নাটোরে মাদক বিরোধী অ্যাডভোকেসি সভা

প্রকাশিত: সেপ্টেম্বর ২, ২০২১; সময়: ৭:১৭ pm |

নিজস্ব প্রতিবেদক : লাইট হাউস কনসোর্টিয়াম এর অধীনে পরিচালিত ‘‘ড্রাগ এবিউজ রেজিসটেন্ট অ্যান্ড আন্ডারস্ট্যান্ডিং (দাড়াও)’ প্রকল্পের আওতায় ঢাকা আহ্ছানিয়া মিশনের আয়োজনে বৃহস্পতিবার ২ সেপ্টেম্বর ২০২১ ইং তারিখে নাটোর জেলায় সরকারী যে সমস্ত অধিদপরাধে বিভিন্ন ট্রেডে প্রশিক্ষণ প্রদান করছে সেকল অধিদপ্তরের প্রতিনিধিদের সাথে এডভোকেসি সভা আয়োজন করা হয়।

দাড়াও প্রকল্পের সুশীল সমাজের প্ল্যাটফর্মের আহ্বায়ক প্রফেসর অলক মৈত্রেয়’র সভাপতিত্বে স্বাগত বক্তব্য রাখেন ঢাকা আহছানিয়া মিশনের আরবান প্রাইমারী হেলথ কেয়ার প্রকল্পের প্রকল্প ব্যবস্থাপক রিয়াজ উদ্দীন আহমেদ। অ্যাডভোকেসি সভার মূল উদ্দেশ্য ছিলো সরকার কর্তৃক পরিচালিত প্রশিক্ষণ প্রদানকারী সংস্থাগুলিকে তাদের প্রশিক্ষণ/শিক্ষা পাঠক্রম শক্তিশালী করার জন্য মাদকদ্রব্যের বিরূপ প্রভাব এবং এর প্রতিরোধের উপর একটি বিষয়বস্তু সংযোজন করার লক্ষ্যে এবং পরবর্তীতে শিক্ষক এবং প্রশিক্ষকদের প্রতি মনোযোগী করতে সংবেদনশীল করে তোলা।

সভায় দুইটি উপস্থাপনা ছিলো,দাড়াও প্রকল্পের উদ্দেশ্য নিয়ে প্রকল্প ব্যবস্থাপক সুব্রত কুমার পাল এবং মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইন ও মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তরের দেশব্যাপি চলমান বিভিন্ন মাদকবিরোধী কর্মসুচী নিয়ে উপস্থাপনা করেন কর্মসুচী নিয়ে উপস্থাপনা করেন মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তরের নাটোর জেলার মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তরের সহকারী পরিচালক মো. আলমগীর হোসেন।

অ্যাডভোকেসি সভায় আলোচ্য বিষয় নিয়ে বক্তব্য রাখেন এবং করণীয় তুলে ধরেন মহিলা বিষয়ক অধিদপ্তরের উপপরিচালক ফরিদা ইয়াসমিন, যুব উন্নয়ন অধিদপ্তরের উপপরিচালক আতিকুজ্জামান খান, নাটোর জেলা শিক্ষা অফিসের গবেষণা কর্মকর্তা তারিকুল ইসলাম, একাডেমিক সুপারভাইজার সালাহ উদ্দিন ডলার, জাতীয় ইমাম সমিতির সভাপতি মো. আব্দুল খালেক, সমাজ সেবা কার্যালয়ের প্রশিক্ষক অশিক হোসেন রাব্বি, সিনিয়র সাংবাদিক রনেন রায়, আদিবাসী নেতা নরেশ ওড়াও, এনএসকেএস পরিচালক ডিএম রনি পারভেজ আলম প্রমূখ।

বক্তারা বলেন মাদকের ভয়াল থাবা থেকে সমাজকে রক্ষা করার জন্য সকলকে এগিয়ে আসতে হবে বলেও উল্লেখ করেন। শুধু আইন প্রনয়ন নয়, সামাজিক সচেতনতা সৃষ্টি করতে না পারলে মাদক প্রতিরোধ সম্ভব নয়, একই সাথে টেকসই উন্নয়ন লক্ষ্য নিশ্চিত করার লক্ষ্যে একটি সুন্দর সমাজ বিনির্মাণ করতে হবে বলে জানান। প্রশিক্ষণ কারিকুলামে মাদক বিরোধী বিষয় অন্তর্ভুক্তির ব্যাপারে উপস্থিত সকলে একমত পোষণ করেন।

সভাটি সঞ্চালনা করেন দাড়াও প্রকল্পের এডভোকেসি অফিসার উম্মে জান্নাত। উল্লেখ্য ইউএসএইড এবং এফসিডিও-এর আর্থিক সহায়তায় কাউন্টারপার্ট ইন্টারন্যাশনাল কর্তৃক বাস্তবায়নাধীন প্রোমোটিং অ্যাডভোকেসি অ্যান্ড রাইটস (পার) কর্মসূচির আওতায় রাজশাহী ও নাটোর জেলায় দাড়াও প্রকল্পটি মাঠ পর্যায়ে বাস্তবায়িত হচ্ছে। প্রকল্পটি লাইট হাউজ কনর্সোটিয়াম এর সাথে অংশীদার হিসেবে ঢাকা আহ্ছনিয়া মিশন, আসক্ত পুনর্বাসন সংস্থা (আপস) রাজশাহীতে এবং নারী ও শিশু কল্যাণ সোসাইটি নাটোরে কার্যক্রম পরিচালনা করছে।

  • 13
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
উপরে