রাণীনগরে গৃহবধুকে পিটিয়ে হত্যার অভিযোগে মামলা, স্বামী পলাতক

প্রকাশিত: অক্টোবর ৫, ২০২২; সময়: ৭:০৪ pm |
রাণীনগরে গৃহবধুকে পিটিয়ে হত্যার অভিযোগে মামলা, স্বামী পলাতক

নিজস্ব প্রতিবেদক, রাণীনগর : নওগাঁর রাণীনগরে যৌতুকের দাবিতে রিয়ামুনি (২০) নামে এক গৃহবধুকে পিটিয়ে হত্যার পর গাছে ঝুলে রাখার অভিযোগে মামলা দায়ের করা হয়েছে। বুধবার দুপুরে অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সদর সার্কেল) ও থানাপুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শণ শেষে ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য মর্গে পাঠিয়েছেন। গৃহবধু রিয়ামুনি উপজেলার ছাতারদীঘি গ্রামের নুরমোহাম্মদের ছেলে মিলন হোসেনের (২১) স্ত্রী ও একই উপজেলার একডালা ইউনিয়নের রাজাপুর গ্রামের রুবেল ফকিরের মেয়ে।

রিয়ার দাদা আফজাল হোসেন (৭০) বলেন,বিয়ের পর থেকেই কারনে অকারনে স্বামী-স্ত্রীর মধ্যে দ্বন্দ্ব চলছিল। বেশ কয়েকবার নিরসনর করা হয়েছে। হঠাৎ করেই বুধবার সকালে মোবাইল ফোনে জানতে পারেন রিয়া মারা গেছে। তিনি বলেন,রিয়াকে হত্যার পর গলায় রশি দিয়ে গাছের সাথে ঝুলে রেখেছে।

রিয়ার ছোট ভাই রিফাত হোসেন (১৫) বলেন,আমি প্রায়সময় বোন-দুলাভাইয়ের বাড়ীতে এসে থাকতাম। দুলাভাই নিয়মিত গাঁজা-হেরোইন খেতো এবং তাসের মাধ্যমে জুয়া খেলত। নেষাগ্রস্থ্য অবস্থায় রাতে বাড়ীতে এসে বোনের উপর অত্যাচার করত এবং বেশ কয়েকবার আমার সামনে হত্যার হুমকিও দিয়েছিল।

রিয়ার শ্বাশুড়ী মনেকা বিবি বলেন,গত প্রায় দুই বছর আগে একই উপজেলার একডালা ইউনিয়নের রাজাপুর গ্রামের রুবেল ফকিরের মেয়ে রিয়া আক্তারের সাথে আনুষ্ঠানিকভাবে বিয়ে হয়। মঙ্গলবার বিকেলে টাকা পয়সা নিয়ে ছেলে এবং বউয়ের মধ্যে দ্বন্দ্ব হয়েছে। এরপর রাতে ছেলে এবং বউ একসাথে ঘুমিয়ে পরে। রাত অনুমান পৌনে ১২টা নাগাদ বউ নিখোঁজ হয়। এর পর সকালে বাড়ীর উত্তর দিকে অদুরে মাঠের মধ্যে আমগাছে ঝুলন্ত লাশ পাওয়া যায়।

রাণীনগর থানার ওসি আবুল কালাম আজাদ বলেন,যৌতুকের দাবিতে রিয়াকে পিটিয়ে হত্যার অভিযোগে বাবা রুবেল ফকির বাদী হয়ে হত্যা মামলা দায়ের করেছেন। নওগাঁ জেলা অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সদর সার্কেল) মো: রকিবুল হাসান ইবনে রহমানসহ ঘটনাস্থল পরিদর্শন শেষে লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য মর্গে পাঠানো হয়েছে। তবে স্বামীসহ স্বজনরা পলাতক থাকায় কাউকে আটক করা সম্ভব হয়নি।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
topউপরে