ডিএমপি কমিশনার শফিকের মহৎ উদ্যোগ

প্রকাশিত: জুলাই ৯, ২০২১; সময়: ৮:৪৬ pm |

জেষ্ঠ প্রতিবেদক, নওগাঁ : চোখের সামনে বাবার মৃত্যু দেখে কেঁদে উঠে অবুঝ শিশু মরিয়ম। রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের ঘটনা। বাবার লাশের পাশে তার কান্নার ভিডিও নিয়ে গণমাধ্যমে সংবাদ প্রকাশ হয়।

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভাইরাল হয়। সেই মরিয়মের পরিবারের পাশে দাঁড়িয়েছেন ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশ কমিশনার মো. শফিকুল ইসলাম।

তিনি ব্যক্তিগতভাবে মরিয়মের পরিবারকে ২০ হাজার টাকা সহায়তা প্রদান করেন। শুক্রবার দুপুরে আর্থিক সহায়তার সেই নগদ টাকা ওই পরিবারের কাছে হস্তান্তর করেন নওগাঁর পুলিশ সুপার প্রকৌশলী মোঃ আবদুল মান্নান মিয়া। এ সময় তিনি ওই পরিবারের সার্বিক খোঁজ-খবর নেন।

পুলিশ সুপার জানান, ডিএমপি কমিশনার মো. শফিকুল ইসলাম, জেলা পুলিশসহ বিভিন্ন ব্যক্তি মরিয়মের পরিবারকে সহায়তা প্রদান করেছেন। আগামীতেও পরিবারটির সহযোগিতায় পুলিশ পাশে থাকবে বলে জানান তিনি।

ডিএমপি কমিশনারের আর্থিক সহায়তা হস্তান্তরকালে নওগাঁর অতিরিক্ত পুলিশ সুপার বিনয় চন্দ্র সাহা, পোরশা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা শফিউল আজমসহ স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যক্তিরা উপস্থিত ছিলেন।

প্রসঙ্গত, গত ৬ জুলাই পোরশা উপজেলার কেলোনি পাড়া গ্রামের বাসিন্দা মুজিবুর রহমান কোভিড-১৯ উপসর্গ নিয়ে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসার জন্য যান। ভর্তির আগেই তার মৃত্যু হয়। এ সময় হাসপাতালের বারান্দায় বাবার মৃতদেহ পাশে বসে কাঁদছিল তার কন্যা শিশু মরিয়ম। সেই ভিডিও বিভিন্ন গণমাধ্যম ও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভাইরাল হয়।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
উপরে