চিরনিদ্রায় শায়িত হলেন প্রবীণ সাংবাদিক অধ্যাপক আতহার হোসেন

প্রকাশিত: জানুয়ারি ১১, ২০২২; সময়: ৫:৫৩ pm |

এসএম ইসাহক আলী রাজু, গুরুদাসপুর : চিরনিন্দ্রায় শায়িত হলেন নাটোরের গুরুদাসপুরের প্রবীণ সাংবাদিক ও খুবজীপুর এম হক ডিগ্রী কলেজের আবসর প্রাপ্ত সহকারী অধ্যাপক মোঃ আতাহার হোসেন। মঙ্গলবার (১১ জানুয়ারী) ভোর ৫টায় হৃদযন্ত্রেরক্রিয়া বন্ধ হয়ে তার নিজ বাস ভবনে মারা যান তিনি।

মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিলো ৭৫ বছর। তার মৃত্যুতে গুরুদাসপুরবাসী একজন গুণী ব্যক্তিকে হারালো। এতে সাংবাদিক মহল ,রাজনৈতিক ব্যক্তিত্ব ও সুশিল সমাজসহ নানা শ্রেণি পেশার মানুষ শোকাহত। তিনি স্ত্রী, ছেলে ও মেয়েসহ অসংখ্য গুণগ্রাহী রেখে গেছেন।

অধ্যাপক মোঃ আতাহার হোসেন দৈনিক নয়া দিগন্তের গুরুদাসপুর উপজেলা প্রতিনিধি হিসেবে কর্মরত এবং খুবজীপুর এম.হক ডিগ্রী কলেজের বংলা বিভাগের সহকারী অধ্যাপক ছিলেন। তার মৃত্যুতে গুরুদাসপুরবাসী একজন গুণী ব্যক্তিকে হারালো। এতে সাংবাদিক মহল ,রাজনৈতিক ব্যক্তিত্ব ও সুশিল সমাজসহ নানা শ্রেণি পেশার মানুষ শোকাহত।

স্থানীয় ও পারিবারিক সুত্র জানায়, মরহুম অধ্যাপক মোঃ আতাহার হোসেন ১৯৭৭ সাল থেকে লেখালেখি শুরু করেন জাতীয় দৈনিক গনকন্ঠ পত্রিকার মাধ্যমে। মৃত্যুর পুর্ব পর্যন্ত তিনি সাংসাবাদিকতার সাথে জড়িত ছিলেন। তিনি দৈনিক নয়া দিগন্তসহ অনেক গুলো পত্রিকায় লেখালেখি করেছেন। তার বর্ণাঢ্য সাংবাদিক জীবনে পেশাগত দায়িত্বে ছিলেন অবিচল। তিনি নিষ্ঠা ও নির্ভিকতার সাথে জীবনের শেষ পর্যন্ত পেশাগত দায়িত পালন করে গেছেন।

দীর্ঘ সাংবাদিক জীবনে তার আবদান ছিলো অতুলনীয়। তিনি চলনবিল প্রেসক্লাবের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি ও আজীবন সদস্য এবং তার নিজস্ব পত্রিকা দৈনিক দিবারাত্রী পত্রিকার প্রকাশক ও সম্পাদক ছিলেন। এয়াড়াও অধ্যাপক মোঃ আতাহার হোসেন উপলোর খুবজীপুর এম.হক ডিগ্রী কলেজের বংলা বিভাগের সহকারী অধ্যাপক ছিলেন।

মঙ্গলবার বাদ জোহর দুপুর ২টা ৩০ মিনিটে গুরুদাসপুর পৌর শহরের চাঁচকৈড় খলিফাপাড়া ঈদগাহ মাঠে
জানাজা শেষে তাকে কবরস্থ করা হয়। তার জানাজা অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন উপজেলা প্রশাসনের উচ্চ পদস্থ কমকর্তা,সাংবাদিক, মুক্তিযোদ্ধা, শিক্ষক, সুশিল সমাজের মানুষসহ রাজনৈতিক, সামাজিক ও সাংস্কৃতিক সংগঠনের নেতৃবৃন্দ।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
উপরে