তীব্র তাপদাহে সুজানগরে বেড়েছে তালপাখার কদর

প্রকাশিত: মে ২৩, ২০২১; সময়: ৪:১৬ pm |

এম এ আলিম রিপন, সুজানগর : পাবনার সুজানগর সহ স্থানীয় বিভিন্ন অঞ্চলে তীব্র তাপপ্রবাহে জনজীবন অতীষ্ঠ। তারপর আবার বেড়েছে বিদ্যুতের লোডশেডিং। তাইতো প্রচন্ড এই গরমে একটু স্বস্তি পেতে বিদ্যুৎ নির্ভরশীল এলাকার মানুষের কাছেও কদর বেড়েছে তালপাখার । চাহিদা বাড়ায় পাখা তৈরিতে ব্যস্ত সময় পার করছেন সুজানগরের কয়েকটি গ্রামের শতাধিক নারী-পুরুষ।

 

সুজানগর পৌর বাজারের তালপাখা বিক্রেতা শ্রী নব কুমার সাহা বলেন গরম যত বৃদ্ধি পাচ্ছে তালপাখার কদরও তত বৃদ্ধি পাচ্ছে। ঈদের আগে যেখানে দিনে ১০০ থেকে ২০০ পিস পাখা বিক্রি হত, সেখানে গত কয়েক দিনের প্রচন্ড গরমে এখন প্রতিদিন ৮০০ থেকে ১০০০ পিস পাখা বিক্রি করছি। এবং প্রতিটি পাখা ১৫-২৫ টাকা দরে বিক্রি করছেন বলেও জানান তিনি। তালপাখা কিনতে আসা পৌরসভার হাসপাতাল পাড়া এলাকার বাসিন্দা তুফান খান জানান, বর্তমানে প্রচন্ড গরম সেই সাথে বৈদ্যুতিক লোডশেডিং তাই গরম থেকে কিছুটা স্বস্তি পেতে তিনি তালপাখা কিনেছেন। অপর এক ক্রেতা ভবানীপুর গ্রামের বাসিন্দা মাজেদা খাতুন বলেন, সমাজের ধনী লোকেরা বিদ্যুৎ চলে গেলে আইপিএস/জেনারেটর চালুর মাধ্যমে গরম থেকে রক্ষা পায়। কিন্তু আমাদের তো আর সেই সামর্থ নেই। তাই বিদ্যুৎ চলে যাওয়ার পর এই তালপাখাই আমাদের একমাত্র ভরসা।

 

উপজেলার খলিলপুর গ্রামের জামাল উদ্দিন নামে এক পাখার কারিগর বলেন গ্রীষ্মকালে বিশেষ করে বৈশাখ, জ্যৈষ্ঠ,আশ্বিন, কার্তিক ও চৈত্রসহ কয়েকটি মাসে প্রচন্ড তাপপ্রবাহ এবং ভ্যাপসা গরম পড়ে। তাই তালপাতা দিয়ে তৈরি হাতপাখার চাহিদাও বেড়ে যায় বহুগুণ । এই সময়ে তাদেরকে ব্যস্ত সময় পার করতে হয় বলেও জানান তিনি।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
উপরে