাকার পর অধ্যাপক ড. এস এম মোস্তফা কামাল খান শনিবার দুপুরে একসঙ্গে পাবিপ্রবি ক্যাম্পাসে আসেন।

এ সময় ফুল দিয়ে নবনিযুক্ত উপাচার্য ও উপ-উপাচার্যকে বরণ করেন শিক্ষক, কর্মকর্তা-কর্মচারীরা। গত ১২ এপ্রিল ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ভূগোল ও পরিবেশ বিদ্যা বিভাগের (অবসরপ্রাপ্ত) অধ্যাপক ড. হাফিজা খাতুনকে উপাচার্য হিসেবে এবং ১৩ এপ্রিল নর্থ সাউথ বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রাণরসায়ন ও অণুজীব বিজ্ঞান বিভাগের অধ্যাপক ড. এস এম মোস্তফা কামাল খানকে পাবনা বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে উপ-উপাচার্য হিসেবে নিয়োগ দেয় শিক্ষা মন্ত্রণালয়।

পাবিপ্রবি সূত্র জানায়, ২০১৮ সালে ভিসি হিসেবে যোগ দেয়া রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক প্রফেসর ড. এম রোস্তম আলীর মেয়াদ শেষ হয় গত ৬ মার্চ।

এর আগে ২০২০ সালের ১৫ অক্টোবর মেয়াদ শেষে বিদায় নেন উপ-উপাচার্য চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক প্রফেসর ড. আনোয়ারুল ইসলাম এবং কোষাধ্যক্ষ জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক প্রফেসর ড. অনোয়ার খসরু পারভেজ মেয়াদ শেষে পাবিপ্রবি থেকে বিদায় নেন গত বছরের ১৪ সেপ্টেম্বর।

রোস্তম আলী ছিলেন এই বিশ্ববিদ্যালয়ের ৪র্থতম উপাচার্য। ২০০৮-০৯ সাল থেকে ক্লাস শুরু হওয়া এই বিশ্ববিদ্যালয়ে ২য় তম উপাচার্য এর সময় থেকেই নানা অজুহাতে আন্দোলনের নামে নৈরাজ্যকর পরিস্থিতি চলছে।

পাবিপ্রবি সূত্র জানায়, পাবিপ্রবিতে ৫টি ফ্যাকাল্টিতে এবারে ৯২০ আসনে ভর্তি প্রক্রিয়া শুরু হয় গত ২১ থেকে ২৫ জানুয়ারি।

কিন্তু এখন পর্যন্ত ১৫তম কল দিয়েও পুরো আসন পূরণ সম্ভব হয়নি। এখনো ১০০ আসন খালি রয়েছে। শুধু তাই নয়, ভর্তি হয়েও পরে ভর্তি বাতিল করে চলে গেছেন ২১০ জন শিক্ষার্থী।

এদিকে পাবিপ্রবির বিরাজমান পরিস্থিতি নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন বিশিষ্টজনরা। বিশিষ্ট শিক্ষাবিদ ও রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় এবং জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক সিনেট সদস্য প্রফেসর শিবজিত নাগ বলেন, পাবিপ্রবির ইমেজ সংকটে আমাদের স্বপ্ন ভঙ্গ হয়েছে। দিন দিন শিক্ষা ও গবেষণার মান উন্নত হওয়ার পরিবর্তে নিম্নগামী হওয়া হতাশাব্যাঞ্জক।

তিনি বলেন, এই বিশ্ববিদ্যালয়কে রক্ষায় সব মহলকে দৃষ্টি দেওয়া জরুরি।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
উপে