মেয়ে শিশুর জন্ম হওয়ায় গৃহবধূকে তালাক

প্রকাশিত: মার্চ ১২, ২০২১; সময়: ১১:১০ pm |

পদ্মাটাইমস ডেস্ক : গাইবান্ধায় মেয়েশিশুর জন্ম হওয়ায় এক গৃহবধূকে তালাক দেওয়ার অভিযোগ উঠেছে। জেলার সাদুল্লাপুর উপজেলার নলডাঙ্গা ইউনিয়নের ঘোড়ামারা গ্রামের রাজা মিয়ার বিরুদ্ধে এই অভিযোগ করেছেন তার স্ত্রী রোকসানা খাতুন (২৩)।

রোকসানা বলেন, আড়াই মাস আগে পরীক্ষায় ধরা পড়ে আমি মেয়ে সন্তানের মা হতে যাচ্ছি। এরপর আমার ওপর নেমে আসে অমানুষিক নির্যাতন। কখনও সামান্য কারণে মারধর করে আবার কখনও যৌতুক চেয়ে মারধর করে। সোমবার রংপুরের একটি বেসরকারি হাসপাতালে আমার মেয়েশিশুর জন্ম হয়। বৃহস্পতিবার সেখান থেকে ফিরলে আর বাড়ি ঢুকতে দেয়নি। শাশুড়ি বলছেন তালাক দেওয়া হয়েছে আমাকে।

তার স্বামীর মোবাইল ফোনে একাধিকবার যোগাযোগ করা হলেও তিনি সাড়া দেননি। রোকসানার শাশুড়ি আছমা বেগম বলেন, বউয়ের চরিত্র খারাপ। তাই তাকে তিন মাস আগে তালাক দিছে আমার ছেলে। কিন্তু পেটে বাচ্চা ছিল বলে বাড়িতে থাকতে দিয়েছিলাম।” রোকসানা এখন তার বাবার বাড়িতে আছেন।

সাদুল্লাপুর থানার ওসি মাসুদ রানা বলেন, খবর পেয়ে পুলিশ গিয়ে রোকসানার শ্বশুরবাড়িতে কাউকে পায়নি। রোকসানা এখন নবজাতক মেয়েকে নিয়ে বাবার বাড়িতে আছেন। এ বিষয়ে এখনও কোনো লিখিত অভিযোগ পাওয়া যায়নি। অভিযোগ পেলে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

  • 188
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
উপরে