নওগাঁয় ইউপি ভোটের প্রস্তুতি সম্পন্ন, চার স্তরের নিরাপত্তা

প্রকাশিত: নভেম্বর ২৭, ২০২১; সময়: ৩:৩১ pm |

নিজস্ব প্রতিবেদক, নওগাঁ : সারাদেশে ইউনিয়নপরিষদ সমূহে নির্বাচনের তৃতীয় ধাপে নওগাঁ জেলার দুই উপজেলার ২২টি ইউনিয়ন পরিষদের নির্বাচনের সার্বিক প্রস্তুতি সম্পন্ন হয়েছে। ২৮ নভেম্বর রবিবার জেলার মান্দা উপজেলার ১৪টি এবং বদলগাছি উপজেলার ৮টি ইউনিয়ন পরিষদের নির্বাচন অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে।

জেলা নির্বাচন অফিসার মাহমুদ হাসান জানিয়েছেন এ দুই উপজেলার ১২১৪টি ভোট কেন্দ্রের ১১৫৯টি কক্ষে ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে। ইতিমধ্যে এসব কেন্দ্রে ভোট গ্রহণের জন্য প্রয়োজনীয় ব্যালটপেপার. ভোটবাক্সসহ প্রয়োজনীয় সামগ্রী প্রেরন করার কার্যক্রম চলছে। তিনি জানিয়েছেন রবিবারের ইউপি নির্বাচনে মান্দা উপজেলার মান্দা ইউনিয়ন উপজেলার এবং বদলগাছি উপজেলার পাহাড়পুর ও বদলগাছি সদর ইউনিয়নে ইভিএম পদ্ধতিতে ভোটগ্রহণ করা হবে। বাঁকী ১৯ টি ইউনিয়নে যথারীতি ব্যলটের মাধ্যমে ভোটগ্রহন অনুষ্ঠিত হবে।

জেলা নির্বাচন অফিস সূত্রে জানা গেছে মান্দা উপজেলার ১৪টি ইউনিয়নে মোট ভোটার সংখ্যা ৩ লক্ষ ৬ হাজার ৮শ ৮৮ জন এবং বদলগাছি উপজেলার ৮টি ইউনিয়নে মোট ভোটার সংখ্যা ১ লক্ষ ৬৭ হাজার ২শ ৩২ জন। মান্দা উপজেলার ১৪টি ইউনিয়নে ‘৪০টি কেন্দ্রের ৬৮১ টি কক্ষে এবং বদলগাছি উপজেলার ৮টি ইউনিয়নে ৭৪টি কেন্দ্রের ৪৭৮ টি কক্ষে ভোট গ্রহণ করা হবে।

উল্লেখ্য মান্দা উপজেলার ১৪টি ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে ৯৩ জন, সংরক্ষিত মহিলা সদস্য পদে ১৭৩ জন এবং সাধারন সদস্য পদে ৫৪৩ জন প্রার্থী প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। অপরদিকে বদলগাছি উপজেলার ৮টি ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে ৪৮ জন, সংরক্ষিত মহিলা সদস্য পদে ৯৮ জন এবং সাধারন সদস্য পদে ২৮৪ জন প্রার্থী প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন।

এদিকে রবিবারের ইউপি নির্বাচন সুষ্ঠু অবাধ এবং শান্তিপূর্নভাবে অনুষ্ঠানের লক্ষ্যে ব্যপক নিরাপত্তা ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে। পুলিশ সুপার প্রকৌশলী মোঃ আব্দুল মান্নান মিয়া জানিয়েছেন নির্বাচনকে কেন্দ্র করে ৪ স্তরের নিরাপত্তা ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে। তিনি জানিয়েছেন পূর্বের মতই এ দুই উপজেলায় প্রয়োজনীয় সংখ্যক পুলিশ সদস্য মোতায়েন থাকবে। প্রতি কেন্দ্রে ৪ জন পুলিশ সদস্যের সাথে ২২/২৪ জন আনসার ভিডিপি সদস্য মোতায়েন করা হবে। প্রতিটি ইউনিয়নে একটি করে মোব্ইাল টীম এবং প্রতি ৩টি ইউনিয়নের জন্য একটি করে ষ্ট্রাইকিং ফোর্স টহলরত থাকবে। নির্বাচনী এলাকায় ম্যাজিষ্ট্রেট এবং নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট দায়িত্বরত থাকবেন। এ ছাড়াও সাদা পোশাকে পুলিশ এবং বিজিবি সদস্যরা সার্বক্ষনিক টহলরত থাকবে বলে তিনি জানিয়েছেন।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
উপরে