চৌহালীতে ইউপি চেয়ারম্যান মতিন মন্ডলের পদ বহাল

প্রকাশিত: জুলাই ১, ২০২১; সময়: ৬:১৪ pm |

নিজস্ব প্রতিবেদক, সিরাজগঞ্জ : সিরাজগঞ্জের চৌহালীতে বিভিন্ন অভিযোগে স্থানীয় সরকার বিভাগ কর্তৃক বরখাস্ত উমারপুর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মতিন মন্ডলকে পুনরায় বহাল করা হয়েছে। সুপ্রিম কোর্টের হাইকোর্ট বিভাগের এস এক্স-১৯ নম্বর আদালতের বিচারপতি মামুনুর রহমান ও খন্দকার দিলীরুজ্জামানের দৈত ব্রেঞ্চ শুনানী শেষে তার স্বীয় পদ বহালের আদেশ দেন।

হাইকোর্টের আদেশের এ সংক্রান্ত চিঠি জেলা-উপজেলা প্রশাসনের কাছে বুধবার বিকেলে আদালত পাঠিয়েছে বলে জানিয়েছে মতিন মন্ডলের পক্ষের আইনজীবি ব্যারিস্টার মোঃ মাহবুবুর রহমান কিশোর।

আদালত ও স্থানীয় সরকার বিভাগ সুত্রে জানা যায়, স্থানীয় সরকার বিভাগের আওতাধীন বিভিন্ন প্রকল্পের দুর্নীতির অভিযোগ এনে উমারপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আওয়ামীলীগ নেতা আব্দুল মতিনকে স্থানীয় সরকার বিভাগ বরখাস্ত করে। পরে স্থানীয় সরকার (ইউনিয়ন পরিষদ) আইন ২০০৯ এর ৩৪ (৪) (খ) ও (ঘ) ধারায় অপরাধ করায় একই আইনের ৩৪ এর (৫) ধারা মোতাবেক আব্দুল মতিন মণ্ডলকে চেয়ারম্যানের পদ থেকে স্থায়ী অপসারণ করা হয়। এ সংক্রান্ত বিষয়ে হাইকোর্টে আপিল করা হলে সোমবার ঐ আদালতে উভয়পক্ষের শুনানীর সময় চেয়ারম্যান মতিন মন্ডলের বিরুদ্ধে আনিত অভিযোগের সত্যতা না মেলায় তাকে চেয়ারম্যান পদে বলার রাখার নির্দেশ দেন।

এ ব্যাপারে ইউপি চেয়ারম্যান আওয়ামীলীগ নেতা আব্দুল মতিন মন্ডল জানান, আমি মানুষের জন্য কাজ করেছি বলে ৩ বার চেয়ারম্যান হয়েছি। কোন অপরাধের সাথে জড়িত ছিলাম না। বরং নিজেদের তহবিল থেকে করোনা, শীত, বন্যা ও ঈদের সময় কোটি-কোটি টাকার খাদ্য, বস্ত্র, নগদ অর্থ নিজ ইউনিয়ন ও পুরো উপজেলা জুড়ে বিতরন করেছি। ষড়যন্ত্র মুলক ভাবে আমাকে বরখাস্ত করা হয়েছিল। এজন্যই আদালতে নির্দোশ প্রমানিত হয়েছি।

এ বিষয়ে চৌহালী উপজেলা নির্বাহী অফিসার আফসানা ইয়াসমিন জানান, আদালতের আদেশের কপিটি আমরা এখনো পাইনি।

  • 148
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
উপরে