শিবগঞ্জে ধানের সঙ্গে এ কেমন শত্রুতা

প্রকাশিত: মে ৮, ২০২২; সময়: ৮:৩১ pm |

নিজস্ব প্রতিবেদক, শিবগঞ্জ : চাঁপাইনবাবগঞ্জের শিবগঞ্জ উপজেলার জমিনপুর মাঠে রোপণ করা বোরো ধান বাঁশ দিয়ে নষ্টের অভিযোগ উঠেছে প্রতিপক্ষের বিরুদ্ধে। এ নিয়ে রোববার বিকেলে ক্ষতিগ্রস্থ জেনারুল ইসলাম বাদি হয়ে সাতজনের বিরুদ্ধে শিবগঞ্জ থানা ও উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা বরাবর লিখিত অভিযোগ দিয়েছেন।

অভিযোগে জানা গেছে- উপজেলার বিনোদপুর ইউনিয়নের জমিনপুর মাঠে পৈত্রিক জমিতে সম্প্রতি ৫ বিঘা বোরো ধান-২৯ রোপণ করেছিলেন জেনারুল ইসলাম। রোপণ করা ধানগুলোতে ইতোমধ্যে শীষ দেখা দিয়েছে। কিন্তু ধান কাটার উপযোগি হয়নি। গেল মঙ্গলবার গভীর রাতে দুর্বৃত্তরা ৩ বিঘা জমির ধান বাঁশ দিয়ে সম্পূর্ণ মাটিয়ে নুইয়ে দেয়। স্থানীয় বাসিন্দা শহিদুল ইসলামের মাধ্যমে বিষয়টি জেনারুল ইসলাম জানার পর তার কল রেকর্ড সংগ্রহ করেন। পরে ঘটনাস্থলে গিয়ে দেখেন, ৩ বিঘা জমির বোরো ধান মাটিয়ে নুইয়ে পড়েছে।

এতে প্রায় ১’শ মণ ধান শত্রুতা বশত নষ্ট করে দিয়েছে প্রতিপক্ষরা। পাশর্^বর্তী জমির মালিক মজিবুর রহমান জানান, বুধবার কৃষি জমিতে কাজ করার সময় দেখতে পান জেনারুলের জমির বোরো ধান মাটিয়ে নুইয়ে পড়েছে। ধারণা ছিল- ঝড়-বাতাসে হয়তো ধানগুলো নুইয়ে পড়েছে। কিন্তু আশপাশের সকল জমির ধান সচল আছে। শুধু জেনারুলের জমির প্রায় ৩ বিঘা ধান নষ্ট হয়েছে। শত্রুতা করে কে বা কারা এমন ঘটনা ঘটিয়েছে।

শুধু তাই নয়, রীতিমত রোপণ করা ধানের জমিতে মানুষের পায়ের ছাপ রয়েছে। তবে প্রতিপক্ষ জমিনপুর গ্রামের রোজবুল আলীর ছেলে আবদুল বাশিরের মন্তব্য মেলেনি। ক্ষতিগ্রস্থ জেনারুল ইসলাম জানান, পৈত্রিক জমিতে কৃষি পণ্য উৎপাদন করে পরিবারে সংসার চালিয়ে আসছিলেন। হঠাৎ জমির বোরো ধান-২৯ ক্ষতিগ্রস্থ করেছে প্রতিপক্ষরা। জড়িতদের বিরুদ্ধে শাস্তি নিশ্চিতের দাবি জানান।

এদিকে স্থানীয় ইউপি সদস্য কামাল উদ্দিন জানান, ইতোমধ্যে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করা হয়েছে। কে বা কারা শত্রুতা করে এমন ঘটনা ঘটিয়েছে। জড়িতদের খুঁজে বের শাস্তির আওতায় আনার দাবি তার। এ বিষয়ে শিবগঞ্জ থানার ওসি চৌধুরী জোবায়ের আহাম্মদ জানান, এ ঘটনায় এখন পর্যন্ত লিখিত অভিযোগ হাতে পাননি।

অভিযোগ পেলেই জড়িতদের বিরুদ্ধে আইনী ব্যবস্থা নেয়া হবে। উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা কৃষিবিদ শরিফুল ইসলাম জানান, এ ঘটনায় লিখিত অভিযোগ পাওয়া গেছে। তদন্ত করে দোষীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়ার জন্য উর্দ্ধতন কর্তৃপক্ষের দৃষ্টি আর্কষণ করা হবে।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
উপে