রাবির খনন কৃত সেই পুকুর ভূমিদস্যুদের দখলে

প্রকাশিত: নভেম্বর ১৫, ২০২২; সময়: ৭:৪৫ pm |
রাবির খনন কৃত সেই পুকুর ভূমিদস্যুদের দখলে

নিজস্ব প্রতিবেদক : রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের অনুমোতি ছাড়া প্রায় ২ বিঘা জমিতে খননকৃত একটি পুকুর জবর দখল করেছে ভূমিসদ্যুরা। রাবি কর্তৃপক্ষের অনুমোতি না নিয়ে জবর দখল করে দীর্ঘদিন যাবত পুকুরে মাছ চাষ করছে একটি প্রভাবশালী চক্র বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে।

জানা গেছে, রাবির গোদাগাড়ী বাগান এলাকায় বেশ কিছু দিন আগে একটি পুকুর খননের জন্য টেন্ডার আহব্বান করে রাবি প্রশাসন। সেই টেন্ডারে পুকুর খনন করছিলেন একটি ঠিকাদার প্রতিষ্ঠান। পুকুর খননে অনিয়মের কারনে টেন্ডার বাতিল করে রাবি কর্তৃপক্ষ। তার পরেই পুকুরটি পরিত্যক্ত অবস্থায় রয়েছে। এর মধ্যে গত ৩ মাস যাবত সেই পুকুরটি জবর দখল করে মাছ চাষ করছে একটি প্রভাবশালি মহল। রাবি কর্তৃপক্ষের কাছে থেকে কোন টেন্ডার ছাড়ায় পুকুরটি জবর দখল করে মাছ চাষ করছেন মতিহার মেহেরচন্ডি পূর্বপাড়া এলাকার জামাত আলীর ছেলে সোহেল রানা। সোহেল রানাসহ আরো ৪ থেকে ৫ জন জড়িতো রয়েছে বলে জানা গেছে। রাবি কর্তপক্ষের চোখ ফাঁকি দিয়ে সেই পুকুর দখল করে সে খানে লাখ টাকার মাছ ছেড়ে চাষ করছে বলে স্থানিয় সূত্রে জানান গেছে।

রাবি টেন্ডার শাখা সূত্রে জানা গেছে, রাবি গোদাগাড়ি বাগান এলাকায় পুকুর খননের টেন্ডার দেয়ার পরে ঠিকাদার প্রতিষ্ঠানের কাজে অনিয়মের কারনে টেন্ডার বাতিল করে রাবি কর্তৃপক্ষ। তার পর থেকে প্রায় ২ বিঘা জমির উপরে সে পুকুরটি পরিত্যক্ত রয়েছে। পুকুরটি কাউকে টেন্ডার দেয়া হয়নি আর। কেউ যদি রাবি কর্তৃপক্ষের অনুমোতি না নিয়ে পুকুর দখল করে মাছ চাষ করে তাহলে তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

এ বিষয় রাবি পুকুর জবর দখল কারি সোহেল রানার মুঠো ফোনে যোগাযোগ করা হলে, তিনি নিজেকে ছাত্রলীগ নেতা হিসাবে দাবি করে বলেন, প্রধানমন্ত্রী বলেছে কোন জমি যে এমনি পড়ে না থাকে। পুকুরটিতে মাছ চাষ করছি আমি। ভিসি স্যারের সাথে আমার ভালো সম্পর্ক। তিনি জানেন বিষয়টি।

তিনি আরো বলেন, রিপোর্ট যদি করতে হয় তাহলে আমার একার নামে করবেন কেন। আরো ৫ থেকে ৬ জন জড়িতো রয়েছে তাদের বিরুদ্ধে করবে। তবে আর কারা জড়িতো তাদের নাম বলতে অস্বীকার করেন তিনি।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
topউপরে