খুলনায় গভীর রাতে ঘর থেকে বের করে নারীকে হত্যা

প্রকাশিত: জুন ১৫, ২০২১; সময়: ১:১৮ pm |

পদ্মাটাইমস ডেস্ক : খুলনার ডুমুরিয়া উপজেলায় পারভিন বেগম (৩৫) নামের এক নারীকে ছুরিকাঘাতে হত্যা করা হয়েছে। সোমবার রাত তিনটার দিকে ডুমুরিয়া কলেজের পাশে একটি বাড়িতে ওই ঘটনা ঘটে। ওই নারীর সাবেক স্বামী লিটন মোল্লা ওই হত্যাকাণ্ডে জড়িত বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে।

স্থানীয় কয়েকজন জানান, প্রায় সাত বছর আগে ডুমুরিয়া সদর ইউনিয়নের লিটন মোল্লার সঙ্গে ওই নারীর দ্বিতীয় বিয়ে হয়। প্রায় এক মাস আগে তাঁদের বিবাহবিচ্ছেদ হয়। নতুন করে আবার ওই নারীকে বিয়ে করার চেষ্টা করছিলেন লিটন। কয়েক দিন আগে পারভিনকে মেরে ফেলার হুমকি দিয়েছিলেন তিনি। ওই নারীর দুই মেয়ে আছে। প্রথম সংসারের দুই মেয়ের মধ্যে একজনের বিয়ে হয়ে গেছে। অন্যজনের বয়স ছয় বছর। সে মায়ের সঙ্গে সদরের ওই ভাড়া বাসায় থাকত।

পুলিশ বলছে, রাতে ঘরের দরজা ভেঙে পারভিনের ঘরে ঢোকেন লিটন মোল্লা। পরে তাঁকে বের করে ঘরের সামনে ছুরি দিয়ে পেটে ও বুকে আঘাত করেন তিনি। রড দিয়ে তাঁর মাথায় আঘাত করা হয়। তাঁর চিৎকারে স্থানীয় লোকজন ছুটে এলে লিটন পালিয়ে যান। পরে স্থানীয় লোকজন পারভিনকে উদ্ধার করে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসকেরা মৃত ঘোষণা করেন।

ডুমুরিয়া থানার উপপরিদর্শক (এসআই) মো. হামিদুল ইসলাম বলেন, পারভিনের মরদেহ বর্তমানে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে রয়েছে। সেখান থেকে লাশ ময়নাতদন্তের ব্যবস্থা করা হচ্ছে। প্রাথমিকভাবে জানা গেছে, ওই নারীর সাবেক স্বামী ওই হত্যাকাণ্ডের সঙ্গে জড়িত। এখনো থানায় কোনো মামলা হয়নি। কেউ আটকও হয়নি।

 

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
উপরে