আত্রাই জোর পূর্বক ধান কেটে নেয়ার অভিযোগ

প্রকাশিত: এপ্রিল ১৬, ২০২১; সময়: ৯:২২ pm |

নিজস্ব প্রতিবেদক :  আত্রাই উপজেলার হাটকালুপাড়া ইউনিয়নের পাহাড় পুর গ্রামের মোঃ গোলাম মোস্তফার জমিতে জোর করে ধান কাটে নেয়ার অভিযোগ পাওয়া গেছে। শুক্রবার সকালে জোর পূর্বক তার জমির ধান কেটে নেয়া হয়েছে বলে অভিযোগ করেন গোলাম মোস্তফা।

জানান গেছে, মোঃ গোলাম মোস্তফারা ৫ ভাই মিলে ১৯৮৫, ১৯৮৬, ১৯৮৮ সালে রেকর্ডিয় মালিকের দুই পুত্র ও এক কন্যার নিকট হতে ৫৫ শতক জমির কাতে ৫৩ শতক জমি ক্রয় করার পর থেকে অদ্যাবধি ইরিধান রোপণের মাধ্যমে শান্তিপূর্ণ ভাবে ভোগদখল করিয়া আসিতেছে।

কিন্তু শুক্রবার ১৬/০৪/২০২১ ইং তারিখ দুপুর ১২.০০ ঘটিকায় মোঃ গোলাম মোস্তফা নিজস্ব কামলাদ্বারা ধান কাটিয়া জমিতে রেখে আসে নামাজের জন্য। কিন্তু আসার পরে একই গ্রামের ১. মোঃ খোরশেদ মোল্লা পিং মৃত অছিমুদ্দিন মোল্লা, ২. মোঃ রশিদ মোল্লা পিং মোঃ খোরশেদ মোল্লা, ৩. রোজিনা বেগম পিং মোঃ খোরশেদ মোল্লা, ও পার্শ্ববর্তী বড় বিহানালী ইউনিয়নের বাগান্না গ্রামের ৪. মোঃ মোমিন সোনার পিং মৃত মোসলেম আলী সোনার, ৫. মোঃ উজ্জ্বল মোল্লা পিং মৃত অছিমুদ্দিন মোল্লা, ৬. মোঃ সেলিম মোল্লা, ৭. মোঃ সালাম মোল্লা পিং আনিসার মোল্লা সহ অজ্ঞাতনামা আরও ১০/১২ জন মিলে মোঃ গোলাম মোস্তফার বাড়ির রাস্তা দিয়ে দেশীয় অস্ত্র লাঠি, লোহার রড, হাঁসুয়া, ফালা নিয়ে জমিতে গিয়ে আনুমানিক ৬০ মন ধান নিয়ে আসে। এবং জমিতে যাবার সময় তারা বলতে বলতে যায় যে জমিতে গেলে হত্যার হুমকি দেয়।

এবিষয়ে একই গ্রামের বাসিন্দা ১. মোঃ আঃ রাজ্জাক, ২. মোঃ শমসের জানায় জমি ক্রয়ের পর থেকে আজ অব্দি মোঃ গোলাম মোস্তফা এই জমিতে ধান রোপণ করে আসতেছে। কিন্তু এইবার কি মূলে তারা এই ধান কাটিয়া নিয়ে গেছে তারা জানেন না।

এবং তারা আরও জানান যে গোলাম কে তারা প্রাণ নাশের হুমকি দিয়েছে। আর যারা ধান কেটেছে তারা লাঠিয়াল বাহিনী। কিন্তু গোলামেরা গ্রামের শান্তি প্রিয় মানুষ তাই তারা কোন রুপ বাঁধা প্রদান করেন নি। এ বিষয়ে আত্রাই থানা ইনচার্জ বরাবর একটি জিডি করা হয়েছে বলা জানা যায়।

  • 52
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
উপরে