মোহনপুর হাসানিয়া তামিরুল মিল্লাত আলিম মাদ্রাসায় অবৈধ ভাবে নিয়োগ দেওয়ার অভিযোগ

প্রকাশিত: নভেম্বর ২০, ২০২২; সময়: ৯:৫২ pm |
মোহনপুর হাসানিয়া তামিরুল মিল্লাত আলিম মাদ্রাসায় অবৈধ ভাবে নিয়োগ দেওয়ার অভিযোগ

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক, মোহনপুর : রাজশাহী মোহনপুর উপজেলার হাসানিয়া তামিরুল মিল্লাত আলিম মাদরাসা গভনিং বর্ডি অবৈধ কমিটি বাতিল এবং নিয়োগ প্রক্রিয়া বন্ধ জন্য ভাতুড়িয়া গ্রামের মৃত রফিক উদ্দিন ছেলে আব্দুল ওহাব লিখিত অভিযোগ চেয়ারম্যান বাংলাদেশ মাদরাসা শিক্ষা বোর্ড ঢাকা, মহাপরিচালক মাদ্রাসা শিক্ষা অধিদপ্তর বাংলাদেশ ঢাকা সহ বিভিন্ন দপ্তরে অভিযোগ দায়ের করেছেন।

বে- সরকারী শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের সর্বশেষ সার্কুলার ও পরিপত্র উপেক্ষা করে বৃদ্ধাআঙ্গুলি দেখিয়ে অবৈধভাবে আবেদন কারী প্রার্থীদের প্রবেশ পত্র ইস্যু না করে গোপনে নিয়োগ দেওয়া অভিযোগ উঠেছে।

অভিযোগ সূত্রে জানাগেছে, গত ২৭ এপ্রিল ২০২২ ইং তারিখে দৈনিক ডেল্টা টাইমস্ অনলাইন পত্রিকায় ঢাকা মোহনপুর হাসানিয়া তামিরুল মিল্লত আলিম মাদ্রাসায় দাখিল শাখার সৃষ্ট পদে কম্পিউটার ল্যাব অপারেটর নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ হলে এর আলোকে উক্ত পদে উপজেলার বাদেজোল গ্রামের মহসিন আলী মেয়ে মোছাঃ মমতাজ জাহান প্রার্থী হিসাবে নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি শর্ত মোতাবেক সোনালী ব্যাংক মোহনপুর শাখায় মাদ্রাসার হিসাব নম্বর -৪৬১১০৩৪০০২৬৭৪ (এক হাজার) টাকা জমা রশিদসহ সকল শর্ত পূরণ সাপেক্ষে আবেদন করেন গত ১২/০৫/২০২২ ইং তারিখে।

পরবর্তীতে ১৪ জুন পুন: নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি দৈনিক ভোরের ডাক ঢাকা প্রকাশিত পত্রিকা প্রকাশ হলে নিজেদের প্রার্থীকে নিয়োগ দেওয়া লক্ষে মোটা উৎকোচের বিনিময়ে প্রতিষ্ঠান প্রধান অধ্যক্ষ শরিফুল ইসলাম ও সভাপতি মোহাম্মাদ আলী যোগসাজসে নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি কপি মাদ্রাসার নোটিশ বোর্ডেসহ বিভিন্ন স্থানে না সাঁটিয়ে গোপন রাখেন। অত্র মাদ্রাসার এবতেদায়ী শিক্ষক মতিউর রহমান এর স্ত্রী মোছাঃ সোনিয়া খাতুনকে নিয়োগ দেওয়ার জন্য নিজেদের পছন্দমতো মনগড়াভাবে ৬ জন প্রার্থীর আবেদন দেখিয়ে গত ১২ নভেম্বর ২০২২ ইং গোপনে লোক দেখানো নিয়োগ বোর্ড সম্পন্ন করেন

। এদিকে প্রার্থী মমতাজ জাহানকে প্রবেশ পত্র ইস্যু/পরীক্ষার জন্য আহবান করা হয়নি। ২০/১১/২০২২ ইং তারিখে কম্পিউটার ল্যাব অপারেটর পদে সোনিয়া খাতুন অত্র মাদ্রাসায় যোগদান করেন। অভিযোগ কারী আব্দুল ওহাব জানান, পুন: বিজ্ঞপ্তিটি মাদ্রাসার নোটিশ বোর্ডে দেখতে না পেয়ে অধ্যক্ষ শরিফুল ইসলামের নিকট গেলে তিনি তথ্য দিতে অস্বীকার করায় বাধ্য হয়ে তিনি ২৩/০৬/২২ ইং তারিখে তথ্য প্রাপ্তির জন্য “ক” ফরম ডাকযোগে আবেদন করলেও অদ্যবধি তথ্য প্রদান করেন নাই।

আব্দুল ওহাব গত ৩০/০১/১৯৯৫ ইং তারিখে দলিল নং ৬৮১/১৫ এর মাধ্যমে মোহনপুর মাদ্রাসায় সেখানে সরকারি মূল ভবন অবস্থিত অত্র দাগে.০৩২৫ একর জমি দান করেছেন। বে-সরকারি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের সর্বশেষ সার্কুলার ও পরিপত্র ৪ এর (২), ৫ এর ৩ উপ-প্রবিধনা (২), ৩৬ এর (১) (২), ৩৮ এর (১) উপ-প্রবিধান (২) এবং ১০ এর(খ) ও (গ) অনুসরণ করে অধ্যক্ষ মাদ্রাসা শিক্ষা বোর্ডকে মিথ্যা তথ্য দিয়ে অপকৌশলে সহকারী শিক্ষক মোহাম্মদ আলীকে সভাপতি, মাহমুদ প্রতিষ্ঠাতা, দাতা সদস্য আব্দুল কাদের মোল্লাকে গভনিং বর্ডি অনুমোদন করে নেয়।

এই বিষয়ে অধ্যক্ষ মোঃ শরিফুল ইসলাম এর সাথে মুঠো ফোনে যোগাযোগ করা হলে নিয়োগ বোর্ড সম্পন্ন করা হয়েছে। পরিপত্র বহিভূত ভাবে সভাপতি করা নির্বাচিত হয়েছে জানতে চাইলে তিনি বলেন বিধি মোতাবেক হয়েছে।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
topউপরে