ঢাকায় পাঠানো হয়েছে জোড়া লাগানো যমজ শিশুকে

প্রকাশিত: জানুয়ারি ১২, ২০২১; সময়: ১১:১৬ pm |

নিজস্ব প্রতিবেদক, চাঁপাইনবাবগঞ্জ : রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে জন্ম নেওয়া জোড়া লাগানো যমজ বাচ্চাকে চিকিৎসার জন্য চাঁপাইনবাবগঞ্জ থেকে ঢাকায় নেওয়া হয়েছে। মঙ্গলবার দুপুরে চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলা প্রশাসনের সহায়তায় বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয় হাসপাতালে তাদের পাঠানো হয়।

সকালে চাঁপাইনবাবগঞ্জ পৌর এলাকার বিদিরপুর মহল্লায় গিয়ে যমজ শিশুর বাবা হোটেলশ্রমিক রুবেল আলীর (৪২) হাতে ৫০ হাজার টাকা তুলে দেন জেলা প্রশাসক মো. মঞ্জুরুল হাফিজ। এ সময় সেখানে উপস্থিত ছিলেন সিভিল সার্জন জাহিদ নজরুল চৌধুরী।

রুটির দোকানের শ্রমিক রুবেলের স্ত্রী আঙ্গুরী বেগম (৩৬) সোমবার ভোরে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে অস্ত্রোপচারের মাধ্যমে জন্ম দেন এই দুই যমজ শিশুর। শিশু দুটির হাত-পা, মাথা আলাদা হলেও পেট একটাই।

যমজ শিশুটির একটি ছেলে ও একটি মেয়ে। এদের যৌনাঙ্গ আছে। কিন্তু পায়ুপথ নেই। ঢাকায় শেখ মুজিব বিশ্ববিদ্যালয় হাসপাতালের সার্জারি বিভাগে চিকিৎসা নেওয়ার পরামর্শ দেওয়া হয়েছে।

হাসপাতালের উপপরিচালক সাইফুল ফেরদৌস মো. খাইরুল আতাতুর্ক বলেন, যমজ শিশুটির একটি ছেলে ও একটি মেয়ে। এদের যৌনাঙ্গ আছে। কিন্তু পায়ুপথ নেই। ঢাকায় শেখ মুজিব বিশ্ববিদ্যালয় হাসপাতালের সার্জারি বিভাগে চিকিৎসা নেওয়ার পরামর্শ দেওয়া হয়েছে।

ঢাকায় হাসপাতালে ভর্তির প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়ার কথা জানান জেলা প্রশাসক মঞ্জুরুল হাফিজ। তিনি বলেন, চাঁপাইনবাবগঞ্জের ২৫০ শয্যার জেলা হাসপাতালের অ্যাম্বুলেন্সে করে শিশু দুটিকে g½jevi দুপুরে পাঠানো হয়েছে। চিকিৎসার প্রয়োজনীয় সব ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

রুবেল আলী এ সহায়তা পেয়ে জেলা প্রশাসকের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন। তিনি বলেন, জন্ম নেওয়ার পর তাঁর যমজ বাচ্চাকে দেখতে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে মানুষের প্রচণ্ড ভিড় হয়। পরিস্থিতি সামলাতে চিকিৎসকেরা শিশু দুটিকে বাড়ি নিয়ে যেতে বলেন। তিনি অসুস্থ স্ত্রীকে হাসপাতালে রেখেই গতকাল বিকেলে শিশু দুটিকে বাড়ি নিয়ে আসেন। এখন ঢাকা যাওয়ার পথে স্ত্রীকে সঙ্গে নেবেন।

  • 39
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
উপরে