সান্তাহারে রেলওয়ের ৮ দোকান সিলগালা ও জরিমানা 

প্রকাশিত: জুন ১৭, ২০২১; সময়: ১০:১৪ pm |
নিজস্ব প্রতিবেদক, আদমদীঘি : বগুড়ার আদমদীঘির সান্তাহারে হোটেল স্টারসহ আট দোকান সিলগালা ও রেলওয়ের অতিরিক্ত জায়গা ব্যবহার করায় আরো আট দোকানির ৯৫ হাজার টাকা জরিমানা করেছে কতৃপক্ষ। বৃহস্পতিবার দুপুরে সান্তাহার স্টেশন রোডে এ অভিযান পরিচালনা করেন রেলওয়ে পশ্চিমাঞ্চলের বিভাগীয় ভূ-সম্পত্তি কর্মকর্তা ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো. নূরুজ্জামান। এসময় আইনসৃঙ্খলা বাহিনির অর্ধশতাধীক সদস্য ও সান্তাহার নেসকো কর্তৃপক্ষ উপস্থিত ছিলেন।

এষ্টেট বিভাগের সান্তাহার কানুনগো কার্যালয় ও স্থানিয় সূত্রে জানাযায়, সান্তাহারে আপ্রকাশি মাল্টিপারপাস নামের সমিতিতে রাখা আমানতের ৩৪ জন নারীর ৭৫ লাখ টাকা টাকা নিয়ে এর নিবার্হী পরিচালক এসএম জুয়েল হোসেন সেই টাকা পরিশোধ করতে না পারায় স্টার হোটেলটি নারী আমানতকারিদের কাছে হস্তান্তর করেন। এরপর থেকে ওই নারীরা আজ পর্যন্ত ব্যবসা করে আসছিলেন। কিন্তু রেলওয়ের কাছে বিগত কয়েক বছরের রাজস্ব (খাজনা) বকেয়া থাকায় বৃহস্পতিবার বেলা ১১টা অভিযান চালিয়ে ওই হোটেলটি সিলগালা করা হয়। পাশাপাশি স্টেশন রোড এলাকায় রেলওয়ের অতিরিক্ত জায়গা ব্যবহার করায় স্টেশন রোডের আট দোকানির ৯৫ হাজার টাকা জরিমানা এবং আরো আটটি দোকান সিলগালা করা হয়েছে।

এসময় সান্তাহার রেলওয়ের ফিল্ড কানুনগো মহসীন আলী, আমীন রাজিবুল ইসলাম, আদমদীঘি থানার উপ-পরিদর্শক রকিব হোসেন, নিরাপত্তা বাহিনীর শফিকুল ইসলাম, সান্তাহার পুলিশ ফাঁড়ির সহকারি উপ-পরিদর্শক (এএসআই) ফারুক হোসেনসহ আইনসৃঙ্খলা বাহিনির অর্ধশতাধীক সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন।

রেলওয়ে পশ্চিমাঞ্চলের বিভাগীয় ভূ-সম্পত্তি কর্মকর্তা ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো. নূরুজ্জামান বলেন, দীর্ঘদিন যাবৎ স্টার হোটেলের মালিক পক্ষ রেলওয়ের রাজস্ব (খাজনা) বকেয়া রাখায় ওই হোটেলটি সিলগালা করা হয়। এছাড়া ওই রোডে মোট ১৬টি দোকানে জরিমানা ও সিলগালা করা হয়।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
উপরে