মিয়ানমারে একযোগে বিমান হামলা, নিহত ১০

প্রকাশিত: নভেম্বর ১৭, ২০২২; সময়: ৯:৫৫ am |
মিয়ানমারে একযোগে বিমান হামলা, নিহত ১০

পদ্মাটাইমস ডেস্ক : মিয়ানমারে প্রতিনিয়ত বাড়ছে জান্তা বাহিনীর তৎপরতা। বুধবার (১৬ নভেম্বর) দেশটির কারেন রাজ্যে তাদের বিমান সংবাদমাধ্যম ইরাবতি জানায়, কারেন ছাড়াও বিভিন্ন রাজ্যে এদিন হামলা চালায় জান্তা সেনারা।

পাল্টা জবাবে, সেনাবাহিনীর অন্তত তিনটি যুদ্ধবিমান ধ্বংস ও আট সেনা সদস্যকে হত্যার দাবি করেছে দেশটির সশস্ত্র গোষ্ঠীগুলো। মিয়ানমারের ন্যাশনাল ইউনিটি গভার্নমেন্ট এনইউজির দাবি, গত ১১ মাসে আড়াইশর বেশি বিমান হামলা চালিয়েছে জান্তা বাহিনী।

কয়েক মাস ধরেই মিয়ানমারের বেশ কয়েকটি রাজ্যে বিদ্রোহী দমনে অভিযান চালানো হচ্ছে। সম্প্রতি এ অভিযান আরও জোরদার করেছে মিয়ানমার সেনারা। বুধবার একযোগে দেশটির বেশ কয়েকটি রাজ্যে বিমান হামলা চালায় তারা। এতে কারেন রাজ্যে তিন চীনা নাগরিকসহ বেশ কয়েকজন নিহত হয় বলে দাবি করেছে স্থানীয় বেশ কয়েকটি সংবাদমাধ্যম।

গতবছর ফেব্রুয়ারিতে মিয়ানমারের গণতান্ত্রিক সরকারকে হটিয়ে ক্ষমতা দখলের পর চালানো অভিযানে এবারই প্রথম জান্তা সেনাদের হামলায় চীনা নাগরিক নিহতের ঘটনা ঘটলো। নিহতরা সবাই কারেন রাজ্যের একটি খনিতে শ্রমিক হিসেবে কাজ করতেন বলে জানা গেছে।

তবে বিভিন্ন রাজ্যে সশস্ত্র গোষ্ঠীর প্রতিরোধের মুখেও পড়েছে জান্তা বাহিনী। ইরাবতি জানিয়েছে, বুধবার সশস্ত্র গোষ্ঠীগুলোর পাল্টা প্রতিরোধে অন্তত তিনটি মিগ-২৯ যুদ্ধবিমান ধ্বংস ও বেশ কয়েকজন জান্তা সেনা নিহত হয়েছেন। কারেন রাজ্যে অভিযান চালিয়ে নিরীহ মানুষ হত্যার জবাবে এ হামলা চালানো হয় বলে জানিয়েছে সশস্ত্র গোষ্ঠী কারেন ন্যাশনাল লিবারেশন আর্মি (কেএনএলএ)।

এদিকে এনইউজির দাবি, গত ১১ মাসে আড়াইশর বেশি বিমান হামলা চালিয়েছে জান্তা বাহিনী। এতে দেড় শতাধিক বেসামরিক নাগরিক নিহত হয়েছেন। আর সেনা অভিযানের কারণে ঘর ছেড়েছেন ১০ লাখের বেশি মানুষ।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
topউপরে