জঙ্গি ছিনতাইয়ের মোটরসাইকেলটি পুরান ঢাকার হাসান আল মামুনের

প্রকাশিত: নভেম্বর ২১, ২০২২; সময়: ২:৩৩ pm |
জঙ্গি ছিনতাইয়ের মোটরসাইকেলটি পুরান ঢাকার হাসান আল মামুনের

পদ্মাটাইমস ডেস্ক : ঢাকার চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতের প্রধান ফটকের সামনে থেকে জঙ্গি আসামিদের ছিনিয়ে নিতে দুটি মোটরসাইকেলে এসেছিল সহযোগীরা। তাড়াহুড়ো করে পালানোর সময় একটি মোটরসাইকেল ফেলেই চলে যায় জঙ্গিরা। বর্তমানে সেই মোটরসাইকেলটি কোতোয়ালী থানায় রয়েছে।

বিআরটিএ সূত্রে জানতে পারে, ঢাকা মেট্রো-ল-৩১-৫৭১০ নম্বরের ওই মোটরসাইকেলটি ১৬০ সিসির হোন্ডা ব্র্যান্ডের হরনেট মডেলের। মোটরসাইকেলটির নিবন্ধন হাসান আল মামুন নামে এক যুবকের নামে। তিনি পুরান ঢাকার বাসিন্দা।

বিআরটিএ সূত্র আরও জানায়, মোটরসাইকেলটির রেজিস্ট্রেশন করা হয়েছিল ২০২১ সালের ১৭ জানুয়ারি। গাড়িটির ইঞ্জিন নম্বর KC39EA000**** এবং চেসিস নম্বর PS0KC3990KH****। রেজিস্ট্রেশন আইডি 62-3844591। এটির প্রথম মালিক তিনি।

সোমবার সকাল পর্যন্ত মোটরসাইকেলের মালিক হাসান আল মামুনকে গ্রেপ্তার করতে পারেনি পুলিশ। এছাড়াও জঙ্গিদের সঙ্গে তার সম্পৃক্ততা, কেন তার মোটরসাইকেলকেই ছিনতাই অপারেশনের জন্য বেছে নেওয়া হলো, এসব বিষয়েও তথ্য নেই কারও কাছে।

পুলিশ জানায়, মোটরসাইকেলটি মালিক সরাসরি সরবরাহ করেছেন কি না, নাকি চুরি হয়েছে তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে। মোটরসাইকেল চুরি হলে তো দলিল থাকার কথা। সার্বিক বিষয়গুলো তদন্ত করছে।

সোমবার সকাল এবিষয়ে সাংবাদিকদের সঙ্গে কথা বলেছেন ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের (ডিএমপি) অতিরিক্ত কমিশনার (ডিবি) হারুন-অর-রশিদ। তিনি বলেন, যারা পালিয়েছেন এবং যারা সহযোগিতা করেছেন সবাইকে আইনের আওতায় নিয়ে আসা হবে। তারা সবাই নজরদারিতে রয়েছেন। যে কোনো সময় তাদের গ্রেপ্তারে আমরা সক্ষম হবো। তারা যাতে পালাতে না পারে সেজন্য ইতোমধ্যে পুলিশ প্রধান সারা দেশে রেড অ্যালার্ট জারি করেছেন।

জঙ্গি ছিনতাইয়ের ঘটনায় রোববার রাতেই কোতোয়ালী থানায় একটি মামলা হয়। মামলাটির তদন্তের দায়িত্ব পেয়েছে পুলিশের কাউন্টার টেরোরিজম অ্যান্ড ট্রান্সন্যাশনাল ক্রাইম (সিটিটিসি) ইউনিট।

এই ইউনিটের প্রধান অতিরিক্ত পুলিশ কমিশনার আসাদুজ্জামান বলেন, ঘটনার সর্বোচ্চ গুরুত্ব দিয়ে সিটিটিসি অভিযান পরিচালনা করছে। আমরা আশা করছি, তাদের গ্রেপ্তার করতে সক্ষম হবো। কীভাবে জঙ্গিরা পালিয়ে গেল, কারা কীভাবে নিয়ে গেল, এগুলো দেখছি। তাদের প্রত্যেক গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে।

এ ঘটনায় সর্বশেষ সোমবার দুপুর ১টা পর্যন্ত দুই জঙ্গির কাউকে গ্রেপ্তার করতে পারেনি পুলিশ।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
topউপরে