কঠোর লকডাউনের প্রথম দিনে বদলগাছীতে বৃষ্টিপাত, ফাঁকা সড়ক

প্রকাশিত: জুলাই ১, ২০২১; সময়: ৭:০৭ pm |

নিজস্ব প্রতিবেদক, বদলগাছী : সারাদেশের ন্যায় বদলগাছীতেও আজ বৃহস্পতিবার কঠোর লকডাউনের ছিলো প্রথম দিন। এই প্রথম দিনে হচ্ছে মুষলধারে বৃষ্টি। বুধবার দিবাগত রাত থেকে এ বৃষ্টিপাত শুরু হয়। ফলে সকাল থেকে সড়কে তেমন কোন যানবাহন ছিল না।

তবে কিছু গুরুত্বপূর্ণ যানবাহনগুলোর মধ্যে অ্যাম্বুলেন্স, ওষুধ, কৃষি পণ্য ও খাবারের গাড়িগুলোকে চলতে দেখে গেছে। এনিয়ে পুলিশ ও প্রশাসনের জিজ্ঞাসাবাদের মুখোমুখি পড়তে হয়েছে তাঁদের। তবে সকাল থেকে অযথা রাস্তাঘাটে মানুষকে চলাচল করতে দেখা গেছে।

এছাড়া ও এই উপজেলায় কঠোর লকডাউন বাস্তবায়ন করতে প্রশাসনকে সোহযোগিতা করছে সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ও মাধ্যমিক শিক্ষকদের সমন্বয়ে প্রায় ২৪টি টিম এই ২৪টি টিমকে মনিটরিং করা জন্য তাঁদের সাথে রয়েছে বিভিন্ন সরকারি সরকারি দপ্তরের আলাদা আলাদা কর্মকর্তারাও।

আর এই ২৪ টি টিম দুই সিফটে উপজেলার ১২টি পয়েন্টে বিভিন্ন প্রকার ভেদে ডিউটি করছেন। এই লকডাউনকে বাস্তবায়ন করতে সর্বক্ষণিক মাঠে রয়েছে পুলিশ, সেনাবাহিনী, বিজিবি ও উপজেলা প্রশাসন ।

বৃহস্পতিবার সাকাল সাড়ে ১০ টায় বদলগাছী চৌরাস্তাড় মোড়ে গিয়ে দেখাযায়, হচ্ছে বৃষ্টি এই বৃষ্টির মধ্যে রাস্তায় দাঁড়িয়ে থেকে পুলিশের ফোর্স নিয়ে এই কঠোর লকডাউন বাস্তবায়ন করছে বদলগাছী থানার ভারপাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আতিকুল ইসলাম ও তদন্ত রায়হান হোসেন । পরে টহলে বিজিবি কেউ দেখা যায়।

অপরদিকে, বেলা সাড়ে ১১টর দিকে উপজেলার ভান্ডারপুর এলাকায় যানবাহন শূণ্য দেখা গেছে। সেখানে বৃষ্টিতে হেঁটে উপজেলা সহকারি (ভূমি) কমিশনার সুমন জিহাদী সেনাবাহিনীকে সাথে নিয়ে তাঁর দায়িত্ব পালন করতে দেখা গেছে। পরে দুপুর ১ টায় উপজেলার চৌরাস্তার মোড়ে টহল দেন। এনিয়ে উপজেলা সহকারি (ভূমি) কমিশনার সুমন জিহাদী বলেন, সরকারের দেওয়া প্রজ্ঞাপনের আলোকে তারা ডিউটি পালন করছেন।

বদলগাছী থানার ভারপাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আতিকুল ইসলাম জানান, সকাল থেকে পুলিশ টহলে রয়েছে। এই উপজেলায় থানা পুলিশের দুইটি চেক পোষ্ট বসানো হয়েছে। পুরো উপজেলায় আরো ৬টি মোবাইল পার্টি মুভমেন্ট করছে ।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) আলপনা ইয়াসমিন বলেন, এই উপজেলায় সরকারের এই কঠোর লকডাউন বাস্তবায়নের জন্য মাঠে রয়েছে, সেচ্ছাসেবক, পুলিশ, সেনাবাহিনী ও বিজিবি ও বিভিন্ন দপ্তরের সরকারি কর্মকর্তারা।

তিনি আরো বলেন, যারা অযথা রাস্তাঘাটে চলাচল করছে তাদেরকে পুলিশি জেরার মুখে পড়তে হচ্ছে। বন্ধ আছে সকল ধরনের দোকানপাট, শপিংমল ও বিপনী বিতান। তবে কাঁচাবাজার গুলোতে স্বাস্থ্যবিধি মেনে বেচা-কেনা করা হচ্ছে।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
উপরে