পুঠিয়ায় বিএনপির শতাধীক নেতাকর্মীর বিরুদ্ধে মামলা

প্রকাশিত: নভেম্বর ২২, ২০২২; সময়: ৯:২৬ pm |
পুঠিয়ায় বিএনপির শতাধীক নেতাকর্মীর বিরুদ্ধে মামলা

নিজস্ব প্রতিবেদক : রাজশাহীর পুঠিয়া উপজেলার শিলমাড়িয়া ইউনিয়নের মোল্লাপাড়া বাজারে হাত বোমা বিস্ফোরণের ঘটনায় বিএনপির শতাধীক নেতাকর্মীর বিরুদ্ধে মামলা হয়েছে। সোমবার পুলিশ বাদি হয়ে ১৬ জনের নাম উল্লেখ করে এ মামলা করেন। মামলায় শতাধিক অজ্ঞাত আসামী করা হয়েছে।

পুঠিয়া থানার ওসি সোহরাওয়ার্দী হোসেন জানান, গত রোববার রাতে মোল্লাপাড়া বাজারে একাধিক হাত বোমার বিস্ফোরণ ঘটে। এতে পুরো এলাকাজুড়ে চরম আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে। এ ঘটনায় সোমবার সকালে পুলিশ ১৬ জন বিএনপির নেতা-কর্মীদের নাম উল্লেখ করে ও আরও শতাধিক অজ্ঞাতনামা আসামি করে থানায় বিস্ফোরক আইনে একটি মামলা দায়ের করা হয়েছে। এ ঘটনায় পুলিশ রাজশাহী জেলা বিএনপির সাবেক সহসভাপতি অধ্যাপক খোরশেদ আলমকে গ্রেপ্তার করেছে। সোমবার বিকেলে উপজেলার মোল্লাপাড়া বাজার থেকে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়।

রাজশাহী জেলার সাবেক যুবদলের সাংগঠনিক সম্পাদক জুলফিকার রহমান ভুট্টু অভিযোগ করে বলেন, ‘আগামী ৩ ডিসেম্বর বিএনপির রাজশাহী বিভাগীয় মহাসমাবেশ। আর এই সমাবেশ সফল করতে সোমবার মোল্লাপাড়া ও সৈয়দপুর বাজারে তৃণমূল বিএনপি ইউনিয়ন পর্যায়ে কর্মী সমাবেশের আয়োজন করেন।

সমাবেশে যোগ দিতে সাবেক (পুঠিয়া-দুর্গাপুর) এমপি ও জেলা বিএনপির সভাপতি নাদিম মোস্তফা আসার কথা ছিল। আর এই সংবাদে ওই এলাকার আওয়ামী যুবলীগ আমাদের সমাবেশ বানচাল করতে তারা পাল্টা কর্মী সমাবেশের ডাক দেয়। বিএনপির মঞ্চ ভেঙেছে যুবলীগ। আর পুলিশ আটক করেছেন বিএনপির নেতাকে ।‘

উপজেলা যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক সুমনউজ্জামান সুমন বলেন, মঞ্চ ভাঙচুর কারা করেছে বলতে পারব না। তবে সৈয়দপুরে ‘যুবলীগ পূর্বনির্ধারিত কর্মী সমাবেশ করেছে। তারা কোনো ভাঙচুর বা গ্যান্জাম করেনি।’ তিনি বলেন, ‘পুঠিয়ায় বিএনপির দুটি গ্রুপ। একটি নাদিম মোস্তফা ও অপরটি নজরুল ইসলাম মন্ডল গ্রুপ। আর আজকে নাদিম মোস্তফা গ্রুপের সমাবেশ মঞ্চ ভাঙচুর করেছে নজরুল মন্ডল গ্রুপের লোকজন।’

পুঠিয়া থানার ওসি সোহরাওয়ার্দী হোসেন বলেন, ‘মোল্লাপাড়া বাজারে স্থানীয় বিএনপির একটি পক্ষ সমাবেশের মঞ্চ করেছিল। সেটা বিএনপির অপর পক্ষের লোকজনই ভাঙচুর করেছে। আর এ ঘটনায় একজনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।’

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
topউপরে