সান্তাহারে ৬০ জনের এন্টিজেন টেস্টে ৮ জনের পজেটিভ

প্রকাশিত: জুন ২৫, ২০২১; সময়: ১:২৫ pm |

নিজস্ব প্রতিবেদক, আদমদীঘি : নওগাঁ-বগুড়ার সীমান্ত এলাকা আদমদীঘির সান্তাহার। জংশন আর বাসস্ট্যান্ড থাকায় অত্যন্ত ব্যস্ততম সান্তাহার পৌর শহরটি। এ শহর ঘেষা নওগাঁ জেলা সদরে প্রায় দিনই করোনায় মারা যাওয়ার খবর জেনেও কেউ সচেতন হচ্ছেন না। বরং এখনো একে অপরের গাঁ ঘেষেই চলছেন অনেকে। ফলে দিন দিন সংক্রমণও বাড়ছে।

ইতিমধ্যে করোনা আক্রান্ত হয়ে মারাও গেছেন কয়েকজন। এমন পরিস্থিতিতে উপজেলা প্রশাসন ও উপজেলা স্বাস্থ্য বিভাগ যৌথ উদ্যোগে বিনামূলে নমুনা সংগ্রহের আয়োজন করে। আর এতে মাত্র একদিনে ৬০জনের নমুনা পরিক্ষায় ৮জনের পজেটিভ ফল আসে বলে জানিয়েছে স্বাস্থ্য বিভাগ।

খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, শহরের হাট, বাজার, রেলস্টেশন, ছোট পরিবহন কোথাও স্বাস্থ্যবিধি মানার বালাই নেই। এমনকি কারো মুখে মাস্ক পর্যন্ত নেই। আবার যাদের আছে তারা কেউ কেউ পকেটে, আবার কেউ গলায় ঝুলিয়ে রাখছেন। এভাবেই করোনা ঝুঁকি নিয়েই লোকজন চলাফেরা এবং প্রয়োজনীয় কাজ সারছেন উপজেলার সান্তাহার পৌর শহর এলাকায়।

শুধু তাই নয়, অনেকেই করোনার উপসর্গ নিয়েই দিব্যি চলাফেরা করছেন। তবে দিনভর এসব বিষয়ে নজর না থাকলেও ঠিক সন্ধ্যায় বাড়ানো হয় পুলিশি তৎপরতা। সম্প্রতি পৌর এলাকায় বেশ কিছু করোনা রোগী শনাক্ত ও মৃত্যুর ঘটনায় উদ্বিগ্ন সচেতন মহল। আর জনসাধারণকে সচেতন করতে মাইকিং করেছে পৌর কর্তৃপক্ষ।

এমতাবস্থায় আদমদীঘি উপজেলা প্রশাসন ও উপজেলা স্বাস্থ্য বিভাগের যৌথ উদ্যোগে বৃহস্পতিবার সকাল ৯টা থেকে বিকেল ৪টা পর্যন্ত সান্তাহার রথবাড়ি ২০শয্যা বিশিষ্ট হাসপাতালে বিনামূলে নমুনা সংগ্রহের আয়োজন করা হয়। এতে ওই দিন ৬০ জনের নমুনা পরিক্ষায় ৮ জনের ফল পজেটিভ আসে।

আদমদীঘি উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. মোমিনুল ইসলাম জানান, ৬০ জনের এন্টিজেন টেস্টে ৮ জনের পজেটিভ আসে। ১৫ মিনিটের মধ্যে এর ফলাফল পাওয়া যায়। আর বাঁকি যাদের নেগেটিভ এসেছে তাদের নমুনা বগুড়া মেডিকেলের পিসিআরে পাঠানো হয়েছে।

বগুড়া জেলা পরিষদের সদস্য ও উপজেলা মহিলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মঞ্জুয়ারা বেগম বলেন, করোনা থেকে বাঁচতে সচেতনতার বিকল্প নেই। উপজেলার সান্তাহার শহর প্রেস ক্লাবসহ সকল সাংবাদিকদের সুরক্ষা সামগ্রী প্রদান করা হয়েছে। পাশাপাশি মানুষকে সচেতন করার চেষ্টা করা হচ্ছে।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
উপরে