কচুয়ায় মাইক্রোবাস ও সিএনজি মুখোমুখি সংঘর্ষে আহত ১০

প্রকাশিত: মে ২৬, ২০২১; সময়: ৮:৩২ pm |

নিজস্ব প্রতিবেদক,কচুয়া: কচুয়ায় বেপরোয়া মাইক্রোবাস ও সিএনজি মুখোমুখি সংর্ঘষে চালক, যাত্রীসহ অন্তত ১০ জন গুরুতর আহত হয়েছেন। বুধবার দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে কচুয়া-সাচার গৌরিপুর আঞ্চলিক সড়কের চাংপুর-শিমুলতলী মোড়ে এ দূর্ঘটনা ঘটে।

দূর্ঘটনায় আহতরা হলেন, চাংপুর গ্রামের সিএনজি চালক হাবিব উল্যাহ অভি, যাত্রী দারাশাহী তুলপাই গ্রামের অধিবাসী নুরুল ইসলাম পাটওয়ারী, তার স্ত্রী ফাতেমা বেগম, শিশু সারজিন পাটওয়ারী, চাংপুর গ্রামের বোরহান উদ্দিন ও তার স্ত্রী শামছুন নাহার।

স্থানীয় লোকজন আহতদের উদ্ধার করে সাচার সেন্ট্রাল হাসাপাতালে ভর্তি করে। আহতদের মধ্যে সিএনজি চালক হাবিব উল্যাহ অভির অবস্থার বেগতিক দেখে ঢাকা মেডিকেল কলেজে উন্নত চিকিৎসার জন্য প্রেরণ করা হয়েছে।

স্থানীয়রা জানান, ঘটনার সময় ঢাকা থেকে আসা কচুয়াগামী মাইক্রোবাস ঢাকা মেট্রো-গ ৪৫-০৯৬৩ গাড়িটি শিমুলতলী সরলীকরণ দু’রাস্তার মুখে এসে কোন রাস্তা যাবে স্থির না করে হঠাৎ এলোমেলো হয়ে যায়। এসময় সাচারগামী সিএনজির মুখোমুখি সংর্ঘষে যাত্রী আহত ও সিএনজিটি দুমড়ে মুচড়ে যায়।

সিএনজি চালক হাবিব উল্যাহ অভির পরিবারের লোকজন জানান, অভি অল্প কিছুদিন আগে অনেক কষ্টে ধার-দেনা করে সিএনজি ক্রয় করেন। কিন্তু দূর্ঘটনার তার স্বপ্ন সব শেষ হয়েছে।

খবর পেয়ে কচুয়া থানার এসআই হাবিবুর রহমান ও এএসআই মো. রাসেল ঘটনাস্থলে গিয়ে মাইক্রো চালক নেয়ামত উল্যাহ,দূর্ঘটনার শিকার মাইক্রো ও সিএনজি উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসেন।

কচুয়া থানার ওসি মো. মহিউদ্দিন জানান, দূর্ঘটনার বিষয়টি শুনে তাৎক্ষনিক ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠিয়েছি এবং ক্ষতিগ্রস্থ দুটি গাড়ি ও মাইক্রো চালককে থানায় নিয়ে আসি।

এদিকে হাজীগঞ্জ-কচুয়া-গৌরিপুর ঢাকা সড়কে বেপরোয়া যানচলাচল বন্ধ ও সড়ক দূর্ঘটনা রোধ করতে প্রশাসনের হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন সাধারণ মানুষ।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
উপরে