এখন ছাড় দিচ্ছি, ডিসেম্বরে ছেড়ে দেব না : কাদের

প্রকাশিত: নভেম্বর ৫, ২০২২; সময়: ৯:৩৮ pm |
এখন ছাড় দিচ্ছি, ডিসেম্বরে ছেড়ে দেব না : কাদের

পদ্মাটাইমস ডেস্ক : আগামী ১০ ডিসেম্বরের পর বিএনপিকে রাজপথে মোকাবিলার হুঁশিয়ারি দিয়েছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের।

১০ ডিসেম্বরের পর বিএনপিকে আন্দোলনের চ্যালেঞ্জ ছুড়ে দিয়ে ওবায়দুল কাদের বলেন, ১০ ডিসেম্বরের পর রাজপথেই মোকাবিলা হবে।

শনিবার (৫ নভেম্বর) রাজধানীর বাড্ডায় ঢাকা মহানগর উত্তর আওয়ামী লীগ আয়োজিত জনসমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্যে ওবায়দুল কাদের এসব কথা বলেন। সমাবেশ শেষে প্রতিবাদী মিছিল বের করে দলটি। সারা দেশে বিএনপি-জামায়াতের দেশবিরোধী ষড়যন্ত্র, নৈরাজ্য, সহিংসতা ও আগুন-সন্ত্রাসের প্রতিবাদে এ শান্তি সমাবেশ ও প্রতিবাদ মিছিলের আয়োজন করা হয়।

ওবায়দুল কাদের বলেন, বিএনপিকে এখন ছাড় দেয়া হচ্ছে, কিন্তু আগামী ডিসেম্বর থেকে আর ছাড় দেয়া হবে না। খেলা হবে। দলের নেতাকর্মীরা প্রস্তুত হয়ে যান।

সেতুমন্ত্রী বলেন, বিএনপির সঙ্গে দেশের মানুষ নেই। বিএনপির বিরুদ্ধে এবং তাদের ভোট চুরি ও দুঃশাসনের বিরুদ্ধে ডিসেম্বরে খেলা হবে। সন্ত্রাস নৈরাজ্যের বিরুদ্ধে আওয়ামী লীগ রাজপথে থাকবে বলেও তিনি জানান।

ডিসেম্বরে আওয়ামী লীগকে হটিয়ে খালেদা জিয়ার নেতৃত্বে সরকার গঠনে বিএনপির স্বপ্ন কোনোদিনই পূরণ হবে না উল্লেখ করে তিনি বলেন, বিএনপিকে এখন ছাড় দিচ্ছেন প্রধানমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগের নেতা শেখ হাসিনা। ডিসেম্বরে ছেড়ে দেয়া হবে না। এ রাজপথ মুক্তিযুদ্ধের মাসে বিএনপির থাকবে না। তখন বিজয়ের চেতনা নিয়ে রাজপথ আওয়ামী লীগের দখলে থাকবে।

তিনি বলেন, তত্ত্বাবধায়ক সরকারের ভূত বিএনপির মাথা থেকে নামাতে হবে। ওটা জাদুঘরে চলে গেছে। তত্ত্বাবধায়ক সরকার এদেশে আর আসবে না।

আন্দোলনের নামে দেশ ও দেশের মানুষ নিয়ে ষড়যন্ত্র করা হলে শক্ত হাতে প্রতিহতের ঘোষণা দেন আওয়ামী লীগের নেতারা।

আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক বাহাউদ্দিন নাছিম বলেন, যারা শান্তিপূর্ণ এ বাংলাদেশে সন্ত্রাস ও বিশৃংখল পরিবেশ তৈরি করবে, গণতান্ত্রিক প্রক্রিয়াকে ব্যাহত করবে তাদের প্রতিহত করতে আওয়ামী লীগ রাজপথে রয়েছে। বিএনপি নেত্রী খালেদা জিয়াকে নিয়ে বিএনপি সমাবেশ করতে চাইলে তার স্থান হবে কারাগার।

সমাবেশে সভাপতিত্ব করেন ঢাকা উত্তর আওয়ামী লীগের সভাপতি শেখ বজলুর রহমান। সভা পরিচালনা করেন ঢাকা উত্তর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এস এ মান্নান কচি। সমাবেশে দলের প্রেসিডিয়াম সদস্য জাহাঙ্গীর কবির নানক, দফতর সম্পাদক ব্যারিস্টার বিপ্লব বড়ুয়াসহ আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় নেতারা বক্তব্য রাখেন।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
topউপরে