অ্যাম্বুলেন্সে করে হাসপাতালে আনা হয় ছানাসহ আহত সোনাবউ পাখিকে

প্রকাশিত: জুলাই ৩১, ২০২১; সময়: ৬:০২ pm |

নিজস্ব প্রতিবেদক,  নাটোর : নাটোরের সিংড়ায় শিকারীর কাছ থেকে উদ্ধারকৃত ৫টি পাতি সরালি (বালিহাঁস) ছানাসহ আহত হলুদ (সোনাবউ) পাখি নিয়ে হাসপাতালে আসে পরিবেশ কর্মীরা। শনিবার দুপুরে পৌরসভা পরিচালিত ’চলো’ অ্যাম্বুলেন্সে করে ছানাসহ আহত পাখিকে পশু হাসপাতালে নিয়ে আসে চলনবিল জীববৈচিত্র্য রক্ষা কমিটির সদস্যরা।

আহত পাখি ও ছানাগুলোর চিকিৎসা দেন উপজেলা প্রাণিসম্পদ কর্মকর্তা ডাঃ এসএম খুরসিদ আলম। এ্যাম্বুলেন্সে করে আহত পাখি নিয়ে পশু হাসপাতালে আসার এমন ঘটনা পৌর এলাকায় বেশ সাড়া পড়ে যায়। অনেকেই ঘটনা জানতে ছুটে যান পশু হাসপাতালে।

চলনবিল জীববৈচিত্র্য রক্ষা কমিটির সাধারণ সম্পাদক সাইফুল ইসলাম জানান, শুক্রবার বিকেলে উপজেলার শেরকোল ইউনিয়নের গোয়াল বাতান গ্রামে পাখি কেনা-বেঁচা হচ্ছে বলে খবর পাওয়া যায়। ওই খবরের সূত্র ধরে পাখি উদ্ধারে সিংড়া পৌরসভার পারসিংড়া (বেদেপল্লী), সরকারপাড়া, ও শোলাকুড়া এলাকায় বৃষ্টিতে ভিজে ৪ঘন্টা অভিযান চালিয়ে ব্যর্থ হয় পরিবেশকর্মীরা।

পরে রাত ৮টায় গোপন সংবাদের ভিত্তিতে পারসিংড়া (বেদেপল্লী) থেকে ৫টি পাতি সরালি (বালিহাঁস) ছানা উদ্ধার করা হয়। ওই উদ্ধার কার্যক্রম চলা অবস্থায় ওই এলাকার লোভী পাখি খাদক জনৈক পিয়ারুল মা পাখিটিকে জবাই করে। উদ্ধার কর্মীদের তৎপরতা দেখে সে ২টি পাতি সরালি ছানা চটের বস্তায় লুকিয়ে রাখায় ছানা দু’টির মৃত্যু হয়।

পাখির সাথে এমন নিষ্ঠুরতা দেখে উপস্থিত অনেকেই ক্ষদ্ধ হন। পরে উদ্ধারকৃত মা-বিহীন অবুঝ ছানাগুলোর জীবন বাঁচাতে পরিবেশকর্মী হাসান ইমামের কাছে দেয়া হয়। পরদিন তাদের পশু হাসপাতালে নেয়া হয়।
উপজেলা প্রাণিসম্পদ কর্মকর্তা ডাঃ এসএম খুরসিদ আলম বলেন, আহত পাখিটিকে চিকিৎসা দেয়া হয়েছে। আর ছানাগুলোকে বাঁচাতে বিভিন্ন পরামর্শ দেয়া হয়েছে।

  • 309
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
উপরে