উত্তর-দক্ষিনাঞ্চলে যাত্রায় চাপ থাকলেও গাড়ী চলছে স্বাভাবিক

প্রকাশিত: মে ১, ২০২২; সময়: ১১:৫২ am |

নিজস্ব প্রতিবেদক, সিরাজগঞ্জ : ঈদ উপলক্ষে উত্তর-দক্ষিনাঞ্চলের ২২ জেলার ঘরে ফেরা মানুষ নিয়ে যানবাহনের চাপ থাকলেও সিরাজগঞ্জের বঙ্গবন্ধু সেতুর পশ্চিম সংযোগ মহাসড়ক স্বাভাবিক গতি চলছে সব ধরনের গাড়ী। প

রিবারের সাথে আনন্দ ভাগাভাগি করে নিতে গণপরিবহনের পাশাপাশি ট্রাক, পিকআপভ্যান ও মোটরসাইকেলে বাড়ি ফিরছে মানুষ। তবে মাঝে-মাঝে কিছু সময়ের জন্য ধীর গতি অবলম্বন করতে হচ্ছে গাড়ী জটলার কারনে। তবে জেলার প্রায় ৪০ কিলোমিটার মহাসড়ক জুড়ে মোতায়েন করা ৬শ পুলিশের প্রচেষ্টায় তা দীর্ঘ স্থায়ী না হওয়ায় স্বস্তি নিয়ে বাড়ি ফিরছে মানুষ।

বঙ্গবন্ধু সেতু পশ্চিম থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোসাদ্দেক আলী ও হাটিকুমরুল হাইওয়ে থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) লুৎফর রহমান জানান, বঙ্গবন্ধু সেতু পশ্চিম সংযোগ মহাসড়কে যানবাহনের চাপ রয়েছে। তবে ধীরগতি বা যানজটের ভোগান্তি নেই। স্বাভাবিক গতিতে চলছে যানবাহন।

যান চলাচল স্বাভাবিক রাখতে মহাসড়কের ২৬টি পয়েন্টে পুলিশ, আর্মড পুলিশ ও হাইওয়ে পুলিশের ৬ শতাধিক পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। চালকদের সচেতন করতে লিফলেট বিতরন করা হচ্ছে। পাশাপাশি মোটরসাইকেল নিয়ে মহাসড়কে পুলিশ কাজ করছে যানজট নিরসনে।

ঢাকা থেকে রাজশাহী গামী শ্যামলী পরিবহনের চালক আশরাফ হোসেন জানান, ঈদে কম-বেশি ভোগান্তি থাকবেই। প্রতিবছরই তা থাকে। তবে এবার অনেকা ব্যতিক্রম। পুলিশের কার্যক্রমের এবছর প্রশংসা করতেই হয়। কোথাও জটলা হলেই সাথেখ-সাথে তা নিয়ন্ত্রন করা হচ্ছে। তাই মহাসড়কের ভিন্ন চিত্র। ঢাকা থেকে আসতে সেরকম কোন যানজটের পড়তে হয়নি।

ঢাকা থেকে বাসে সিরাজগঞ্জের এনায়েতপুরে পরিবার নিয়ে বাড়ি ফেরা ঝুক্কাল মোল্লা জানান, অন্যান্য বার ঈদে যে অবর্ননীয় দুর্ভোগ পোহিয়ে বাড়ি ফিরতে হয়, এবার অতোটা না। পরিবারের সবার সাথে ঈদ করবো এর চেয়ে আনন্দের কিছু নেই।

এদিকে উত্তরা থেকে নিজের ব্যবহৃত প্রাইভেট কার যোগে উত্তরা থেকে বাড়ি ফেরে গার্মেন্ট কর্মকর্তা ফারুক হোসেন জানান, মাত্র ৪ ঘন্টায় সিরাজগঞ্জের শাহজাদপুর উপজেলার গোপিনাথপুর বাড়ি ফিরেছি। এর আগে তা কখনো সম্ভব নয়নি। এবার আসলেই প্রশাসনের যথাযথ পদক্ষেপ থাকার কারনেই তা সম্ভব হয়েছে। তবে আমরা চাই আবার ঢাকা ফেরা পথও যেন যান চলাচল স্বাভাবিক থাকে।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
উপে