বদলগাছীতে বিষাক্ত গ্যাসের টাবলেট খেয়ে ১ জনের মৃত্যু

প্রকাশিত: সেপ্টেম্বর ৯, ২০২১; সময়: ৫:৫৩ pm |

নিজস্ব প্রতিবেদক, বদলগাছী : নওগাঁর বদলগাছীতে বিষাক্ত গ্যাসের টাবলেট খেয়ে গুরুতর অসুস্থ হলে হাসপাতালে নেওয়ার পথে আনোয়ার হোসেন ( ৫০) নামের এক ব্যক্তির মৃত্যু হয়েছে। মৃত আনোয়ার হোসেন উপজেলার পাহাড়পুর ইউনিয়নের নুনুজ গ্রামের আলতাফ হোসেনের ছেলে।

থানা ও পরিবার সূত্রে জানা যায়, বদলগাছী উপজেলার পাহাড়পুর ইউনিয়নের নুনুজ হাটখোলা পাড়ার আলতাফ হোসেনের ছেলে আনোয়ার হোসেন তার দুই মেয়ে সন্তান কে তার জমিজমা লিখে দেওয়ায় আনোয়ার হোসেনের ভাতিজারা প্রতিবাদ করে। ইসলাম ধর্মের মতে ছেলে সন্তান না থাকলে কিছু সম্পত্তি ভাতিজারা পাবে। আনোয়ার ভাতিজাদের জমি লিখে দিতে অস্বীকার করেন।

এই নিয়ে বুধবার বিকেলে আনোয়ার হোসেনের সাথে ভাতিজাদের ঝগড়া হয়। সন্ধ্যার দিকে আনোয়ার হোসেন রাগ করে বিষাক্ত গ্যাসের ঔষধ খেয়ে নেয়। বিষাক্ত ঔষুধ খাওয়ার পর আনোয়ার হোসেনের শরীল বেশি খারাপ হতে থাকে। বিষয়টি পরিবারের লোকজন বুঝতে পেরে দ্রুত তাকে জয়পুরহাট সদর হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়।

পরিবারের লোকজনদের অভিযোগ, জয়পুহাট সদর হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার পর দ্বায়িত্বে থাকা চিকিৎসকরা চিকিৎসা সেবা না দিয়ে রেফার্ড করে চিকিৎসা হবেনা বলে বগুড়া নিয়ে যেতে বলে কাল ক্ষেপন করে। পরে চাপের মুখে চিকিৎসা সেবা শুরু করেন। পরে অবস্থার আরো অবনতী হলে তাকে বগুড়া রেফার্ড করেন। রাতে বগুড়া নিয়ে যেতে পথের মধ্যেই আনোয়ার হোসেনের মৃত্যু হয়। খবর পেয়ে বদলগাছী থানা পুলিশ লাশটি উদ্ধার করেছে।

এবিষয়ে জয়পুরহাট সদর হাসপাতালের তত্ত্বাবধায়ক ডাঃ সরদার রাশেদ মোবারক জুয়েল এরু সাথে কথা বললে তিনি জানান, আনোয়ার হোসেন ওয়ার্ডে এ ভর্তি হয়। বিষাক্ত গ্যাসের ঔষধ খাওয়ায় রোগীর নারী ছিদ্র হয়ে যায় রোগীর অবস্থা বেশি খারাপ হতে থাকলে উন্নত চিকিৎসার জন্য তাকে বগুড়াতে রেফার্ড করি।

এ ব্যপারে বদলগাছী থানার ভারপাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আতিকুল ইসলামের সাথে কথা বললে তিনি ঘটনার সত্যতা স্বিকার করে বলেন, এব্যপারে থানায় একটি ইউডি মামলা হয়েছে। লাশ ময়না তদন্তের জন্য মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে। ময়না তদন্তের রিপোর্ট হাতে এলে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

  • 55
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
উপরে