শোক ও শ্রদ্ধায় সুজানগরে জেলহত্যা দিবস পালিত

প্রকাশিত: নভেম্বর ৩, ২০২২; সময়: ৮:৫০ pm |
শোক ও শ্রদ্ধায় সুজানগরে জেলহত্যা দিবস পালিত

এম এ আলিম রিপন, সুজানগর : গভীর শোক ও বিনম্র শ্রদ্ধায় নানা কর্মসূচির মধ্য দিয়ে পাবনার সুজানগরে ঐতিহাসিক জেলহত্যা দিবস পালিত হয়েছে। এ উপলক্ষে বৃহস্পতিবার উপজেলা আ.লীগ ও সহযোগী অঙ্গ সংগঠনের উদ্যোগে শোক র‌্যালি বের করা হয়।

র‌্যালিটি পৌর শহরের বিভিন্ন সড়ক প্রদক্ষিণ করে আ.লীগ দলীয় কার্যালয়ের সামনে গিয়ে শেষ হয়। পরে দলীয় কার্যালয়ে উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সহ সভাপতি ও তাঁতীবন্দ ইউপি চেয়ারম্যান আব্দুল মতিন মৃধার সভাপতিত্বে ও পৌর আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক শেখ মিলনের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত জেলহত্যা দিবসের আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্য দেন সুজানগর উপজেলা আ.লীগের সভাপতি আলহাজ্ব আব্দুল ওহাব।

আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে সুজানগর উপজেলা আ.লীগের সভাপতি আলহাজ্ব আব্দুল ওহাব বলেন, ১৯৭৫ সালের ১৫ আগস্ট কালরাত্রিতে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে সপরিবারে নির্মমভাবে হত্যার পর দ্বিতীয় কলঙ্কজনক অধ্যায় এই দিনটি। ১৫ আগস্টের নির্মম হত্যাকান্ডের পর তিনমাসেরও কম সময়ের মধ্যে ১৯৭৫ সালের এই দিনে (৩ নভেম্বর) ঢাকা কেন্দ্রীয় কারাগারের নিভৃত প্রকোষ্ঠে বন্দি অবস্থায় বঙ্গবন্ধুর রাজনৈতিক সহযোদ্ধা এবং মহান মুক্তিযুদ্ধে নেতৃত্বদানকারী জাতীয় চার নেতা সৈয়দ নজরুল ইসলাম, তাজউদ্দিন আহমেদ, এম মুনসুর আলী ও এএইচএম কামরুজ্জামানকে নির্মমভাবে হত্যা করা হয়। এর আগে ১৫ আগস্টের পর এই চার জাতীয় নেতাকে কেন্দ্রীয় কারাগারে পাঠানো হয়। মধ্যরাতে কারাগারের ভিতরের এমন জঘন্য ও বর্বরোচিত হত্যাকান্ড পৃথিবীর ইতিহাসে বিরল। ওই ঘটনায় দেশবাসীসহ সারাবিশ্ব স্তম্ভিত হয়েছিল।

জাতীয় এই চার নেতাকে হত্যার উদ্দেশ্য ছিল বাংলাদেশের মুক্তিযুদ্ধের বিজয় ও চেতনাকে নির্মূল করা। কিন্তু বাংলাদেশের মুক্তিকামী মানুষ সুদীর্ঘ লড়াই-সংগ্রাম আর আত্মত্যাগের বিনিময়ে আওয়ামীলীগের নেতৃত্বে বঙ্গবন্ধুর খুনিচক্র এবং তাদের হত্যার রাজনীতিকে পরাজিত করেছে। সভায় অন্যদের মাঝে বক্তব্য রাখেন উপজেলা আওয়ামীলীগের সাবেক সহসভাপতি ও উপজেলা পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান আব্দুল কাদের রোকন, ভাঁয়না ইউপি চেয়ারম্যান আমিন উদ্দিন, পৌরসভার সাবেক মেয়র ও সাবেক উপজেলা আওয়ামী যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক তোফাজ্জল হোসেন তোফা, উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক দপ্তর সম্পাদক আজিজুর রহমান,সাবেক ধর্ম বিষয়ক সম্পাদক হেলাল উদ্দিন, উপজেলা আওয়ামী যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক সাইদুর রহমান ও উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি জাহিদুল ইসলাম তমাল প্রমুখ। শেষে বঙ্গবন্ধু সহ ১৯৭৫ সালের ১৫ আগস্ট কালরাত্রিতে নিহত সকলের এবং ১৯৭৫ সালের (৩ নভেম্বর) নিহত জাতীয় চার নেতা সৈয়দ নজরুল ইসলাম, তাজউদ্দিন আহমেদ, এম মুনসুর আলী ও এএইচএম কামরুজ্জামানের রুহের মাগফিরাত কামনা করে দোয়া অনুষ্ঠিত হয়।

দোয়া পরিচালনা করেন সুজানগর বাজার কেন্দ্রীয় জামে মসজিদের পেশ ইমাম হাফেজ মাওলানা মো.রফিকুল ইসলাম। এর আগে সকালে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ও জাতীয় চার নেতার প্রতিকৃতিতে পুষ্পার্ঘ্য অর্পণ করে সুজানগর উপজেলা আ.লীগ ও সহযোগী অঙ্গ সংগঠনের নেতাকর্মীরা।

 

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
topউপরে